• মঙ্গলবার, ১৭ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ২ আশ্বিন ১৪২৬  |   ২৮ °সে
  • বেটা ভার্সন

ইতিকাফ সংক্রান্ত আরেকটি জাল হাদিস

  ধর্ম ডেস্ক

১৮ মে ২০১৯, ১৫:০৮
ইতিকাফ
ছবি : প্রতীকী

من اعتكف عشرا في رمضان كان كحجتين وعمرتين

রাসূলুল্লাহ (সা.)  বলেছেন, যে ব্যক্তি রমজানের দশ দিন ইতিকাফ করল সে যেন দুই হজ ও দুই উমরা করল।

পর্যালোচনা : হাদিসটি ইমাম বায়হাকী ‘আশ-শুআব’ গ্রন্থে হুসাইন বিন আলী হতে মারফূ হিসেবে বর্ণনা করেছেন। হাদীসের সনদ দুর্বল। সনদে বর্ণনাকারীদের একজন মুহাম্মাদ বিন যাযান পরিত্যক্ত রাবী। তার সম্পর্কে ইমাম বুখারী (রহ.) বলেছেন, لا يكتب حديثه তার থেকে কেউ হাদিস লিখবে না। সনদে আরও রয়েছে আনবাসা ইবনে আব্দুর রহমান। তার সম্পর্কে ইমাম আবু হাতেম বলেন, كان يضع الحديث সে হাদিস জাল করত। [১] হাদিসটি প্রচার করা থেকে বিরত থাকা দরকার। [২]

পাঠক মহোদয়! হাদিসটিতে তো ১০ দিনের ফযীলত বর্ণনা করা হয়েছে, এবার লক্ষ্য করুন। শায়খুল হাদিস সাহেব তার ফাজায়েলে রমজানের ৫২২ পৃষ্ঠায় লিখেছেন :

আল্লামা শারানী (রহ.) বর্ণনা করেন, রমজানের ১ দিন ইতিকাফ করা দুই হজ ও ওমরার সমকক্ষ। এবং যে ব্যক্তি জামাতের মসজিদে মাগরিব হইতে এশা পর্যন্ত ইতিকাফ করে ও জিকির এবং তেলাওয়াত করে তাহার জন্য জান্নাতে একটি বালাখানা তৈয়ার করা হয়। অবশ্য শায়খ হাদিসটির কোনো সনদ বর্ণনা করেননি। এমনকি কোনো কিতাবের নামও উদ্ধৃতি উল্লেখ করেননি।

[১] সিলসিলা যঈফাহ ওয়া মাওযূআহ- ২/১০ (মাকতাবাতুল মাআরিফ, রিয়াদ : ১৪১২), [২] মাসিক আলকাউসার, ৩০৭৩ নম্বর প্রশ্নের উত্তর।  

লেখক : মুরাদ বিন আমজাদ।

ওডি/এনএম

প্রচলিত কুসংস্কারের বিরুদ্ধে ধর্মীয় ব্যখ্যা, সমাজের কোন অমীমাংসিত বিষয়ে ধর্মতত্ত্ব, হাদিস, কোরআনের আয়াতের তাৎপর্য কিংবা অন্য যেকোন ধর্মের কোন গুরুত্বপূর্ণ বিষয়, সর্বপরি মানব জীবনের সকল দিকে ধর্মের গুরুত্ব নিয়ে লিখুন আপনিও- [email protected]
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: মো: তাজবীর হুসাইন

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: ০২-৯১১০৫৮৪

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড