• শুক্রবার, ২৪ মে ২০২৪, ১০ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১  |   ৩৩ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

এডুটেক ইন্ডাস্ট্রি ও শিক্ষায় অত্যাধুনিক প্রযুক্তির ব্যবহার নিশ্চিত করতে চাই: আব্দুল আজিজ

  নিজস্ব প্রতিবেদক

২৫ এপ্রিল ২০২৪, ২১:১০
আব্দুল আজিজ

বাংলাদেশ অ্যাসোসিয়েশন অব সফটওয়্যার অ্যান্ড ইনফরমেশন সার্ভিসেস (বেসিস) এর নির্বাচনে পরিচালক প্রার্থী হয়ে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন যাচাই.কম লি.-এর চেয়ারম্যান আব্দুল আজিজ। তিনি বেসিস ভোটারদের উদ্দেশে বলেছেন, এডুটেক ইন্ডাস্ট্রি ও শিক্ষায় অত্যাধুনিক প্রযুক্তির ব্যবহার নিশ্চিতকরণের মাধ্যমে ডিজিটালাইজড শিক্ষার মানোনন্নয়ন করতে চাই।

আব্দুল আজিজ নিজের ভবিষ্যত পরিকল্পনা নিয়ে কথা বলতে গিয়ে এ মন্তব্য করেছেন।

তিনি বলেন, দেশে শিক্ষায় প্রযুক্তির ব্যবহার বেশ আগেই শুরু হয়েছে। দূরবর্তী অনলাইন শিক্ষা, ভার্চুয়াল বাস্তবতা দ্বারা ব্যবহারিক জ্ঞান প্রদর্শন, বৃহৎ পরিসরে অনলাইন ওপেন কোর্স ব্যবস্থা, স্বয়ংক্রিয় তথ্যশালা এবং ব্যাপক ডিজিটালাইজেশনের মতো অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ পরিষেবাগুলো জনপ্রিয় হয়ে উঠছে। ডিজিটালাইজেশনের এই প্রযুক্তিগত শিক্ষার মানোন্নয়ন বর্তমানে সবচেয়ে বেশি প্রাসঙ্গিক।

তার মতে, সারা দেশে বর্তমানে প্রায় ৪ কোটি শিক্ষার্থী পড়াশোনা করে। জাতিসংঘের টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা অর্জনের নিমিত্তে বাংলাদেশও এডুটেকে যুগান্তকারী পদচিহ্ন রাখতে পারে। তারুণ্যের সুবিশাল সম্ভাবনা এবং সাহসের সঙ্গে চ্যালেঞ্জের মুখোমুখি হওয়া সম্ভবত পরবর্তী ধাপের সুষম উন্নয়নের একটি রূপরেখা।

যাচাই ডট কমের চেয়ারম্যান বলেন, বর্তমানে আমাদের দেশে শ্রেণিকক্ষে পাঠদান থেকে শুরু করে মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষার ফলও অনলাইনে প্রকাশ করা হচ্ছে। তবে করোনাকালের অভিজ্ঞতা শিক্ষক ও শিক্ষার্থীকে প্রযুক্তি ব্যবহারে আরও উদ্যোগী করেছে, যার মাধ্যমে ডিজিটাল শিক্ষার গুরুত্ব সামনে এসেছে।

তিনি আরও বলেন, দেশে ঘুড়ি লার্নিং, এনিগমা , শিখো , টেন মিনিটস স্কুল , ইশিখন , কেয়ার টিউটর এর মতো প্রতিষ্ঠান শিক্ষাক্ষেত্রে টেকনোলোজির ব্যবহার করে অনন্য উদাহরণ সৃষ্টি করেছে। এই ধরণের প্রতিষ্ঠানগুলোর প্রয়োজনীয় সুবিধাদি নিশ্চিত করা গেলে ডিজিটাল শিক্ষা আরও সহজতর ও মানসম্পন্ন করা যাবে। এছাড়া এই খাতে আরও আগ্রহী বিনিয়োগকারীও পাওয়া যাবে।

তার কথায়, আমি নিজ উদ্যোগে স্কুল, কলেজ, টেকনিক্যাল ইনস্টিটিউট, মেডিকেল ইনস্টিটিউট, ইউনিভার্সিটি-সহ অসংখ্য শিক্ষা প্রতিষ্ঠান প্রতিষ্ঠা করেছি এবং বর্তমান অবধি এসকল প্রতিষ্ঠানের হয়ে দেশে আধুনিক শিক্ষা বিস্তারে আমার সর্বোচ্চ চেষ্টা করে যাচ্ছি। শিক্ষা ক্ষেত্রে আমার অভিজ্ঞতা কাজে লাগিয়ে প্রযুক্তিগত শিক্ষা ও আমাদের এডুটেক ইন্ডাস্ট্রিকে সামনে এগিয়ে নিতে চাই।

বেসিস এর এ পরিচালক পদপ্রার্থী আরও বলেন, শিক্ষার এই ডিজিটাল মাধ্যমের ব্যাপকতা বৃদ্ধিতে বড় বাঁধা ইন্টারনেটসহ প্রযুক্তির সুবিধাগুলো সবার কাছে এখনো সমানভাবে পৌঁছানো যায়নি। এ ছাড়া অনলাইন শিক্ষার ক্ষেত্রে সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিদের প্রয়োজনীয় প্রশিক্ষণের ঘাটতিও রয়েছে। এদিকে প্রযুক্তিগত শিক্ষায় উদ্যোক্তাদের বিনিয়োগেরও ঘাটতি আছে। আমি চাই ইন্টারনেট অপারেটর কোম্পানিগুলোর সাথে আলোচনার মাধ্যমে ডিজিটাল শিক্ষার অয়েবসাইট ও অঅ্যাপসগুলোতে একসেস সহজিকরণ করে এই পরিধি বৃদ্ধি করতে। সম্ভাবনার এ খাতে উদ্যোক্তাদের প্রয়োজনীয় অর্থায়নের ব্যবস্থা করতে যেকোনো পদক্ষেপ আমি গ্রহণ করতে চাই। এই খাতের সংশ্লিষ্ট সকলের জন্য মানসম্মত প্রশিক্ষণ প্রদান নিশ্চিত করতে চাই। বিশ্বব্যাপী চলমান সর্বাধুনিক প্রযুক্তির ব্যবহার নিশ্চিত করে শিক্ষাক্ষেত্রে এক উদাহরণ সৃষ্টি করতে চাই।

উল্লেখ্য, প্রকৌশলী আব্দুল আজিজ টেকনোলোজি খাতে ব্যবসার পাশাপাশি একজন শিক্ষানুরাগী হিসেবে পরিচিত। তিনি বেসিস কার্যনির্বাহী পরিষদ নির্বাচন ২০২৪-২৬ এ 'টিম সাকসেস'র হয়ে অ্যাফিলিয়েট ক্যাটাগরিতে পরিচালক হিসেবে প্রার্থী হয়েছেন। তার ব্যালট নং- ৩।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

নির্বাহী সম্পাদক: গোলাম যাকারিয়া

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: 02-48118243, +8801907484702 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড