• মঙ্গলবার, ০৭ এপ্রিল ২০২০, ২৪ চৈত্র ১৪২৬  |   ৩৮ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

কেউ ঝুঁকি নেবে কেউ ঘুমিয়ে থাকবে তা হতে পারে না : ইশরাক

  নিজস্ব প্রতিবেদক

১৬ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ১৭:০০
ইশরাক
বক্তব্য রাখছেন ইশরাক হোসেন (ছবি : সংগৃহীত)

ঢাকা সিটি নির্বাচনে বিএনপি নেতাদের ভূমিকা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন দলটির পরাজিত মেয়র প্রার্থী ইশরাক হোসেন। কেন্দ্রীয় নেতাদের ইঙ্গিত করে তিনি বলেন, কেউ ঝুঁকি নেবে কেউ ঘুমিয়ে থাকবে তা হতে পারে না। নির্বাচনের দিন স্থানীয় নেতাকর্মীরা মাঠে থাকার চেষ্টা করেছিল। কিন্তু তাদের সংগঠিতই করা হয়নি।

রবিবার (১৬ ফেব্রুয়ারি) রাজধানীর নয়াপল্টনে বিএনপি সমর্থিত মেয়র ও কাউন্সিলরদের মতবিনিময় সভায় এসব কথা বলেন তিনি।

ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের (ডিএসসিসি) পরাজিত মেয়র প্রার্থী ইশরাক বলেন, ভোটের দিন কার কি ভূমিকা ছিল, সেটা কারও নাম ধরে বলার দরকার নেই। নির্বাচনের দিন ভোট দিয়ে আমি নিজে বিভিন্ন কেন্দ্র ঘুরে দেখেছি। ওই দিন বেশ কিছু আকাশ-পাতাল তফাৎ লক্ষ্য করেছি। এই ভাবে কোনো দিন আমাদের সাফল্য আসবে না।

তিনি বলেন, কোথাও কোথাও দেখেছি কাউন্সিলর প্রার্থীরা তাদের জীবনের ঝুঁকি নিয়ে চেষ্টা চালিয়ে গেছে নির্বাচনকে ছিনিয়ে আনার জন্য। আবার কিছু এলাকায় দেখেছি কাউন্সিলর প্রার্থীই নেই।

বিএনপির এই মেয়র প্রার্থী বলেন, সিটি নির্বাচনে অংশগ্রহণ করে আমাদের মধ্যে যে দুর্বলতাগুলো ছিল সে বিষয়ে আলোচনা হয়েছে। যাতে করে আমরা ভবিষ্যতে আমাদের দুর্বলতাকে চিহ্নিত করে তা সমাধান করতে পারি।

আরও পড়ুন : বিদেশি চাপ মানবো না : কাদের

কাউন্সিলর প্রার্থীদের উদ্দেশে ইশরাক বলেন, নির্বাচনে আমাদের অংশগ্রহণের মূল উদ্দেশ্য হচ্ছে দেশে গণতন্ত্র ফিরিয়ে আনা এবং বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়াকে মুক্ত করা। যদি আমরা সুসংগঠিত হয়ে আন্দোলন বেগবান করতে না পারি, তাহলে আমাদের নেত্রীর মুক্তি খুব শীঘ্রই সম্ভব হবে না।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন—বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন, ইকবাল হাসান মাহমুদ টুকু, মির্জা আব্বাস, যুগ্ম মহাসচিব হাবিব উন নবী খান সোহেল প্রমুখ।

ওডি/টিএএফ

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: 02-9110584, +8801907484800

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড