• মঙ্গলবার, ২৩ জুলাই ২০১৯, ৮ শ্রাবণ ১৪২৬  |   ৩১ °সে
  • বেটা ভার্সন

খামকা ইনসিস্ট, ওনারা শোনাউল্লাহ, আমরা বকাউল্লাহ : মেনন

  অধিকার ডেস্ক

১১ জুলাই ২০১৯, ২০:৪৬
রাশেদ খান মেনন
রাশেদ খান মেনন (ফাইল ফটো)

আওয়ামী লীগের শরিক ওয়ার্কার্স পার্টির সভাপতি রাশেদ খান মেনন বলেছেন, রুলস অব প্রসিডিউরে রয়েছে, তাই আমার জানার অধিকার আমার রয়েছে। অবশ্য আমাদের এমপি মইন উদ্দীন খান বাদল আমাকে বলেছিলেন, খামকা ইনসিস্ট করে কোনো লাভ নেই। কারণ আমরা বকাউল্লাহ, ওনারা (ক্ষমতাসীনরা) শোনাউল্লাহ আর সংসদ হলো গরিবউল্লাহ।

গ্যাসের মূল্য নিয়ে সংসদে আলোচনার জন্য কার্যপ্রণালি বিধির ৬৮ ধারায় নোটিশ দিয়ে কোনো সাড়া না পাওয়ায় ক্ষোভ প্রকাশ করে মেনেন এসব কথা বলেন।

বৃহস্পতিবার (১১ জুলাই) জাতীয় সংসদের চলতি অধিবেশন শেষ হওয়ার কথা। কিন্তু মেননের নোটিশ নিয়ে কোনো আলোচনা হয়নি। নোটিশ গৃহীত হয়েছে না বাতিল হয়েছে; সেটার মেননকে জানানো হয়নি। এ কারণে তিনি ক্ষোভ প্রকাশ করেন।

স্পিকারের উদ্দেশে ওয়ার্কার্স পার্টির সভাপতি বলেন, আমার ধারণা, এ আলোচনা না হলে সংসদ আরও গরিব হবে। আমি এ বিষয়ে আপনার বক্তব্য চাচ্ছি।

মেননের বক্তব্যের জবাবে ডেপুটি স্পিকার ফজলে রাব্বী মিয়া বলেন, এমপিরা শুধু বকাউল্লাহ বকাই নন, আর আমরা শোনাউল্লাহ শোনাই নই, আপনারা বক্তব্য দেন; এ ব্যাপারে সরকার কার্যকরী পদক্ষেপ গ্রহণ করে। আপনার ৬৮ বিধির নোটিশটি স্পিকারের বিবেচনাধীন। বিবেচনা করা হবে না, এমন কথা নেই। এ নিয়ে আপনাকে পরে অবহিত করা হব।

গত রবিবার সংসদে মেনন বলেন, গ্যাসের মূল্য নিয়ে সংসদে আলোচনার জন্য তিনি ৬৮ বিধিতে নোটিশ দেন। তার নোটিশ সমর্থন করেন- হাসানুল হক ইনু, মোস্তফা লুৎফুল্লাহ, মইন উদ্দীন খান বাদল, লুৎফননেসা খান ও ফজলে হোসেন বাদশা।

ওই দিন জাতীয় পার্টির (জাপা) এমপি ফখরুল ইমাম জানতে চান, সংসদ অধিবেশন চলার সময় আলোচনা ছাড়া গ্যাসের মূল্য বৃদ্ধির সিদ্ধান্তটি বৈধ হলো কি না?

ওডি/এমআর

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: মোঃ তাজবীর হুসাইন

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: ০২-৯১১০৫৮৪

ই-মেইল: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০১৮-২০১৯

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড