• সোমবার, ১৮ জানুয়ারি ২০২১, ৪ মাঘ ১৪২৭  |   ২৪ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

জ্বরে চাচি-ভাতিজার মৃত্যু, মুন্সীগঞ্জে করোনা ভাইরাস আতঙ্ক

  মুন্সীগঞ্জ প্রতিনিধি

২৭ জানুয়ারি ২০২০, ১২:৪৭
মুন্সীগঞ্জ
জ্বরে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু (ছবি: দৈনিক অধিকার)

মুন্সীগঞ্জের লৌহজংয়ে জ্বরে আক্রান্ত হয়ে মাত্র ১৬ ঘণ্টার ব্যবধানে চাচি ও ভাতিজার মৃত্যু হয়েছে। পরিবারের সদস্যদের দাবি, করোনাভাইরাসে তাদের মৃত্যু হয়েছে কি না, তা পরীক্ষা-নিরীক্ষা করা হোক। তাদের এমন দাবিতে এখন লৌহজংয়ে মানুষের মধ্যে আতঙ্ক বিরাজ করছে।

এ ব্যাপারে খোঁজ নেওয়া হচ্ছে বলে জানানো হয়েছে উপজেলা স্বাস্থ্যকেন্দ্র থেকে।

জানা যায়, গতকাল রবিবার (২৬ জানুয়ারি) দিবাগত রাত ২টার দিকে লৌহজংয়ের জসলদিয়া গ্রামের মীর সোহেলের ছেলে মীর আব্দুর রহমান (৩) হঠাৎ জ্বরে আক্রান্ত হয়। এর মাত্র এক ঘণ্টার মধ্যেই মারা যায় সে। এর আগে একইদিন সকাল ৮টার দিকে একইভাবে মারা যান শিশু আব্দুর রহমানের চাচি শামীমা বেগম (৩৪)। মৃত শামীমা বেগম ওই গ্রামের মীর জুয়েলের স্ত্রী।

শামীমার দেবর মীর শিবলু জানান, তার ভাবী রবিবার সকালে শরীরে জ্বর অনুভব করছিলেন। কিছুক্ষণের ভেতর জ্বর কিছুটা বাড়ে। একই সঙ্গে শরীরের বিভিন্ন অংশে চাক চাক রক্তের দাগ সদৃশ কিছু দৃশ্যমান হয়। এর মাত্র ঘণ্টাখানেকের মধ্যেই মারা যান তিনি। এরপর রাতে তার ভাই মীর সোহেলের ছেলে আব্দুর রহমান (৩) একইভাবে শরীরে জ্বর জ্বরভাব দেখা যায়। এর মাত্র ঘণ্টাখানেকের মধ্যেই মারা যায় সে। তার শরীরেও রক্তের চাক চাক দাগ দেখা যায়। বিষয়টি উপজেলা স্বাস্থ্য কেন্দ্রে জানানো হয়েছে।

জ্বরে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুর খবরটি নিশ্চিত করে লৌহজং উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. শামীম আহমেদ দৈনিক অধিকারকে বলেন, সিভিল সার্জন অফিস ও উপজেলার স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স থেকে মেডিকেল টিম পাঠানো হয়েছে। এছাড়া ইতোমধ্যে ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের এ বিষয়ে অবগত করা হয়েছে। তাদের করোনাভাইরাসজনিত কারণে মৃত্যু হয়েছে কিনা এ বিষয়ে তদন্ত করার জন্য ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা আসবেন কিনা এখনো তা সিদ্ধান্ত নেয়নি। এ মুহূর্তে তাদের মৃত্যুর সঠিক কারণ বলা যাচ্ছে না। তদন্ত ও রিপোর্ট দেখার পর বলা যাবে কি কারণে তাদের মৃত্যু হয়েছে।

আরও পড়ুন : সুনামগঞ্জে তীব্র শীতে বৃদ্ধের মৃত্যু

লৌহজং উপজেলা ভারপ্রাপ্ত নির্বাহী কর্মকর্তা ও সহকারী কমিশনার (ভূমি) মু. রাশেদুজ্জামান বলেন, বিষয়টি সকালে জেনেছি। নিহতদের বাড়ির পথে রয়েছি। এরমধ্যে সেখানে স্বাস্থ্যকর্মীদের পাঠানো হয়েছে।

ওডি/জেএস

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
jachai
niet
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
niet

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: 02-48118241, +8801907484702 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড