• মঙ্গলবার, ০৭ ডিসেম্বর ২০২১, ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৮  |   ২৬ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

খুলনা-যশোর মহাসড়কে বেড়েই চলেছে দুর্ঘটনা

  শান্ত ইসলাম, খুলনা

২৬ অক্টোবর ২০২১, ১২:১৭
খুলনা-যশোর মহাসড়কে বেড়েই চলেছে দুর্ঘটনা
যানজট (ছবি : দৈনিক অধিকার)

নগরীর খুলনা-যশোর মহাসড়কে ট্রাফিক নিয়ম কানুনের তোয়াক্কা না করে যানবাহনের ইচ্ছা-স্বাধীনভাবে চলাচলের মহাৎসব চলছে। যানবাহনের অবাদে ইচ্ছা-স্বাধীন ট্রাফিক আইনের তোয়াক্কা না করে উল্টা-পাল্টা পার্কিং, ওভারটেকিং, টানিং ও অনুমোদিত ক্ষুদ্র যানবহন চলাচলের কারণে দিনের পর দিন সড়কে যানজটসহ ছোট বড় দুর্ঘটনা বেড়েই চলেছে, আর যার মাশুল গুণতে হচ্ছে কর্মস্থলে ছুটে চলা কর্মব্যস্ত মানুষসহ সাধারণ পথচারী আর স্কুল কলেজের ছাত্র-ছাত্রীদের।

যানজটের লম্বা লাইন এতই দীর্ঘ হচ্ছে যে কয়েক মিনিটের পথ অতিক্রম করতে লম্বা সময় লাগছে। এক সময়ের যানজট মুক্ত খোলামেলা রাস্তাঘাট সম্প্রতি দূরন্তগতিতে ছুটে চলা অসংখ্য মাহেন্দ্ররা, সিএনজি, বাস, ট্রাক, মাঝারি ধরনের যানবাহনের আবাদে বিচরণ ট্রাফিক আইনকে বৃদ্ধাঙ্গুলি দেখিয়ে যানজট সৃষ্টিসহ দৌলতপুরবাসীর স্বাভাবিক চলাচলে ভোগান্তির কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে।

দীর্ঘ লাইনে পড়া ছোট, বড়, মাঝারী যানবাহনগুলো ভারী করে তুলছে মহাসড়কটিকে। বিশেষ করে মহাসড়কে চলাচলরত ক্ষুদ্র বা মাঝারী যানবাহন তথা মাহেন্দ্র, সিএনজি, ইজিবাইক, ইজ্ঞিনের রিক্সা-ভ্যান, দূরপাল্লার বাসগুলোর যাত্রী ওঠা নামানোর প্রতিযোগীতা, ইচ্ছা-স্বাধীন পার্কিংয়ের দরুন এই দীর্ঘ যানজট।

সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, দৌলতপুরস্থ খুলনা-যশোর মহাসড়কে সকাল ৯টার পর হতে দুপুর ১২টা নাগাদ পিরামিড ক্লিনিক সম্মুখ হতে মুহসীন মোড় পর্যন্ত এই যানজট প্রতিয়মান হচ্ছে। এই চিত্র আরও ভয়ংকর হচ্ছে সন্ধ্যার পর। দীর্ঘ লাইনের যানজটের চরম ভোগান্তির শিকার সর্ব মহল। একই সাথে যত্রতত্র গড়ে ওঠা অবৈধ স্ট্যান্ড সহ পাকিংয়ের দরুন রাস্তা সঙ্কীর্ণ হওয়াই ঘটছে দুর্ঘটনা।

উল্লেখ্য, গত ২১ অক্টোবর বিকালে দৌলতপুরস্থ খুলনা-যশোর মহাসড়কের পালপাড়া মোড়ে উপর মারাত্মক দুর্ঘটনা ঘটনা ঘটে। খুলনা হতে পালপাড়া অভিমুখে আসা মাইক্রোবাস সুপার জেলকে একটি পণ্যবাহী ট্রাক পেছন দিক হতে ধাক্কা মারলে মাইক্রোটি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে সম্পূর্ণ সড়কের উপর উল্টি খেয়ে পড়ে। তবে মাইক্রোবাসের মধ্যে বসা থাকা ঝিনাইদহ জেলার একই পরিবারের ৬ সদস্যসহ চালক ভাগ্যক্রমে প্রাণ রক্ষা পান ও সম্পূর্ণ সুরক্ষিত থাকেন।

এ ঘটনায় তাৎক্ষণিক ট্রাক চালক পালিয়ে যায়। পরবর্তীতে ট্রাফিক বিভাগের র‌্যাকার এসে গাড়িটি মূল সড়ক হতে সরিয়ে নেয়। ইজিবাইক, মাহেন্দ্র, সিএনজি, মোটরবাইক, ইঞ্জিনচালিত ভ্যান-রিক্সায় এ ধরণের ছোট বড় দুর্ঘটনা প্রায় সর্বক্ষণই লেগেই আছে।

পথচারী ময়না রহমান জানান বলেন, দৌলতপুর ট্রাফিক মোড় হতে মুহসীন মোড় পর্যন্ত সকাল হতে দুপুর আর সন্ধ্যার পর হতে প্রায় পর্যন্ত দীর্ঘ লাইন লেগেই আছে। এতো জ্যাম যে রাস্তা হেটে পার হতে দীর্ঘ সময় লাগছে। যদিও এ ব্যাপারে ট্রাফিক বিভাগ বলছে, শহরের যানজট নিরসনে ট্রাফিক বিভাগ নিয়মিত নিরলস কাজ করে চলেছেন এবং যানজট মুক্ত শহর গড়ে তুলতে যা করনীয় তার ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

প্রতিনিয়ত শহরের মধ্যে যানবাহনের অনিয়মতান্ত্রিক যত্রতত্র পাকিং সহ ট্রাফিক আইনের কোন তোয়াক্কা না করে অবাধে ইচ্ছা-স্বাধীন চলাচলের ব্যাপারে সুধি সমাজের ব্যক্তিবর্গকে সুশৃঙ্খল যানজট মুক্ত সড়কের আশা অনেকটাই ভাবিয়ে তুলছে।

আরও পড়ুন : নির্বাচনকে কেন্দ্র করে দু-গ্রুপের সংঘর্ষ, আহত ১৫

এলাকাবাসীর ট্রাফিক বিভাগের নিকট প্রত্যাশা দৌলতপুর উপশহরটিকে করা হোক যানজট মুক্ত, যেখানে থাকবেনা কালো ধোয়া শুরু থাকবে নির্মল বাতাসের সুঘ্রাণ।

ওডি/এসএ

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

সহযোগী সম্পাদক: গোলাম যাকারিয়া

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: 02-48118241, +8801907484702 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড