• শনিবার, ৩১ অক্টোবর ২০২০, ১৬ কার্তিক ১৪২৭  |   ২৭ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

লাগামহীন বক্তব্য দিচ্ছেন মির্জা ফখরুল : তথ্যমন্ত্রী

  নিজস্ব প্রতিবেদক

১০ অক্টোবর ২০২০, ১৬:২১
তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ
তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ (ফাইল ফটো)

আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, ক্ষমতায় থাকার সময় কি করেছিলেন সেটা ভুলে গিয়ে মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর লাগামহীন বক্তব্য দিচ্ছেন।

শনিবার (১০ অক্টোবর) দুপুরে চট্টগ্রাম সার্কিট হাউজে এক অনুষ্ঠান শেষে সাংবাদিকদের এ কথা বলেন তথ্যমন্ত্রী।

ড. হাছান মাহমুদ বলেন, বিএনপি যখন ক্ষমতায় ছিল তখন তারা দলগতভাবে নানা অপকর্ম করেছে। নৌকায় ভোট দেওয়ার অপরাধে আট বছরের শিশু থেকে অন্তঃসত্ত্বা নারী এমনকি ষাট বছরের বয়স্ক নারী পর্যন্ত কেউ রক্ষা পায়নি বিএনপির লেলিয়ে দেওয়া বাহিনীর হাত থেকে। যারা নারী নির্যাতন-ধর্ষণগুলো দলগতভাবে অতীতে করেছে, এ নিয়ে যখন তারা কথা বলে, তখন হাস্যকর হয়ে যায়। মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের বক্তব্য হাস্যকর।

মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর সাহেবরা যখন কথা বলেন, তখন ভুলে যান তারা যখন ক্ষমতায় ছিলেন তখন কি করেছেন। এজন্য এমন লাগামহীন কথা তিনি বলতে পারেন। শেখ হাসিনার সরকার এ ধরনের ঘটনা অতীতে যেগুলো ঘটেছে, সেগুলোর বিচার করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দিয়েছে। এখনো যেগুলো ঘটছে সেগুলোরও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দেয়ার জন্য সরকার বদ্ধপরিকর- বলেন মন্ত্রী।

ফখরুলের বক্তব্যের জবাবে হাছান মাহমুদ আরও বলেন, উনারা অবশ্য আমাদেকে সময় দিচ্ছেন না বহু আগে থেকে। ২০০৯ সালে আমরা সরকার গঠনের তিনমাস পর থেকেই উনারা আমাদের সময় দিচ্ছেন না। কিন্তু বাস্তবতা হচ্ছে, জনগণ আমাদের সময় দিয়েছে। ১২ বছর ধরে শেখ হাসিনা একটানা প্রধানমন্ত্রীর দায়িত্ব পালন করছেন। সুতরাং মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর সাহেব সময় দিলেন কি দিলেন না, সেটি বড় ব্যাপার নয়।

দেশজুড়ে ধর্ষণের ঘটনার প্রসঙ্গ টেনে তিনি বলেন, এই ঘটনাগুলো যে আগে ঘটেনি এমন নয়। কিন্তু আগে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমের এত ব্যাপকতা ছিল না। নোয়াখালীর ঘটনা কোনো টেলিভিশন কিংবা কোন পত্রিকায় এমনকি কোন অনলাইনেও প্রথম প্রকাশ হয়নি। এটি প্রথমে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে প্রকাশিত হয়। এরপর অন্যান্য মূলধারার গণমাধ্যম সেটি নিয়ে সংবাদ পরিবেশন করে। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমের কারণে এখন কোনো ঘটনাই চাপা থাকে না।

jachai
niet
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
niet

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: +8801703790747, +8801721978664, 02-9110584 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড