• সোমবার, ২৮ নভেম্বর ২০২২, ১৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৯  |   ২৯ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

বাসর রাতে পালিয়েছে ছর ভ্যেছ

  রহমান মৃধা

০৭ নভেম্বর ২০২২, ১৩:০৯
বাসর রাতে পালিয়েছে ছর ভ্যেছ
ফাইজারের প্রোডাকশন অ্যান্ড সাপ্লাই চেইন ম্যানেজমেন্টের সাবেক পরিচালক রহমান মৃধা (ছবি : সংগৃহীত)

জীবনে অনেক কিছু শুনেছি, দেখেছি এমনকি জেনেছি। কিন্তু কখনোই শুনিনি যে বাসর রাতে একটি কোবরা সাপ ছর ভ্যেছ (Sir Väs), সঙ্গিনীকে ফেলে পালিয়ে গেছে, যা সদ্য ঘটেছে স্টকহোমের স্কানসেনে (Skansen)। সুইডেনের স্কানসেন জাদুঘর হলো বিশ্বের সবচেয়ে পুরনো ওপেন হাউজ মিউজিয়াম। স্কানসেন যাদুঘরে সুইডেনের ঐতিহাসিক ভবন পাশাপাশি কুচুটে ক্যাপচার প্রদর্শন ও দেখার সুযোগ রয়েছে।

স্কানসেন জাদুঘরে বেশিরভাগ ভবন এবং খামারবাড়িগুলো মূলত ১৮ শতকের শেষের এবং ১৯ শতকের প্রথম দিকের। ঐতিহাসিক ভবন সংগ্রহ ছাড়াও নানা ধরনের দোকান আছে, আছে ক্যাফে, আছে একটি চমৎকার গির্জা, একটি চিড়িয়াখানা এবং একটি অ্যাকোয়ারিয়াম যা শিশুদের সহ সকলের মন জয় করে, বিনোদন দেয়।

কিছুদিন আগে ২.৫ মিটারের একটি কোবরা সাপ নাম ছর ভ্যেছ, তার টেরারিয়াম থেকে পালিয়ে যায়। একটি নজরদারি ক্যামেরার মাধ্যমে দেখা যায় কিং কোবরা সিলিং-এর ল্যাম্প ফিক্সচারে ফাটল দিয়ে বেরিয়ে আসে। প্রায় এক সপ্তাহ টেরারিয়াম থেকে পালিয়ে আসা কিং কোবরাটির সন্ধান পুরো দমে চলছে।

ঘটনাটি ঘটে গত শনিবার। বিষাক্ত কিং কোবরা তার টেরারিয়াম ছেড়ে চলে যায়, তারপর থেকে একটি নিবিড় অনুসন্ধান অভিযান শুরু হয়।

কর্তৃপক্ষ বলছে– আমরা সম্প্রতি স্বল্প-শক্তির বাতিতে পরিবর্তিত হয়েছি। আমরা আগে যে লাইট বাল্বগুলো ব্যবহার করতাম সেগুলো খুব গরম ছিল এবং সাপগুলো কাছে গেলে তারা নিজেরাই পুড়ে যেতো। এখন যেহেতু এটি গরম ছিল না, সেক্ষেত্রে বাতি এবং ভাল্বের তারের মধ্যে দিয়ে পালাতে সক্ষম হয়েছে। স্ক্যানসেনের অন্য একটি সাপের সাথে কিং কোবরার সঙ্গম করার চেষ্টা করার জন্য তাকে সেখানে রাখার পরে কিং কোবরা পালিয়ে যায়।

মানুষ বাসরঘর থেকে পালিয়েছে শুনেছি তবে সাপও যে পালাতে পারে জানলাম এবার।

কর্মীরা এখন স্থগিত সিলিং-এর একটি এলাকা ঘেরাও করে রেখেছে যেখানে সাপটি আছে, কিন্তু এটি আটকা পড়েনি। কর্মীরা বলেছেন যে তারা সাপটিকে পুনরুদ্ধার করার জন্য কঠোর পরিশ্রম করছেন। অনুসন্ধানের পর, এটি এখন টেরেরিয়ামের কাছে একটি জায়গায় পাওয়া গেছে বলে জানা গেছে।

সুইডিশ টেলিভিশনের তথ্য অনুযায়ী, কাস্টমস অফিসের বিশেষ ক্যামেরা ও এক্স-রে যন্ত্রপাতির সাহায্যে সাপের অবস্থান জানা যায়। সাধারণত, সরঞ্জামগুলো মাদকদ্রব্য ট্র্যাক করার জন্য ব্যবহার করা হয়।

সামান্য একটি সাপের খোঁজে গত সাতদিন ধরে যে পরিমাণ অর্থ এবং কর্ম বিনিয়োগ করা হয়েছে, সেইসাথে মিডিয়া এবং সব ধরনের খবরে শিরোনাম হয়ে প্রচারিত হয়েছে যে শেষ পর্যন্ত আমি নিজেও এ বিষয়টি তুলে ধরতে বাধ্য হলাম। জীবজন্তু বা পশুপক্ষীর ব্যাপারে কিছু ঘটলে এ জাতি এমনভাবে তাকে হাইলাইট করে যে মনে হয় জীবনে কখনো সুইডেনে কোনো অঘটন ঘটে না।

অথচ এ বছরে নানা ধরনের গোলাগুলি বা মারামারির কারণে সম্ভবত ৪৫ জন মানুষের মৃত্যু হয়েছে। তারপর উক্রাইন এবং রাশিয়ার যুদ্ধে কত মানুষ মরছে সেটা নিয়ে তেমন মাথা ব্যথা খুব একটা দেখছিনে যদিও সবাই নিন্দা করছে তবে বাসর রাতে সাপের পালানো ঘটনা সবার মুখে যা এক বিশাল ঘটনা না লিখলেই নয়।

কী কারণে কিং কোবরা তার প্রিয় সঙ্গিনী ছেড়ে পালাল এ রহস্য আমার ভাবনায় থেকেই গেল।

লেখক : রহমান মৃধা, সাবেক পরিচালক (প্রোডাকশন অ্যান্ড সাপ্লাই চেইন ম্যানেজমেন্ট), ফাইজার, সুইডেন।

[email protected]

চলমান আলোচিত ঘটনা বা দৃষ্টি আকর্ষণযোগ্য সমসাময়িক বিষয়ে আপনার মতামত আমাদের কাছে গুরুত্বপূর্ণ। তাই, সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইলকরুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

নির্বাহী সম্পাদক: গোলাম যাকারিয়া

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: 02-48118243, +8801907484702 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড