• বুধবার, ১৯ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ৬ ফাল্গুন ১৪২৬  |   ২১ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

বাংলাদেশ-পাকিস্তান সিরিজ

সর্বোচ্চ রান তামিমের, উইকেট শফিউলের

  ক্রীড়া ডেস্ক

২৭ জানুয়ারি ২০২০, ১৯:২২
তামিম শফিউল
তামিম ইকবাল ও শফিউল ইসলাম (ছবি: সংগৃহীত)

প্রথম দফায় পাকিস্তান সফরে টাইগারদের তিন ম্যাচের টি-টুয়েন্টি সিরিজ শেষ হয়েছে। শেষ ম্যাচ বৃষ্টির কারণে পরিত্যক্ত হওয়ায় ২ ম্যাচ খেলেই দেশে ফিরতে হচ্ছে টাইগারদের। আর দুটো ম্যাচ হেরে জয় ছাড়াই শেষ হলো প্রথম দফার পাকিস্তান সফর।

সিরিজে কোনো জয় না পেলেও সর্বোচ্চ রান ও উইকেট বাংলাদেশি ব্যাটসম্যান-বোলারদেরই দখলে। সিরিজে ১০০'র বেশি রান করা একমাত্র ব্যাটসম্যান তামিম ইকবাল। অন্যদিকে শফিউল ইসলাম নিয়েছেন সর্বোচ্চ ৩ উইকেট।

সিরিজের প্রথম ম্যাচে ৩৯ করার পর দ্বিতীয় ম্যাচে ৬৫ রান করেন তামিম ইকবাল। দুই ম্যাচেই রান আউটের শিকার হন এ ব্যাটসম্যান। তামিমের মোট রান ১০৪। ৫২.০০ গড়ে রান করলেও ধীরগতিতে ব্যাটিং করার জন্য অবশ্য সমালোচিতই হয়েছেন তামিম। তামিমের স্ট্রাইকরেট ছিল ১১৯.৫৪, যা টি-টুয়েন্টি ফরম্যাটে বেমানান। 

সিরিজের দ্বিতীয় সর্বোচ্চ রান মোহাম্মদ হাফিজের। তিনি করেছেন ৮৪ রান। দ্বিতীয় ম্যাচে হাফিজ করেছেন ৬৭ রান, যা সিরিজের সর্বোচ্চ ব্যক্তিগত ইনিংস। প্রথম ম্যাচে শূন্য রানে আউট হওয়া বাবর আজম দ্বিতীয় ম্যাচে করেছেন ৬৬ রান। দুই ম্যাচ মিলিয়ে বাবরের এ ৬৬ রানই সিরিজের তৃতীয় সর্বোচ্চ রান। এছাড়া এক ম্যাচে ব্যাটিংয়ের সুযোগ পেয়ে চতুর্থ সর্বোচ্চ ৫৮ রান করেছেন শোয়েব মালিক।

সিরিজে সর্বোচ্চ ৩ উইকেট নিয়েছেন বাংলাদেশি পেসার শফিউল ইসলাম। প্রথম ম্যাচে ২ উইকেট নেওয়ার পর দ্বিতীয় ম্যাচে তিনি নিয়েছেন ১ উইকেট। এছাড়া শাহীন শাহ আফ্রিদি, মোহাম্মদ হাসনাইন, হারিস রউফ ও সাদাব খান প্রত্যেকে দুটি করে উইকেট নিয়েছে।

সিরিজে ওভার প্রতি সবচেয়ে কম রান দিয়েছেন বাংলাদেশি পেসার আল আমিন হোসেন। দুই ম্যাচে মোট ৭ ওভার বোলিং করে তিনি দিয়েছেন ৩৫ রান। ওভার প্রতি ৫ রান দিয়েছেন এ বোলার। এছাড়া পাক বোলার শাহীন শাহ আফ্রিদি ওভার প্রতি দিয়েছেন ৫.৬২ রান।

ওডি/এমএমএ

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: 02-9110584, +8801907484800

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড