• শুক্রবার, ২১ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ৮ ফাল্গুন ১৪২৬  |   ১৯ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

তৌহিদ-রকিবুলদের শাস্তির বিরুদ্ধে আপিল করবে বিসিবি

  ক্রীড়া ডেস্ক

১১ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ১৭:২৯
বিসিবি
যুব বিশ্বকাপের ঘটনায় বিসিবি আপিল করবে (ছবি : সংগৃহীত)

যুব বিশ্বকাপের ফাইনালে বাংলাদেশ ও ভারতের কয়েকজন ক্রিকেটার নিজেদের মধ্যে ধাক্কাধাক্কিতে জড়িয়ে পড়েন। পুরো ম্যাচ জুড়ে যে তীব্র আবেগ ও উত্তেজনার রেশ ছিল তারই কিছুটা বহিঃপ্রকাশ ঘটে উভয় দলের তরুণ ক্রিকেটারদের মধ্যে। তবে ক্রিকেটে এমন আচরণের অনুমতি নেই। আর তাই সে দিনের ফাইনালের ভিডিও ফুটেজ দেখে আইসিসি উভয় দলের ৫ জন খেলোয়াড়কে কয়েকটি ম্যাচ নিষিদ্ধ করেছে। এ শাস্তির বিরুদ্ধে আবেদন করার কথা জানিয়েছেন বিসিবির প্রধান নির্বাহী নিজাম উদ্দিন চৌধুরী।

চ্যাম্পিয়ন বাংলাদেশের তিনজন ও রানার্সআপ ভারতের দুজন এই শাস্তির মুখোমুখি হয়েছে। আইসিসির শাস্তির শিকার বাংলাদেশ দলের তিন ক্রিকেটার হলেন-তৌহিদ হৃদয়, শামিম হোসেন ও রকিবুল হাসান। আর ভারতের দুজন হলেন- আকাশ সিং ও রবি বিষ্ণই। আইসিসি কোড অব কন্ডাক্টের ২.২১ ধারায় শাস্তি দেওয়া হয়েছে তাদের ।  

শাস্তির বিষয়ে বিসিবির প্রধান নির্বাহী বলেন, ‘শাস্তির বিষয়টি আমরা জেনেছি। আমাদের ম্যানেজারের কাছ থেকে দেশে ফিরলে রিপোর্ট নেওয়া হবে। বিস্তারিত সবকিছু জেনে এরপর যদি সুযোগ থাকে আমরা ব্যবস্থা নেব, আপিল করব শাস্তি কমানোর।’

রকিবুল হাসান জয়সূচক শেষ রানটি নেওয়ার পর উল্লাসে মাতেন বাংলাদেশের খেলোয়াড়রা। এ সময় মাঠে থাকা ভারতীয়দের সঙ্গে কথা-কাটাকাটি এমনকি সামান্য ধাক্কাধাক্কিও হয়েছে। পতাকা নিয়ে টানাহেঁচড়ার ঘটনাও ঘটেছে। এ বিষয়ে দুঃখ প্রকাশ করেছিলেন অধিনায়ক আকবর আলি। কিন্তু অধিনায়কের ক্ষমা প্রার্থনাতেও খুব একটা লাভ হয়নি।

পরে পুরো ঘটনা নিয়ে গতকাল (সোমবার, ১০ ফেব্রুয়ারি) তদন্ত প্রতিবেদন দিয়েছেন আইসিসির ম্যাচ রেফারি গ্রায়েম ল্যাব্রয়। সে অনুযায়ী শাস্তি পেয়েছেন বাংলাদেশের তৌহিদ হৃদয়, শামিম হোসেন ও রকিবুল হাসান।

বাংলাদেশের তৌহিদ পেয়েছেন ১০টি সাসপেনশন পয়েন্ট, যা ৬টি ডিমেরিট পয়েন্টের সমান। শামিমের সাসপেনশন পয়েন্ট ৮টি হলেও ডিমেরিট পয়েন্ট কিন্তু ৬টিই থাকছে। স্পিনার রকিবুল ৪টি সাসপেনশন পয়েন্ট পেয়েছেন, যেটা ৫ ডিমেরিট পয়েন্টের সমান। এ পয়েন্টগুলো তিনজনেরই ক্যারিয়ারে আগামী দুই বছর থেকে যাবে।

আরও পড়ুন :-ভারতকে হোয়াইটওয়াশ করে কিউইদের কঠিন প্রতিশোধ

এ শাস্তির ফলে আগামী দুই বছর জাতীয় দল বা অনূর্ধ্ব-১৯ ক্রিকেটে শাস্তি ভোগ করতে হবে এই পাঁচ ক্রিকেটারকে। এক সাসপেনশন পয়েন্ট মানেই একটি ওয়ানডে বা টি-টুয়েন্টি, অনূর্ধ্ব-১৯ পর্যায় বা এ দলের একটি ম্যাচ খেলতে না পারার শাস্তি। সে অনুযায়ী বেশ বড় শাস্তিই জুটেছে সবার।

ওডি/এনএ

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: 02-9110584, +8801907484800

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড