• রবিবার, ১৫ ডিসেম্বর ২০১৯, ১ পৌষ ১৪২৬  |   ১৯ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

আ. লীগের দুপক্ষের সংঘর্ষ, পুলিশের গুলি-টিয়ার শেল নিক্ষেপ

  ফরিদপুর প্রতিনিধি

১৫ নভেম্বর ২০১৯, ২২:৩২
দেড় ঘণ্টাব্যাপী সালথা বাজার এলাকায় সংঘর্ষ চলে
দেড় ঘণ্টাব্যাপী সালথা বাজার এলাকায় সংঘর্ষ চলে (ছবি : দৈনিক অধিকার)

ফরিদপুরের সালথায় আওয়ামী লীগের সম্মেলন স্থগিতকে কেন্দ্র করে দুই পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় পুলিশ গুলি, সাউন্ড গ্রেনেড ও কাঁদানে গ্যাস ছুড়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

শুক্রবার (১৫ নভেম্বর) সন্ধ্যা সাড়ে ৫টা থেকে ৭টা পর্যন্ত প্রায় দেড় ঘণ্টাব্যাপী সালথা বাজার এলাকায় এ সংঘর্ষ চলে। এ সংঘর্ষের সময় বেশ কিছু বাড়ি-ঘর ও বাজারের ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে হামলা ও ভাঙচুরের ঘটনা ঘটে। এতে উভয় পক্ষের বেশ কয়েকজন আহত হন।

এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায়, সম্মেলন স্থগিত হওয়ার খবর প্রকাশিত হলে বিকালে গট্টির রসুলপুর গ্রাম থেকে ওদুদ মাতুব্বরের উদ্যোগে একটি প্রতিবাদ মিছিল বের করা হয়। মিছিলটি সালথা বাজারের কাছে কাউলিকান্দা স্কুল মাঠে এলে সেখানে প্রতিবাদ সভা অনুষ্ঠিত হয়। ওই সভায় সাজেদা চৌধুরীর এপিএস শফিউদ্দিন চৌধুরী ছিলেন। প্রতিবাদ সভা শেষে মিছিল করে প্রতিবাদকারীরা সালথা বাজার এলাকার দিকে এগোতে থাকে। 

ওই সময় সাব্বির চৌধুরীর নেতৃত্বে একটি মিছিল সালথা বাজার এলাকা থেকে এসে ওই মিছিলের সঙ্গে যুক্ত হয়। মিছিলের মধ্যে গুজব রটে যে, সাব্বির চৌধুরীর সমর্থকরা সাজেদা চৌধুরীর ছেলে শাহদাব আকবর চৌধুরীরি সম্পর্কে কটূক্তি করেছে। এ গুজবের ফলে দুই পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ বেঁধে যায়। 

এ সংঘর্ষে সালথা বাজারসহ আশেপাশের এলাকায় ছড়িয়ে পড়ে। এ সময় বাড়ি-ঘর দোকানপাট ভাঙচুর ও আহত হওয়ার ঘটনা ঘটে। তবে এ প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত কতগুলো বাড়িঘর ও দোকান পাট ভাঙচুর করা হয়েছে বা উভয় পক্ষের কতজন আহত হয়েছেন সে সংখ্যা জানা সম্ভব হয়নি।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, ফরিদপুর পুলিশ লাইনস, গোয়েন্দা পুলিশ, বিভিন্ন থানা থেকে আসা অতিরিক্ত পুলিশ ও র‌্যাব সদস্যরা এসে সন্ধ্যা সাড়ে ছয়টার দিকে পরিস্থিতি অনেকটা নিয়ন্ত্রণে আনে। পুলিশ গুলি, সাউন্ড গ্রেনেড ও কাঁদানে গ্যাস ছোড়ে সংঘর্ষ থামাতে। সর্বশেষ খবর অনুযায়ী পুলিশ দুই পক্ষের সমর্থকদের দুদিকে সরিয়ে দেয়। 

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে সালথা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ আলী জিন্নাহ বলেন, সালথা থানাসহ আশেপাশের বিভিন্ন থানার পুলিশ, পুলিশ লাইনসের রিজার্ভ ফোর্স, গোয়েন্দা পুলিশ ও র‌্যাবের সহায়তায় গুলি, সাউন্ড গ্রেনেড ও কাঁদানে গ্যাস ছুড়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনা হয়েছে। 

তিনি বলেন, এলাকায় চরম উত্তেজনা বিরাজ করছে। তবে পুলিশ সতর্ক অবস্থানে রয়েছে। তবে কী পরিমাণ গুলি, সাউন্ড গ্যাস ও কাঁদানে গ্যাস ছোড়া হয়েছে, তা তাৎক্ষণিকভাবে তিনি জানাতে পারেননি। 

ওডি/ এফইউ

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন সজীব 

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: ০২-৯১১০৫৮৪

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড