• বুধবার, ০৮ এপ্রিল ২০২০, ২৫ চৈত্র ১৪২৬  |   ২৭ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

সাইফের দ্বিতীয় শিকার উইলিয়ামস

মোহাম্মদ সাইফ উদ্দিন
সাইফ উদ্দিনের দ্বিতীয় শিকার শন উইলিয়ামস; (ছবি : সংগৃহীত)

সাইফের দ্বিতীয় শিকার উইলিয়ামস, ৪২ ওভারে জিম্বাবুয়ে : ১৯৮/৪

দেখেশুনে ব্যাট করছিলেন শন উইলিয়ামস। এ ম্যাচে মূলত ভূমিকা পালন করছিলেন সঙ্গীর। প্রথম ব্রেন্ডন টেইলরের সঙ্গে ৭৭ রানের জুটি। এরপর সিকান্দার রাজার সঙ্গে ৫১ বলে ৪১ রানের জুটি গড়েন তিনি। কিন্তু টানা দ্বিতীয় ফিফটি হাঁকাতে পারলেন না উইলিয়ামস।

উইলিয়ামসকে আউট করে বাংলাদেশকে চতুর্থ সাফল্য এনে দিলেন সাইফ উদ্দিন। পেলেন ম্যাচে নিজের দ্বিতীয় উইকেট। উইকেটের পেছনে মুশফিককে ক্যাচ দিয়ে ৭৬ বলের ইনিংসে ২ চার মেরে ৪৭ রান করে সাজঘরে ফিরলেন তিনি।

এই প্রতিবেদন লেখার সময় জিম্বাবুয়ের সংগ্রহ ৪২ ওভারে ৪ উইকেটে ১৯৮ রান। উইকেটে আছেন রাজা ৩২ ও পিটার মুর ৩ রানে। শেষ ওভারগুলোতে জিম্বাবুয়ের রানের চাকা শ্লথ করতে পেরেছেন টাইগার বোলাররা। গেল ৭ ওভারে স্কোরবোর্ডে মাত্র ২০ রান যোগ করতে পেরেছে দলটি।

বিপজ্জনক টেইলরকে ফেরালেন মাহমুদউল্লাহ, ৩১ ওভার শেষে জিম্বাবুয়ের সংগ্রহ : ১৫০/৩

ফের কাজে দিল মাশরাফির বোলিং পরিবর্তনের সিদ্ধান্ত। ব্রেন্ডন টেইলর-শন উইলিয়ামস জুটি বেশ চোখ রাঙাচ্ছিল টাইগার বোলারদের। আক্রমণাত্মক মেজাজে ব্যাট করছিলেন অভিজ্ঞ টেইলর। মূলত তার ব্যাটে চড়েই এগোচ্ছিল জিম্বাবুয়ে। 

টেইলরকে লেগ বিফোর উইকেটের ফাঁদে ফেলে বাংলাদেশকে স্বস্তি এনে দিলেন মাহমুদউল্লাহ। রিভার্স সুইপ করতে চেয়েছিলেন তিনি। কিন্তু বল ফাঁকি দেয় তার ব্যাট। এবার আর রিভিউ নেননি তিনি। ফলে দলীয় ১৪৭ রানে তৃতীয় উইকেট হারাল জিম্বাবুয়ে।

৩০তম ওভারে টেইলরের বিদায়ে ভাঙল ১০৫ বলে ৭৭ রানের তৃতীয় উইকেট জুটি। ৭৩ বলে ৯ চার ও ১ ছয়ে ৭৫ রান করে সাজঘরের পথ ধরলেন টেইলর। তার বিদায়ের পরের ওভারেই দেড়শ ছুঁলো জিম্বাবুয়ের ইনিংস।

এই প্রতিবেদন লেখার সময় ৩১ ওভার শেষে জিম্বাবুয়ের সংগ্রহ ৩ উইকেটে ১৫০ রান। উইকেটে আছেন উইলিয়ামস ৩৪ ও মাত্রই নামা সিকান্দার রাজা ১ রানে।

রিভিউ নিয়ে বাঁচলেন টেইলর, ২৫ ওভারে জিম্বাবুয়ে : ১২১/২

তিন নম্বরে ব্যাট করতে নামার পর জিম্বাবুয়ের ইনিংসের হাল ধরেন অভিজ্ঞ ব্রেন্ডন টেইলর। শুরু থেকেই বাংলাদেশের বোলারদের ওপর চড়াও হয়ে খেলতে থাকেন তিনি। তার মারমুখী ব্যাটিংয়ে জিম্বাবুয়ে পেয়ে গেছে বড় সংগ্রহের ভিত।

জিম্বাবুয়ের ইনিংসের ২০তম ওভারের পঞ্চম বলে টেইলরের বিপক্ষে এলবিডাব্লিউয়ের সিদ্ধান্ত দেন আম্পায়ার। সঙ্গে সঙ্গে রিভিউ নেন তিনি। পরে থার্ড আম্পায়ার ভিডিওতে দেখতে পান মেহেদী হাসান মিরাজের বল লেগ স্ট্যাম্পের বাইরে বেরিয়ে যাচ্ছে। তাতে বদলে যায় সিদ্ধান্ত, বেঁচে যান টেইলর। তখন তিনি ব্যাট করছিলেন ৪৩ রানে।

পরের ওভারেই জিম্বাবুয়ের স্কোর পৌঁছায় শতরানে। এরপর ২৩তম ওভারের দ্বিতীয় বলে সিঙ্গেল নিয়ে হাফসেঞ্চুরি পূরণ করেন টেইলর, ৫২ বল খেলে। বাংলাদেশের বিপক্ষে এটি তার অষ্টম ফিফটি।

এই প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত জিম্বাবুয়ের সংগ্রহ ২৫ ওভারে ২ উইকেটে ১২১ রান। উইকেটে আছেন টেইলর ৫৮ ও শন উইলিয়ামস ২৩ রানে। ​​​দুজনের অবিচ্ছিন্ন জুটির অবদান ৫১ রান।

২ ওপেনারকে হারিয়ে ১৫ ওভার শেষে জিম্বাবুয়ের সংগ্রহ ৮১ রান

বাংলাদেশের অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজার বোলিং পরিবর্তনের সিদ্ধান্তটা কাজে লাগল। ইনিংসের মাত্র পঞ্চম ওভারেই তিনি আক্রমণে আনেন মোহাম্মদ সাইফ উদ্দিনকে। আর সেই ওভারের পঞ্চম বলে সফরকারী অধিনায়ক হ্যামিল্টন মাসাকাদজাকে আউট করে টাইগারদের উল্লাসে মাতান তরুণ পেস অলরাউন্ডার।

সাইফের বলটা ড্রাইভ করতে গিয়েছিলেন মাসাকাদজা। কিন্তু ব্যাটে-বলে সংযোগটা ঠিকমতো হয়নি। উইকেটের পেছনে মুশফিকুর রহিমের ক্যাচে পরিণত হওয়ার আগে ১৮ বলে ২ চারে ১৪ রান করেন তিনি। ফলে দলীয় ১৮ রানের ভাঙে জিম্বাবুয়ের উদ্বোধনী জুটি।

তবে প্রথম উইকেট হারানোর পর আরেক ওপেনার চেফাস ঝুওয়াওকে সঙ্গে নিয়ে দলের ইনিংস মেরামতের কাজটা ভালোভাবেই শুরু করেন অভিজ্ঞ ব্রেন্ডন টেইলর। এই জুটিতে মারমুখী ভঙ্গিতে খেলতে থাকেন দুজনে। তাতে রানের গতিও বাড়তে থাকে লাফিয়ে লাফিয়ে।

ঝুওয়াও-টেইলর জুটিতে ৪২ বলে আসে পঞ্চাশ রান। তবে বাংলাদেশের জন্য বিপজ্জনক হয়ে ওঠার আগেই জুটি ভেঙে দেন স্পিনার মেহেদী হাসান মিরাজ। ১২তম ওভারের শেষ বলে তার বল উড়িয়ে মারতে গিয়ে লং অনে ফজলে মাহমুদের হাতে ক্যাচ দেন ঝুওয়াও।

৪৩ বলে ৫২ রানের জুটি ভাঙে ঝুওয়াওয়ের বিদায়ে। ২৭ বলে ১ চার ও ১ ছয়ে ২০ রান করেন এই বাঁহাতি ব্যাটার। ফলে দলীয় ৭০ রানে জিম্বাবুয়ের দ্বিতীয় উইকেটের পতন ঘটিয়ে ফের উৎসব করে বাংলাদেশ শিবির।

এই প্রতিবেদন লেখার সময় ১৫ ওভার শেষে টসে হেরে ব্যাটিংয়ে নামা জিম্বাবুয়ের সংগ্রহ দাঁড়ায় ২ উইকেটে ৮১ রান। উইকেটে আছেন টেইলর ৩৬ ও মাত্রই নামা শন উইলিয়ামস ৬ রানে।

টসে জিতলেন মাশরাফি, জিম্বাবুয়েকে পাঠালেন ব্যাটিংয়ে

এর আগে চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে তিন ম্যাচ সিরিজের দ্বিতীয় ওয়ানডেতে টসে জেতেন মাশরাফি। রাতে মাঠে শিশির পড়ার বিষয়টি মাথায় রেখে তিনি নেন ফিল্ডিংয়ের সিদ্ধান্ত। এ ম্যাচে জিতলেই সিরিজ জয় নিশ্চিত হবে স্টিভ রোডসের শিষ্যদের।

বাংলাদেশ একাদশ :
লিটন দাস, ইমরুল কায়েস, ফজলে মাহমুদ, মুশফিকুর রহিম, মোহাম্মদ মিঠুন, মাহমুদউল্লাহ, মেহেদী হাসান মিরাজ, মোহাম্মদ সাইফ উদ্দিন, মাশরাফি বিন মর্তুজা, নাজমুল ইসলাম, মুস্তাফিজুর রহমান।

জিম্বাবুয়ে একাদশ :
হ্যামিল্টন মাসাকাদজা, চেফাস ঝুওয়াও, এলটন চিগুম্বুরা, ব্রেন্ডন টেইলর, শন উইলিয়ামস, পিটার মুর, সিকান্দার রাজা, ডোনাল্ড তিরিপানো, ব্রেন্ডন মাভুতা, কাইল জার্ভিস, টেন্ডাই চাতারা।

 

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: 02-9110584, +8801907484800

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড