• সোমবার, ১৭ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ৪ ফাল্গুন ১৪২৬  |   ১৯ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

পঞ্চমবারের মতো বল হাতে ফিরছেন হাফিজ

  ক্রীড়া ডেস্ক

১৩ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ১২:০৯
মোহাম্মদ হাফিজ
পাকিস্তানের তারকা অলরাউন্ডার হাফিজ (ছবি : সংগৃহীত)

গত বছরের আগস্টে ভাইটালিটি ব্লাস্টে মিডলসেক্সের হয়ে এবি ডি ভিলিয়ার্সের বদলি হিসেবে দলে সুযোগ পান মোহাম্মদ হাফিজ। ডানহাতি এ অলরাউন্ডারের বোলিং সুবিধাও ব্যবহার করে দলটি। তবে মাঠের আম্পায়াররা তার বোলিং অ্যাকশন নিয়ে সন্দেহ তোলেন।

পরবর্তীতে ইংল্যান্ডে তার বোলিং অ্যাকশন পরীক্ষা করানো হয়। যেখানে দেখা যায়, বোলিংয়ের সময় তার কনুই ১৫ ডিগ্রির বেশি বেঁকে যাচ্ছে। সেই থেকে ইংল্যান্ডে বোলিংয়ের বিষয়ে নিষেধাজ্ঞা ছিল হাফিজের। প্রায় ছয় মাস পর শুধরানো অ্যাকশনে পরীক্ষা দিয়ে প্রমাণ করেছেন তার কনুই বেঁধে দেওয়া ১৫ ডিগ্রি সীমার চেয়ে বেশি বাঁকে না। যে কারণে বোলিংয়ের নিষেধাজ্ঞা থেকে মুক্তি পেয়েছেন এ অলরাউন্ডার।

১৭ বছর ক্রিকেট ক্যারিয়ারে পাঁচবার অবৈধ বোলিং অ্যাকশনের কারণে নিষিদ্ধ হয়েছেন পাকিস্তানের অলরাউন্ডার মোহাম্মদ হাফিজ। তার এবারের নিষেধাজ্ঞাটা ছিল মূলত ইংল্যান্ড ক্রিকেট বোর্ডের পক্ষ থেকে। তবে সব দেশের বোর্ডের পারস্পরিক চুক্তির কারণে, কোনো এক বোর্ড খেলোয়াড়কে শাস্তি দিলে, সেটি কার্যকর হয় সব ধরনের ক্রিকেটে। তাই সব ধরনের ক্রিকেট থেকে নিষিদ্ধ হয়েছেন তিনি।

আরও পড়ুন :-দল থেকে বাদ পড়ছেন মাহমুদউল্লাহ

কনুই ১৫ ডিগ্রির বেশি বাঁকানো যাবে না- এ নিয়মে বেশ কঠোর আইসিসি। তবে হাফিজ এই অপরাধে প্রথমবার নিষিদ্ধ হয়েছিলেন প্রায় ১৫ বছর আগে, ২০০৫ সালে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে এক ম্যাচে। এরপর ২০১৪ সালের চ্যাম্পিয়নস লিগ টি-টুয়েন্টি এবং একই বছর নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে টেস্টে আবারও বোলিং অ্যাকশনে ত্রুটি ধরা পড়ে হাফিজের।

সেবার পুরো এক বছরের জন্য বোলিং থেকে নিষিদ্ধ ছিলেন তিনি। ২০১৬ সালে বোলিং করার অনুমতি পান হাফিজ। ২০১৭ সালে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে একই কারণে নিষিদ্ধ হয়েছিলেন হাফিজ। আর সবশেষ গতবছর ভাইটালিটি ব্লাস্টে অবৈধ বোলিং অ্যাকশনে ধরা পড়েন এ পাকিস্তানি তারকা। 

ওডি/এনএ

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: 02-9110584, +8801907484800

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড