• শনিবার, ৩১ অক্টোবর ২০২০, ১৬ কার্তিক ১৪২৭  |   ২৮ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

ওজিলের প্রতি অবিচার; ভুল স্বীকার করল জার্মানী

  ক্রীড়া ডেস্ক

২৯ সেপ্টেম্বর ২০২০, ২০:৩০
মেসুত ওজিল
মেসুত ওজিল (ছবি : সংগৃহীত)

বিশ্ব ফুটবলে প্রতিষ্ঠিত মিডফিল্ডার মেসুত ওজি। খেলেছেন রিয়াল মাদ্রিদের মতো ক্লাবে। বর্তমানে এ তারকা খেলছেন ইংলিশ ক্লাব আর্সেনালের জার্সিতে। এছাড়া জার্মানীর বিশ্বকাপজয়ী দলের অন্যতম সদস্যও তিনি। সে ওজিলই হুট করেই ২০১৮ সালে জার্মানী জাতীয় দল থেকে অবসর নেওয়ার সিদ্ধান্ত নেন।

২০১৮ সালের একটি ঘটনাকে কেন্দ্র করে জার্মান ফুটবল অ্যাসোসিয়েশন (ডিএফবি) মেসুত ওজিলকে দোষারোপ করে। আর তারপরই সে অপমান সইতে না পেরে ক্ষোভে জাতীয় দল থেকে অবসরই নেন ওজিল।

অবশেষে দীর্ঘ দুই বছর পর নিজেদের ভুল বুঝতে পারল ডিএফবি। তারা জানালো, ওজিলের প্রতি অবিচার করা হয়েছে। ইতোমধ্যেই জার্মান ফুটবলের সর্বোচ্চ এ নিয়ন্ত্রক সংস্থা নিজেদের ভুল স্বীকার করে নিয়েছে।

ঘটনাটি ঘটে ২০১৮ রাশিয়া বিশ্বকাপের ঠিক আগ মুহূর্তে। সে সময় লন্ডনে তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়েপ এরদোগানের সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন ওজিল ও তারই জার্মান দলের আরেক সতীর্থ ইলকায় গুনদোগান। এই দুই তারকা যথাক্রমে ইংল্যান্ডের ক্লাব আর্সেনাল ও ম্যানচেস্টার সিটির ফুটবলার।

পরে এরদোগানের সঙ্গে তাদের সাক্ষাতের ছবি ভাইরাল হয়। এরপরই বিতর্কের মুখে পড়েন ওজিল। অভিযোগ উঠে, ওজিল ও গুনদোগান তার্কিশ বংশোদ্ভূত হওয়ায় বিশ্বজুড়ে বিতর্কিত এরদোগানকে সমর্থন দিচ্ছেন। যেখানে সে সময় এরগোদান তার নির্বাচনী প্রচারণা চালাচ্ছিলেন। বলা হয়েছিল নির্বাচনে জিততে এরদোগান এই ছবিটি কাজে লাগাচ্ছেন।

গুনদোগান অবশ্য সমালোচনা শুনে দুঃখ প্রকাশ করেন। তিনি জানিয়ে দেন এটা কোনো রাজনৈতিক সাক্ষাৎ ছিল না। তবে কোনো মন্তব্য না করেই বিতর্কের মুখে পড়ে যান ওজিল।

আর এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে একরকম বলিরপাঁঠা বানানো হয় ওজিলকে। রাশিয়া বিশ্বকাপে গ্রুপ পর্ব থেকেই বিদায় নেয় জার্মানিক। আর দলের এ ব্যর্থতায় সবচেয়ে বেশি দোষারোপ করা হয় ওজিলকে।

পরবর্তীতে এমন অপমান সহ্য করতে না পেরে জাতীয় দল থেকে অবসরই নিয়ে নেন ওজিল। তবে অবসরের ঘোষণার সময় বোমাই ফাটান তিনি। জানান, জার্মান জাতীয় দল ও ডিএফবি তার সঙ্গে বর্ণবাদী আচরণ করেছে।

এরপর কেটে গেছে দুই বছর। এ ইস্যুতে অনেক আলোচনা-সমালোচনাও হয়েছে। অবশেষে ভুল স্বীকার করলেন ডিএফবির জেনারেল সেক্রেটারি ফ্রাইডরিখ কার্টিস।

বার্লিনে ডয়েচলান্ড স্টিফটাং ইন্টিগ্রেশন ফাউন্ডেশনে জার্মানির ফুটবল নিয়ন্ত্রক সংস্থাটির ফ্রাইডরিখ কার্টিস বলেন, ‘ওজিলের ঘটনাটি নিয়ে চারপাশে যা হয়েছে তা সামলাতে ডিএফবি কিছু ভুল করেছে। আর ওই ছবিটা আসলে অনেক বিভ্রান্তি সৃষ্টি করেছে। সেই মুহূর্তে এত বর্ণবাদী অভিযোগের মধ্যে একটা বার খেলোয়াড়ের (ওজিল) সঙ্গে দেখা করা হয়নি আমাদের। ’

jachai
niet
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
niet

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: +8801703790747, +8801721978664, 02-9110584 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড