• শুক্রবার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ৫ আশ্বিন ১৪২৬  |   ৩৪ °সে
  • বেটা ভার্সন

হংকং-চীন সীমান্ত থেকে ব্রিটিশ দূতাবাস কর্মকর্তা আটক

  আন্তর্জাতিক ডেস্ক

২০ আগস্ট ২০১৯, ১৫:৫৮
হংকং-চীন বর্ডার
হংকং ও চীনের বর্ডার এলাকা। (ছবিসূত্র : বিবিসি নিউজ)

এশিয়ার পরাশক্তি চীনের সীমান্ত এলাকা থেকে প্রতিবেশী রাষ্ট্র হংকংয়ে অবস্থিত যুক্তরাজ্যের দূতাবাস কর্মকর্তাকে আটক করা হয়েছে। ব্রিটিশ কনস্যুলেটের বাণিজ্য ও বিনিয়োগ বিষয়ক এ কর্মকর্তাকে আটকের ঘটনায় এরই মধ্যে গভীর উদ্বেগ জানিয়ে একটি বিবৃতি প্রকাশ করেছে যুক্তরাজ্যের পররাষ্ট্র দপ্তর।

কর্তৃপক্ষের দাবি, কনস্যুলেট কর্মকর্তা সাইমন চেং মূলত হংকংয়ের বাসিন্দা। গত ৮ আগস্ট থেকে তার কোনো সন্ধান পাওয়া যাচ্ছে না বলে এরই মধ্যে আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমের খবরে বলা হচ্ছে।

মঙ্গলবার (২০ আগস্ট) চীনের গুয়াংদং প্রদেশ এবং হংকং প্রশাসনের কাছে নিখোঁজ দূতাবাস কর্মকর্তার সম্পর্কে তেমন কোনো তথ্য আছে কি না এরই মধ্যে নিজেদের বিবৃতিতে বিষয়টি জানতে চেয়েছে ব্রিটেনের পররাষ্ট্র দপ্তর। 

সূত্রের বরাতে ব্রিটিশ গণমাধ্যম 'বিবিসি নিউজ' জানায়, চীনের রাজধানী বেইজিংয়ে অবস্থিত যুক্তরাজ্যের দূতাবাস সাইমনের পরিবার সদস্যদের খোঁজ খবর নিচ্ছে।

বিবৃতিতে ব্রিটিশ পররাষ্ট্র দপ্তরের দাবি, গত ৮ আগস্ট একটি বাণিজ্য বিষয়ক অনুষ্ঠানে অংশ গ্রহণ শেষে চীনের সেনজেন প্রদেশ থেকে হংকং আসার পথে আটক হন দূতাবাস কর্মকর্তা সাইমন চেং। সাইমনের বান্ধবী স্থানীয় একটি গণমাধ্যমকে বলেন, 'সেদিনই তার বাড়ি ফেরার কথা ছিল, কিন্তু সে আর ফেরেনি।'

হংকংয়ে চলমান সরকার বিরোধী বিক্ষোভের কারণে দেশটির সঙ্গে থাকা সীমান্ত এলাকাগুলোতে ব্যাপক নিরাপত্তা জোরদার করেছে প্রতিবেশী রাষ্ট্র চীন। তাছাড়া বেইজিং গণতন্ত্রকামীদের এ আন্দোলনকে সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ড বলেও বারংবার দাবি করে আসছে। একই সঙ্গে স্থানীয় পর্যটকরাও এসব এলাকায় কড়া নিরাপত্তা ব্যবস্থা আরোপের কথা জানিয়েছেন।

বিক্ষোভ

হংকংয়ের বিমানবন্দর চত্বরে বিক্ষোভরত গণতন্ত্রকামীরা। (ছবিসূত্র : সিএনএন)

এর আগে গত মাসে হংকংয়ের চীনপন্থি শাসক ক্যারি ল্যাম বিতর্কিত একটি আসামি প্রত্যর্পণ বিল পাসের উদ্যোগ নিলে সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভে নামেন অঞ্চলটির লক্ষাধিক সাধারণ জনগণ। তাদের আশঙ্কা বিলটি পাস হলে হংকংয়ের রাজনীতিতে চীনের হস্তক্ষেপ অনেকাংশে বৃদ্ধি পাবে।

আরও পড়ুন :- হংকংয়ে গণতন্ত্রকামীদের সঙ্গে আলোচনায় বসতে আগ্রহী প্রশাসন

যদিও পরবর্তীতে ব্যাপক গণআন্দোলনের মুখে বিলটি স্থগিত রাখার সিদ্ধান্ত নেয় কর্তৃপক্ষ। যদিও আন্দোলনকারীদের দাবি, বিলটি স্থগিত না রেখে পুরোপুরি বাতিল করা হোক; যা নিয়ে সরকার ও সাধারণ বেসামরিকদের মধ্যে এখনো সংঘর্ষ অব্যাহত আছে।

ওডি/কেএইচআর

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: মো: তাজবীর হুসাইন

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: ০২-৯১১০৫৮৪

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড