• সোমবার, ০৩ আগস্ট ২০২০, ১৯ শ্রাবণ ১৪২৭  |   ৩১ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

চীনা ‘অ্যাপ স্টোরের’ আড়াই হাজার গেইম সরিয়ে নিল অ্যাপল

  প্রযুক্তি ডেস্ক

১৫ জুলাই ২০২০, ১৭:৪৩
অ্যাপ স্টোর
চীনা ‘অ্যাপ স্টোরের’ আড়াই হাজার গেইম সরিয়ে নিল অ্যাপল (ছবি : সংগৃহীত)

সম্প্রতি চীনা ‘অ্যাপ স্টোর’ থেকে আড়াই হাজার মোবাইল গেইম সরিয়ে নেওয়া হয়েছে। চীনা লাইসেন্সের বাধ্যবাধকতা মেনে সম্প্রতি এক ‘নিয়মের ফাঁক’ বন্ধ করেছে অ্যাপল। এরই ফল স্বরূপ জুলাইয়ের প্রথম সপ্তাহে অ্যাপলের চীনা অ্যাপ স্টোর থেকে বিদায় নিয়েছে আড়াই হাজারেরও বেশি মোবাইল গেইম।

ডেটা বিশ্লেষণী প্রতিষ্ঠান সেন্সর টাওয়ারের তথ্য অনুসারে, জুলাইয়ে চীনা অ্যাপ স্টোর থেকে মুছে দেওয়া মোবাইল গেইমের সংখ্যা জুনের প্রথম সপ্তাহের তুলনায় চারগুণ। ‘অর্থ উপার্জন করে’ এমন গেইম ডেভেলপারদের জুনের শেষ পর্যন্ত সময় আগেভাগেই বেঁধে দিয়েছিল অ্যাপল। ওই বেঁধে দেওয়া সময়ের মধ্যে গেইম ডেভেলপারদেরকে ইন-অ্যাপ পারচেসের অনুমোদন স্বরূপ চীন সরকারের ইস্যুকৃত লাইসেন্স নম্বর দেখানোর কথা বলেছিল প্রতিষ্ঠানটি।

বার্তা সংস্থা রয়টার্সের এক প্রতিবেদনে এই তথ্য নিশ্চিত করা হয়েছে।

অনেক আগে থেকেই চীনে এই নিয়মে মেনে আসছে অ্যান্ড্রয়েড গেইম ডেভেলপাররা। অ্যাপল কেন এতদিন ‘নিয়মের ফাঁক’ রেখেছিল, সে বিষয়টি ঠিক পরিষ্কার নয়। আর এ বিষয়ে তাৎক্ষণিকভাবে কোনো মন্তব্য করেনি অ্যাপল।

অ্যাপ স্টোর থেকে মুছে দেওয়া গেইমের তালিকায় ‘হে ডে’, ‘ননস্টপ চাক নরিস’, ‘সলটেয়ার’ ইত্যাদি গেইম রয়েছে। এ প্রসঙ্গে সেনসর টাওয়ারের মোবাইল ইনসাইটসের প্রধান র‌্যান্ডি নেলসন বলেছেন, ‘হয়তো গেইমগুলো ভবিষ্যতে আবার পাওয়া যাবে, তবে বর্তমানে পাঁচ দিন হয়ে যাচ্ছে গেইমগুলো স্টোরে নেই।’

আরও পড়ুন : ফেসবুক-ইনস্টাগ্রামে নতুন নীতিমালা

তবে, প্রতিটি গেইম মুছে দেওয়ার পেছনের কারণ শনাক্ত করতে পারেনি বিশ্লেষণী সংস্থাটি। মুছে দেওয়া গেইমগুলোর চীনে সমন্বিত আয় তিন কোটি ৪৭ লাখ ডলার।

বর্তমানে বিশ্বের বৃহত্তম ভিডিও-গেইম বাজার চীন। সাম্প্রতিক বছরগুলোতে এই বাজারে নিয়ন্ত্রণ বাড়িয়েছে দেশটি। অনেক অনলাইন গেইমকেই দীর্ঘ সময় অপেক্ষা করে দেশটিতে ‘ইন-অ্যাপ’ পারচেস অনুমোদন সংগ্রহ করতে হচ্ছে।

jachai
nite
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
jachai

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: 02-9110584, +8801907484800

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড