• বৃহস্পতিবার, ০১ অক্টোবর ২০২০, ১৭ আশ্বিন ১৪২৭  |   ২৯ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

ন্যাপোলিকে বিধ্বস্ত করে কোয়ার্টারে বার্সা

  ক্রীড়া ডেস্ক

০৯ আগস্ট ২০২০, ১০:৫৮
লিওনেল মেসি (ছবি : সংগৃহীত)

সেরা ছন্দের মেসিকে কখনোই কামনা করে না প্রতিপক্ষরা। যেদিন মেসি নিজের সেরা ছন্দে থাকবেন, সেদিন নিশ্চিত প্রতিপক্ষ দুমড়ে-মুচড়ে যেতে বাধ্য। শনিবার রাতে ইতালিয়ান ক্লাব ন্যাপোলি সেটাই টের পেয়েছে।

যেন আপন শক্তিতেই জ্বলে উঠেছিলেন বার্সার আর্জেন্টাইন অধিনায়ক লিওনেল মেসি। দুর্দান্ত একটি গোল করলেন। একটি গোল বাতিল হলো। আবার একটি পেনাল্টিও জিতলেন তিনি। যেটা থেকে গোল করেছেন লুইস সুয়ারেজ।

এক কথায় মেসি ম্যাজিক। সেই ম্যাজিকেই চ্যাম্পিয়ন্স লিগের দ্বিতীয় রাউন্ডের ফিরতি লেগের ম্যাচে ন্যাপোলিকে ৩-১ গোলে বিধ্বস্ত করে কোয়ার্টারে নাম লিখলো মেসির বার্সেলোনা। তবে কোয়ার্টারে তাদের জন্য অপেক্ষা করছে কঠিন প্রতিপক্ষ। জার্মান চ্যাম্পিয়ন বায়ার্ন মিউনিখ। যারা, শনিবার রাতেই ফিরতি লেগের ম্যাচে চেলসিকে ৪-১ গোলে বিধ্বস্ত করেছে।

শুক্রবার রাতে ইউরোপের দুই সেরা ক্লাব রিয়াল মাদ্রিদ এবং জুভেন্টাসের বিদায়ের পর সবার চোখ ছিল বার্সেলোনার ওপর। কারণ, প্রথম লেগের ম্যাচে ন্যাপোলির সঙ্গে ১-১ গোলে ড্র করেছিল মেসিরা। যদি কোনোভাবে ন্যু ক্যাম্পে তাদের পা হড়কায়, তাহলে রিয়ালের মত একই ভাগ্য বরণ করতে হবে তাদের।

শেষ পর্যন্ত ক্লেমেন্ত লেঙলেট, লিওনেল মেসি এবং লুইস সুয়ারেজের তিন গোলে ন্যু ক্যাম্পেই ন্যাপোলিকে বার্সা হারাল ৩-১ গোলে। ন্যাপোলির হয়ে একমাত্র গোলটি করেন লোরেনজো ইনসিগনে। দুই লেগ মিলিয়ে বার্সার জয়ের ব্যবধান ৪-২ গোল।

১০ মিনিটে গোলের সূচনা করেন বার্সায় নতুন ডাক পাওয়া লা মাসিয়া থেকে আসা ক্লেমেন্ত লেঙলেট। কর্নার কিক থেকে ভেসে আসা বলে দুর্দান্ত এক হেডে ন্যাপোলির জালে সেটিকে জড়িয়ে দেন ক্লেমেন্ত।

২৩ মিনিটে চারজন ডিফেন্ডারকে কাটিয়ে অসাধারণ গোলটি করলেন মেসি। বহুদিন পর মেসির পা থেকে এমন এক অসাধারণ গোলের দেখা পেলো সমর্থকরা। এর কিছুক্ষণ পর আবারও দুর্দান্ত পারফম্যান্স দেখিয়ে গোল করেন বার্সা অধিনায়ক। কিন্তু ভিএআর দেখে সেই গোলকে বাতিল করে দেন রেফারি।

তবে প্রথমার্ধ শেষ হওয়ার ঠিক আগ মুহূর্তে পেনাল্টি জেতেন মেসি। তাকে আটকাতে গিয়ে ডি বক্সেই ফাউল করে বসেন ন্যাপোলির ডিফেন্ডার কালিদু কোলিবালি। স্পট কিক নেন লুইস সুয়ারেজ। প্রথমার্ধেই ৩-০ হয়ে যায়।

তবে নাটক তখনও বাকি। প্রথমার্ধের ইনজুরি সময়ে আবারও পেনাল্টি। এবার ন্যাপোলির পক্ষে। বক্সের মধ্যে ন্যাপোলির ডিরিয়েস মার্টেন্সকে ফাউল করে বসেন ইভান র‌াকিটিচ। স্পট কিক থেকে গোল করেন লোরেনজো ইনসিগনে।

jachai
niet
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
niet

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: +8801721978664

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড