• শনিবার, ০৫ ডিসেম্বর ২০২০, ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৭  |   ২০ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

বঙ্গবন্ধুর ইতিহাস মুছতে চেয়ে তারাই ইতিহাস থেকে মুছে গেছে 

  নিজস্ব প্রতিবেদক

১৫ নভেম্বর ২০২০, ২০:৫২
সংসদে রওশন এরশাদ
সংসদে রওশন এরশাদ (ছবি: সংগৃহীত)

জাতীয় সংসদে বিরোধী দলীয় নেতা রওশন এরশাদ বলেছেন বঙ্গবন্ধুকে যারা ইতিহাস থেকে মুছে ফেলতে চেয়েছিল, তারাই ইতিহাস থেকে মুছে গেছে। এটাই ইতিহাসের শিক্ষা।

রবিবার (১৫ নভেম্বর) বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষে সংসদের বিশেষ অধিবেশনের আলোচনায় তিনি এ কথা বলেন।

জাতির পিতাকে স্মরণ করে রওশন এরশাদ বলেন, হাজার বছরের পরাধীনতার গ্লানি থেকে দেশ মুক্ত হয়েছে শেখ মুজিবুর রহমানের নেতৃত্বে। বঙ্গবন্ধু আমাদের স্বাধীন দেশ দিয়েছেন। তিনি স্বাধীন না করলে স্বাধীন দেশ পেতাম না।

রওশন এরশাদ বলেন, স্বাধীনতার সুবর্নজয়ন্তীকে সামনে রেখে যদি আমরা তাকাই তাহলে দেখতে পাবো, বাংলাদেশ নিয়ে বঙ্গবন্ধু যে স্বপ্ন দেখেছিলেন, সেই চূড়ান্ত গন্তব্য থেকে এখনও অনেক দূরে আমরা অবস্থান করছি। তবে শেখ হাসিনার নেতৃত্বে অর্থনৈতিক মুক্তির পথে দুর্গমগীরি পেরিয়ে যাওয়ার চেষ্টা চলছে। উল্লেখযোগ্য বহু অর্জন আমাদের আছে। বড় বড় আন্তর্জাতিক আর্থিক প্রতিষ্ঠানের নজর বাংলাদেশের দিকে। বাংলাদেশ বার্ষিক প্রবৃদ্ধিতে চীন, ভারতকে ছাড়িয়ে গেছে। নিজস্ব অর্থায়নে নির্মাণ হচ্ছে পদ্মা সেতু ও নদীগর্ভে টানেল। তবুও বঙ্গবন্ধুর লক্ষ্য অর্জনে আমাদের বহুদূর হাঁটতে হবে।

রওশন বলেন, বঙ্গবন্ধু চেয়েছিলেন শোষণহীন-বৈষম্যহীন উন্নত গণতান্ত্রিক সমাজ। তাঁর আদর্শের আলোকে মাতৃভূমি গড়ে তুলতে হবে। আমরা রাজনীতি করি, আমাদের ভিন্ন ভিন্ন রাজনৈতিক দর্শন ও দলীয় আদর্শ থাকবে, সেটাই স্বাভাবিক। এটা আমাদের গণতন্ত্রের সৌন্দর্য। রাজনৈতিক পথ-মত ভিন্ন হলেও আমরা বঙ্গবন্ধুর দেখিয়ে দেওয়া পথে হাঁটছি।

আরও পড়ুন : দিনদুপুরে সোনালী ব্যাংকে টাকা লুট

১৯৭৪ সালে বঙ্গবন্ধুর সঙ্গে একই বিমানে ভ্রমণের অভিজ্ঞতা তুলে ধরে তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধুর সঙ্গে সেদিন দেখা না হলে অনুভূতি অসমাপ্ত থেকে যেত। তিনি কতবড় মহান ব্যক্তি তা তুলনা করা যায় না। বঙ্গবন্ধু বেঁচে থাকলে কত না ভালো হতো। এত কাছ থেকে দেখেছি। আমার অনুভূতি আছে। সেটা ভালোভাবে প্রকাশ করতে পারবো না।

jachai
niet
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
niet

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: +8801703790747, +8801721978664, 02-9110584 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড