• রোববার, ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২১, ১৫ ফাল্গুন ১৪২৭  |   ৩৩ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

মিস ইউ বন্ধু

  মো. আশিকুর রহমান

০৮ ফেব্রুয়ারি ২০২১, ১৬:২৫
গবি
গণ বিশ্ববিদ্যালয়ের (গবি) ক্যাম্পাসে আড্ডারত কয়েকজন তরুণ শিক্ষার্থী। ছবি : দৈনিক অধিকার

সব আবেগ, অভিযোগ আর অভিমানের শেষ ঠিকানা যেন একটাই শব্দ, বন্ধু। এটি এমন একটা সম্পর্ক যা জন্মের পর থেকে তৈরি হয়। জাতি, ধর্ম, বর্ণের বিচার ছাড়া গড়ে উঠে এই সম্পর্ক। এমন বন্ধুত্বের চিত্রের দেখা মিলে সাভারের অদূরে অবস্থিত গ্রাম-শহরের মিশ্রণে গঠিত গণ বিশ্ববিদ্যালয়ে (গবি)। বিভিন্ন বিভাগের শিক্ষার্থীদের বন্ধুত্ব আর খুনসুটিতে যেন সব সময় মেতে থাকত ৩২ একরের বিশাল এই বিদ্যাপীঠ।

করোনা ভাইরাসের কারণে ক্যাম্পাস বন্ধ প্রায় এক বছর! ফলে বন্ধুদের মধ্যে চিরচেনা সেই আড্ডা আর খুনসুটির চিত্রও যেন দিন দিন বিলীন হয়ে যাচ্ছে। প্রতিটা বিভাগের শিক্ষার্থীরাই যেন মিস করছে তাদের প্রিয় বন্ধুদের।

গবির বায়োকেমিস্ট্রি অ্যান্ড মলিকুলার বায়োলজি (বিএমবি) বিভাগের এমনই কিছু বন্ধুদের কল্পকথা জানাচ্ছেন আশিকুর রহমান।

বিশ্ববিদ্যালয়ের বিএমবি বিভাগের ১১টি ব্যাচের মধ্যে ষষ্ঠ ব্যাচ অন্যতম। এই ব্যাচের শিক্ষার্থী রওনক জাহান বিথী জানান, বিশ্বকবির ভাষায় বলতে গেলে, ‘গোলাপ যেমন একটি বিশেষ জাতের ফুল, বন্ধু তেমনি একটি বিশেষ জাতের মানুষ।’

তার মতে, বন্ধুত্ব পৃথিবীর সব থেকে মধুর নাম। মাঝে-মধ্যে ঘুরতে যাওয়া, আর খুনসুটিতে কতনা আবেগ অনুভূতি জড়িয়ে আছে! বন্ধু মানে ক্লাসের আগে হোক বা পরে কিংবা ক্লাসের ফাঁকে জমিয়ে আড্ডা, সুখ-দুঃখ ভাগাভাগি; এ যেন নিত্যদিনকার রুটিন।

তিনি বলেন, ‘করোনা ভাইরাস মহামারি আমাদের নিত্যদিনের রুটিনকে পরিবর্তন করে দিয়েছে। বন্ধুত্ব আর পড়াশোনা এখন অনলাইনেই সীমাবদ্ধ। অফলাইনে বন্ধুদের থেকে দূরে আছি প্রায় বছরখানেক। মিস করছি বন্ধুদের সেই দিনগুলো, একসাথে হেঁটে চলা হই-হুল্লোড় এমনকি গ্রুপ স্টাডিতে একে অপরকে পড়া বুঝানো। দশ টাকার বাদাম দশ জনে ভাগাভাগি করে খাওয়া। কারও বিশেষ দিনে সারপ্রাইজ দেওয়া বা একজনের বিপদে সবাই ঝাঁপিয়ে পরা। সৃষ্টিকর্তার অশেষ রহমতে হয়তো ফিরব আমরা খুব শীঘ্রই ইনশাআল্লাহ।’

মিস করায় পিছিয়ে নেই ময়মনসিংহের মতি! ‘মতি কি ছাত্র না?’ বার বার এই কথা বলে রাগানো সেই বন্ধুদেরই মিস করছেন আজ ভীষণভাবে! তার ভাষায়, ‘বন্ধুত্ব পৃথিবীর সবথেকে মধুর নাম। কত বলা না বলা কথা, কত স্বপ্ন একসাথে দেখা, বিভিন্ন দর্শনীয় স্থানে ঘুরতে যাওয়া, কতনা আবেগ অনুভূতি জড়িয়ে আছে আমাদের এই বন্ধুত্বের বন্ধনের মধ্যে। এই করোনা মহাপ্রলয়ের ভয়কে জয় করে আবারও সুস্থ পৃথিবীতে সকল বন্ধুরা একসাথে ডানা মেলে স্বপ্ন দেখুক। ভীষণভাবে মিস করছি আজ আমার প্রিয় সব বন্ধুদের।’

আরও পড়ুন : করোনার টিকা নিয়ে কী ভাবছে তরুণরা?

খুব দ্রুতই হয়তো করোনা ভাইরাসের আতঙ্ককে বিদায় জানিয়ে পুনরায় দেখা মিলবে চিরচেনা সেই বন্ধুদের আড্ডা আর উল্লাসের চিত্র। গণ বিশ্ববিদ্যালয় ভরে উঠবে হাজারও শিক্ষার্থীদের মিলনমেলায়। শুরু হবে নতুনভাবে পথচলা। পুরোনো সব কষ্ট আর বন্ধুদের মিস করার এই গ্লানি রয়ে যাবে শুধু সৃতির পাতায়। আবারও জমে উঠবে বন্ধুদের হাসিতে বিএমবি বিভাগ ও গণ বিশ্ববিদ্যালয় এমনটিই প্রত্যাশা শিক্ষার্থীদের।

চলমান আলোচিত ঘটনা বা দৃষ্টি আকর্ষণযোগ্য সমসাময়িক বিষয়ে আপনার মতামত আমাদের কাছে গুরুত্বপূর্ণ। তাই, সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইলকরুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
jachai
niet
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
niet

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: 02-48118241, +8801907484702 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড