• বুধবার, ২৬ জানুয়ারি ২০২২, ১২ মাঘ ১৪২৮  |   ২০ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

দ. আফ্রিকার আগেই ইউরোপে থাবা বসিয়েছিল ‘ওমিক্রন’

  আন্তর্জাতিক ডেস্ক

০১ ডিসেম্বর ২০২১, ১১:৪৪
দ. আফ্রিকার আগেই ইউরোপে থাবায় বসিয়েছিল ‘ওমিক্রন’
করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত রোগীদের সহায়তার জন্য স্থাপিত হেল্পডেস্ক (ছবি : রয়টার্স)

মহামারি করোনা ভাইরাসের শক্তিশালী নতুন ধরন ‘ওমিক্রন’ শনাক্তের বিষয়ে দক্ষিণ আফ্রিকা যখন বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থাকে (ডব্লিউএইচও) সতর্ক বার্তা পাঠায়, তার আগে থেকেই ইউরোপে প্রাণঘাতী ভাইরাসটির অস্তিত্ব ছিল। ফলে ওমিক্রনের আসল উৎপত্তিস্থল ঠিক কোথায় তা নিয়ে এবার ধোঁয়াশা দেখা দিয়েছে। এরই মধ্যে প্রায় দুই ডজন দেশে উদ্বেগজনক এই ভাইরাস ছড়িয়ে পড়েছে।

গেল ২৪ নভেম্বর দক্ষিণ আফ্রিকা প্রথমবারের মতো বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থাকে করোনার এই ওমিক্রন ভ্যারিয়েন্ট শনাক্তের বিষয়ে সতর্ক করে। অবশ্য তখন এর কোনো আনুষ্ঠানিক নাম ছিল না। বিশেষজ্ঞরা বলছেন, করোনা ভাইরাসের এই ধরনটি অন্তত ৩২টি মিউটেশন (জিনগত গঠনের পরিবর্তন) ঘটিয়েছে। ফলে ওমিক্রন প্রাণঘাতী ভাইরাসটির বিরুদ্ধে প্রচলিত ভ্যাকসিনগুলো কার্যকর না-ও হতে পারে বলে আশঙ্কা তৈরি হয়েছে।

সংকটময় এ অবস্থায় আফ্রিকান রাষ্ট্রগুলোর ওপর অনেকটা গণহারে ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা আরোপ করে ইউরোপ, যুক্তরাজ্য, যুক্তরাষ্ট্রসহ আরও অনেক দেশ। যদিও তাদের এই পদক্ষেপের কঠোর সমালোচনা করেছে দক্ষিণ আফ্রিকা। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থাও পরিস্থিতি বিবেচনায় বুঝেশুঝে সিদ্ধান্ত গ্রহণের আহ্বান জানিয়েছে।

কিন্তু মঙ্গলবার (৩০ নভেম্বর) ডাচ কর্তৃপক্ষ ঘোষণা দিয়েছে, দক্ষিণ আফ্রিকা ডব্লিউএইচওকে সতর্ক করার সপ্তাহ খানেক আগেই নেদারল্যান্ডসে কোভিডের ওমিক্রন ধরন শনাক্ত হয়েছিল।

আরও পড়ুন : ফের আলোচনার টেবিলে বাইডেন-পুতিন

নেদারল্যান্ডসের আরআইভিএম ন্যাশনাল হেলথ অ্যান্ড এনভায়রনমেন্ট ইনস্টিটিউট বলছে, তারা গেল ১৯ ও ২৩ নভেম্বর নেওয়া দুটি নমুনায় ওমিক্রন করোনা ভাইরাস শনাক্ত করেছেন।

এর আগে ধারণা করা হচ্ছিল, নেদারল্যান্ডসে প্রথম ওমিক্রন পৌঁছায় গত ২৬ নভেম্বর। সেদিন দক্ষিণ আফ্রিকা ফেরত দুটি ফ্লাইটের ১৪ যাত্রীর শরীরে প্রাণঘাতী এই ভাইরাসটি শনাক্তের কথা জানিয়েছিল ডাচ কর্তৃপক্ষ।

আরও পড়ুন : অভিবাসীদের ঠেকাতে ইংলিশ চ্যানেল পাহারায় বিশেষ বিমান

যদিও নতুন ঘোষণা অনুসারে, এর আগেই ইউরোপের এই দেশটিতে মহামারি করোনার নতুন ভ্যারিয়েন্টের উপস্থিতি ছিল।

সূত্র : আল-জাজিরা

ওডি/কেএইচআর

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

সহযোগী সম্পাদক: গোলাম যাকারিয়া

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: 02-48118241, +8801907484702 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড