• বৃহস্পতিবার, ২২ অক্টোবর ২০২০, ৭ কার্তিক ১৪২৭  |   ২৯ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

এই কমিটিতে রাজাকার আর কুকুর ছাড়া সবার স্থান থাকছে

  রাঙ্গামাটি প্রতিনিধি

২৯ আগস্ট ২০২০, ১৫:১৯
নাগরিক পরিষদ
নাগরিক পরিষদের সংবাদ সম্মেলন

পার্বত্য চট্টগ্রাম নাগরিক পরিষদের কেন্দ্রীয় কমিটি, জেলা কমিটিসহ অন্যান্য কমিটিতে রাজাকার আর কুকুর ছাড়া সবার স্থান থাকছে। পার্বত্য চট্টগ্রাম নাগরিক পরিষদের জন্ম হয়েছে এই এলাকার বঞ্চিত, নির্যাতিত, অধিকার হারা, শোষিত, অত্যাচারিত বাবা হারা মা ভাই বোন হারা অসহায় অধিকার আদায়ের জন্য। আজ পার্বত্য অঞ্চলে সন্তু লারমার লোকজন ও প্রসিত খীসার লোকজন অবৈধ অস্ত্র দিয়ে পাখির মত সাধারণ মানুষ মারছে। পার্বত্য চট্টগ্রাম নিয়ে গভীর ষড়যন্ত্র করছে সন্তু লারমা। অথচ এই সন্তু লারমা এখনো বাংলাদেশের নাগরিকতা পাননি।আজ পার্বত্য চট্টগ্রামের প্রতিটি অফিস আদালতে সন্তু লারমার দোসরা বসে আছে। সকল সুযোগ সুবিধা তারা গ্রহণ করছে। আর বাঙালিরা ওই সব সুযোগ সুবিধা থেকে দিন দিন বঞ্চিত হচ্ছে। সন্তু লারমা রাষ্ট্রীয় লাল সবুজের পাতাকাবাহী সরকারি গাড়ি নিয়ে বেড়াচ্ছে, বিদেশগমণ করছে, ব্যাংক লেনদেন করছে তিনি জাতীয় পরিচয়পত্র ছাড়া এসব কি ভাবে করে সরকারের কাছে আমাদের প্রশ্ন?

তিনি বলেন,বাংলাদেশ একটি স্বাধীন সার্বভৌমত্ব রাষ্ট্র, এই দেশ আমার এই দেশ সকলের। এখানে সকলের অধিকার সমান হতে হবে। সরকারের সাথে সন্তু লারমা চুক্তি করেছে আর সে চুক্তির ধারা ভঙ্গ করেছে সন্তু লারমা নিজেই। তাই এই কালো চুক্তি বাতিল করতে হবে। তিন পার্বত্য জেলা পরিষদে তিন জন বাঙালি ভাইস চেয়ারম্যান দিতে হবে। পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডে চেয়ারম্যান পদে বাঙালি দিতে হবে। এসব দাবি দাওয়া নিয়েই কাজ করবে পার্বত্য চট্টগ্রাম নাগরিক পরিষদ।

পাহাড়ের পরিবেশ পরিস্থিতি ফিরে না আসা পর্যন্ত পার্বত্য চট্টগ্রাম নাগরিক পরিষদ সবাইকে সাথে নিয়ে রাজ পথে হাজির থাকবে। গতকাল শনিবার সকালে রাঙ্গামাটি পৌরসভা সম্মেলন কক্ষে প্রধান বক্তা হিসেবে নাগরিক পরিষদ রাঙ্গামাটি জেলা কমিটি ঘোষনাকালে এসব কথা বলেন তিনি। তিনি আরো বলেন, পার্বত্য নাগরিক কমিটি আছে থাকবে। আর পার্বত্য নাগরিক কমিটি জিহাদ হিসেবে বাঙালি অধিকার আন্দোলনে কাজ করবে। কেউ পিছু হটার কোন কারণ নেই।

পার্বত্য চট্টগ্রাম রাঙ্গামাটির নাগরিক কমিটি ঘোষণা করেন,কেন্দ্রীয় কমিটির চেয়ারম্যান ও বাঙালি আন্দোলনের অহংকার,সাবেক ছাত্র নেতা ও অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি ইঞ্জিনিয়ার আলকাছ আল মামুন ভুঁইয়া। রাঙ্গামাটি নাগরিক পরিষদের কমিটিতে সাব্বির আহম্মদ সভাপতি, মোহাম্মদ সোলাইমান সাধারণ সম্পাদক ও মাওলানা আবু বক্কর ছিদ্দিক সাংগঠনিক সম্পাদক ঘোষণা করে ৮২ সদস্য বিশিষ্ট কমিটি অনুমোদন করা হয়েছে। এই কমিটির মেয়াদ আগামী ডিসেম্বর ২০২০ পর্যন্ত। এই কমিটির নেতৃত্বে ও সিদ্ধান্তে উপজেলা,পৌরসভা,ইউনিয়ন ও ওয়ার্ড পর্যায়ে কাজ চলবে।

আরও পড়ুন : বেকার ভাতা পাওয়ার আশ্বাস দিয়ে যুবলীগ নেতার প্রতারণা

উপস্থিত ছিলেন, পার্বত্য চট্টগ্রাম নাগরিক পরিষদ কেন্দ্রীয় কমিটির মহাসচিব ও সাবেক সফল ছাত্র নেতা এবং বাঘাইছড়ি পৌরসভার সাবেক মেয়র মো. আলগীর কবির,নাগরিক পরিষদ কেন্দ্রীয় কমিটির সহ সভাপতি ও বান্দরবান জেলার সাবেক আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক কাজী মুজিবুর রহমান মুজিব, নাগরিক পরিষদ কেন্দ্রীয় কমিটির সহ সভাপতি অধ্যক্ষ আবু তাহের (খাগড়াছড়ি), নাগরিক কমিটির কেন্দ্রীয় সহ সভাপতি নাছিরুল আলম(বান্দরবান), নাগরিক পরিষদ কেন্দ্রীয় কমিটির সহ সভাপতি ও আলী কদম উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আবুল কালাম,নাগরিক পরিষদ খাগড়াছড়ি জেলা সভাপতি আবদুল মজিদ, নাগরিক পরিষদ কেন্দ্রীয় কমিটির যুগ্ম সম্পাদক ও বাঘাইছড়ি উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান সাবেক ছাত্র নেতা আবুল কাইয়ুমসহ তিন পার্বত্য জেলা নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। রাঙ্গামাটি জেলা কমিটি ঘোষণাকালে তিন পার্বত্য জেলার সাবেক ও বর্তমান পুরুষ মহিলা তৃণমূল পর্যায়ের নেতাকর্মীরাও উপস্থিত ছিলেন।

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
jachai
niet
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
niet

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: +8801703790747, +8801721978664, 02-9110584 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড