• বৃহস্পতিবার, ২৬ মে ২০২২, ১২ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯  |   ২৯ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

ডিজিটাল অটো টবে পানির অপচয় রোধ হবে ৮০ শতাংশ

  মিলন মাহমুদ, সিঙ্গাইর (মানিকগঞ্জ)

২৬ জানুয়ারি ২০২২, ০৯:২৩
মানিকগঞ্জ
(ছবি : অধিকার)

পানির অপচয় রোধে পরিবেশবান্ধব বনায়নের লক্ষ্যে ডিজিটাল অটো টবের আবিষ্কার করেছেন মানিকগঞ্জের মুহাম্মদ আব্দুল হালিম। এই টবে একবার পানি দিলে তিন মাসে আর পানি দেওয়ার প্রয়োজন নেই। এছাড়া টবটিতে প্রযুক্তিসম্পন্ন একটি ডিভাইসের মাধ্যমে পৃথিবীর যেকোনো প্রান্ত থেকে মোবাইল অ্যাপসের মাধ্যমে পানি দেওয়া যায়। এই প্রযুক্তির মাধ্যমে ৮০ শতাংশ পানির অপচয় রোধ করা যায়।

সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, মানিকগঞ্জের সিঙ্গাইর উপজেলার ধল্লা শহীদ রফিক সেতু সংলগ্ন সৌদি খেজুর নার্সারি নামে একটি দোকানে সাজানো রয়েছে শতাধিক ডিজিটাল অটো টব। পাশেই নার্সারির মালিক মুহাম্মদ আব্দুল হালিম গড়েছেন একটি গবেষণাগার। দীর্ঘ দুই বছর গবেষণা করে তিনি পানির অপচয় রোধে পরিবেশ বান্ধব এই টবের আবিষ্কার করেন। টবটিতে পরিমাণ অনুযায়ী তরল সার প্রয়োগের মাধ্যমে ফুল ও ফলের দ্বিগুণ ফলন হয়। এই ডিজিটাল টবগুলো এমনভাবে তৈরি এতে কোন ধরনের ডেঙ্গু মশার লার্ভা জন্মানোর সুযোগ নেই।

এছাড়াও পরিবেশ বান্ধব এই ডিজিটাল টবের চাহিদা দিন-দিন বেড়েই চলছে। দেশের পাশাপাশি সৌদি আরব, দুবাই, মালোশিয়া, অস্ট্রেলিয়াতেও এই টবের চাহিদা বাড়ছে বলে জানা যায়। ইতিমধ্যে মোহাম্মদ আব্দুল হালিম শিল্প মন্ত্রণালয় থেকে ডিজিটাল এই টবের অনুমোদন পেয়েছেন।

মুহাম্মদ আব্দুল হালিম জানান, ডিজিটাল অটো টবের পানি শেষ হলে আপনার মোবাইলে নোটিফিকেশন চলে যাবে। আপনি আপনার মোবাইল ফোনের এ্যাপসের মাধ্যমে পৃথিবীর যেকোনো প্রান্ত থেকে গাছের টবে পানি দিতে পারবেন। এই টবে একবার পানি দিলে তিন মাস চলবে।

তিনি আরও জানান, প্রচলিত নিয়মে আমরা যে প্রক্রিয়ায় টবে বা ফসলি জমিতে পানি দেই এতে পানির অপচয় হয়। একটি গবেষণায় দেখা গেছে ১ কেজি ধান উৎপাদন করতে গড়ে ২৫০০ থেকে ৩৫০০ লিটার পানি ব্যবহার হয়। এই পানির ৮০ শতাংশই অপচয় হয়। আমাদের প্রযুক্তি ব্যবহারের মাধ্যমে ১ কেজি ধান উৎপাদন করতে ৫০০ লিটার পানিই যথেষ্ট। এছাড়া ভূগর্ভস্থ থেকে অতিরিক্ত পানি উত্তোলন করায় পরিবেশের ভারসাম্য নষ্ট হচ্ছে। পানির লেয়ার নিচে যাচ্ছে ও পৃথিবীর অনেক জায়গায় ইতিমধ্যে দেবে গেছে। কৃষি ক্ষেত্রে আমার এ আবিষ্কারের মাধ্যমে ৮০ শতাংশ পানির অপচয় রোধ সম্ভব। এতে পরিবেশের ভারসাম্য রক্ষা হবে।

কৃষিবিদ ও কৃষি কর্মকর্তা টিপু সুলতান সপন বলেন, আব্দুল হালিমের আবিষ্কার করা ডিজিটাল অটো টব টেকসই, অর্থ সাশ্রয়ী ও পরিবেশ বান্ধব। প্রযুক্তিসম্পূর্ণ ডিজিটাল টবটি দেশে ও দেশের বাইরে চাহিদা রয়েছে। সরকারি পৃষ্ঠপোষকতা পেলে এটি বাণিজ্যিকভাবে লাভবান হবে। এছাড়া তার আবিষ্কার করা ফিল্ড প্রযুক্তিটি কৃষি ক্ষেত্রে ব্যবহার করে পরিবেশের ভারসাম্য রক্ষায় কাজ করবে।

ওডি/এফই

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

সহযোগী সম্পাদক: গোলাম যাকারিয়া

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: 02-48118241, +8801907484702 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড