• শুক্রবার, ১৬ নভেম্বর ২০১৮, ২ অগ্রহায়ণ ১৪২৫  |   ৩২ °সে
  • বেটা ভার্সন

চামেলীরা হারবে না

  অধিকার ডেস্ক    ০৩ নভেম্বর ২০১৮, ১৩:১২

চামেলী খাতুন
নারী ক্রিকেটার চামেলী খাতুন (ছবি: সংগৃহীত)

দীর্ঘ এক যুগ মাঠে কাটিয়েছেন, দলকে দিয়েছেন দু'হাত ভরে। সেই নারী ক্রিকেটার চামেলী খাতুন আজ জীবন যুদ্ধে হেরে যাওয়ার পথে। সংবাদ মাধ্যমের বদৌলতে মানুষ দেখেছে, ইনজুরিতে পড়ে ক্রিকেট ছাড়া চামেলীর জীবন সংগ্রামের চিত্র। 

রাজশাহীতে একটি ছোট কুঠরি ঘরে পরিবার নিয়ে থাকেন তিনি। সাবেক এ নারী ক্রিকেটারের ঘরের এমন হাল! এ যেন বাংলাদেশ নারী ক্রিকেটারদের অর্থনৈতিক অবস্থার এক খণ্ড-চিত্র। 

তবে চামেলী খাতুনের জন্য ভাগ্যবিধাতা হয়তো দুয়ার খুলেছেন। শহরের মেয়র গিয়ে বাড়ি তৈরি করে দেওয়ার আশ্বাস দিয়েছেন। প্রথমে তার চিকিৎসায় পাশে দাঁড়িয়েছেন ক্রিকেটার মুস্তাফিজুর রহমান ও সাকিব আল হাসান। এরপর জেলা প্রশাসন ও একে একে এগিয়ে আসলেন অনেকে। টনক নড়েছে ক্রিকেট পাড়ায়। অবশেষে তার চিকিৎসার দায়িত্ব নিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। 

শুক্রবার চামেলীকে উন্নত চিকিৎসার জন্য বিমানে করে উড়িয়ে নিয়ে আসা হয় ঢাকায়। রাজধানীর পঙ্গু হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে তাকে। এদিনই তার অবস্থা দেখতে গেছেন বোর্ড সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন। তিনিও বলেছেন পাশে আছি। 

চামেলী হয়তো সুস্থ হবে। ক্রিকেটে ফিরবে। ভাল জীবনে ভাল থাকবে। প্রশ্নটা অন্য জায়গায়, সব চামেলীরা ভাল আছে তো? কারণ বাংলাদেশের ক্রিকেটে পুরুষ ক্রিকেটাররা যে সুবিধা পান, নারী ক্রিকেটাররা তার অর্ধেকও পান না। 

যেখানে সাকিব-তামিমরা ম্যাচ-ফি পেয়ে থাকেন লাখ টাকা, সেখানে নারী ক্রিকেটারদের জন্য বরাদ্দ ৬শ টাকা করে। বর্তমানে নারী ক্রিকেটারদের বেতন সর্বনিম্ন ১০ হাজার থেকে সর্বোচ্চ ৩০ হাজার টাকা। জাতীয় চ্যাম্পিয়নশিপ ম্যাচ ফি ৬০০ টাকা মাত্র। অন্যদিকে ছেলেদের ক্রিকেটে সর্বনিম্ন বেতন লাখের কাছাকাছি। জাতীয় লিগে প্রথম স্তরে ২৫, দ্বিতীয় স্তরে ২০ ও বিসিএলে ম্যাচ ফি ৫০ হাজার টাকা।

বিশ্ব ক্রিকেটে বাংলাদেশের নারী ক্রিকেটাররাই সবচেয়ে বেশি বেতন বৈষম্যের শিকার। যেখানে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড বিশ্বের সেরা ৫ম ধনী বোর্ড। সেখানে এমন বৈষম্য এক কথায় অপ্রত্যাশিত ও অন্যায্য।

সময়ের সঙ্গে পাল্লা দিয়ে বাংলাদেশ নারী ক্রিকেট এগিয়েছে অনেক। সব থেকে বড় পাওয়া ভারতকে হারিয়ে এশিয়া কাপ জয়। ক্রিকেট পরাশক্তির দেশগুলো এখন বাংলাদেশ নারী ক্রিকেট দলকে সমীহ করে। যার প্রমাণ ইতোমধ্যেই দিয়েছে টাইগ্রেসরা। তবে কেন ওরা অর্থনৈতিকভাবে পিছিয়ে থাকবে? এমনটা চলতে থাকলে কতটুকু এগোবে নারী ক্রিকেট? পাইপলাইনে ক্রিকেটার রাখতে হলে এ বিষয়টি এখনই নজর দেওয়া উচিত।

চামেলীদের হারতে দিলে হেরে যাবে বাংলাদেশ। চামেলীরা জীবন যুদ্ধে আর হারছে না। এমনটা কথায় নয়, বাস্তবেই দেশের মানুষ বাস্তবায়ন দেখতে চায়।

লেখা: এমএস আজীম, সাংবাদিক

চলমান আলোচিত ঘটনা বা দৃষ্টি আকর্ষণযোগ্য সমসাময়িক বিষয়ে আপনার মতামত আমাদের কাছে গুরুত্বপূর্ণ। তাই, সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইলকরুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ই-মেইল: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড