• সোমবার, ১৭ জুন ২০১৯, ৩ আষাঢ় ১৪২৬  |   ৩৩ °সে
  • বেটা ভার্সন

খালেদা-তারেককে নিয়ে সংসদ উত্তপ্ত করলেন বিএনপির রুমিন

  নিজস্ব প্রতিবেদক ১১ জুন ২০১৯, ২১:৪৩

ব্যারিস্টার রুমিন ফারহানা
ব্যারিস্টার রুমিন ফারহানা (ফাইল ফটো)

প্রথমবারের মতো অংশ নিয়েই জাতীয় সংসদ উত্তাল করলেন বিএনপির সংরক্ষিত মহিলা আসনের এমপি ব্যারিস্টার রুমিন ফারহানা।

মঙ্গলবার (১১ জুন) একাদশ সংসদে যোগ দিয়ে শুভেচ্ছা বক্তা হিসেবে বলার সুযোগ পান বিএনপির সহ-আন্তর্জাতিক সম্পাদক রুমিন।

রুমিন বলেন, ‘চলমান একাদশ জাতীয় সংসদ দেশের জনগণের ভোটে নির্বাচিত হয়নি।’ তার এমন বক্তব্যের সঙ্গে সঙ্গেই সংসদ কক্ষ উত্তপ্ত হয়ে ওঠে।

বিএনপির এ নারী সংসদ সদস্য প্রায় আড়াই মিনিট কথা বলেন। তার বক্তব্যের পুরো আড়াই মিনিটজুড়েই ছিল ক্ষমতাসীন দলের মন্ত্রী-এমপিদের চেঁচামেচি ও প্রতিবাদ। এ কারণে রুমিনের কথা ঠিকঠাক শুনতে ও বুঝতে সবারই কষ্ট হচ্ছিল। এ সময় স্পিকার শিরীন শারমিন চৌধুরী ক্ষমতাসীন দলের এমপিদের শান্ত হতে বলেন। কিন্তু স্পিকারের কথায় কেউ কান দেননি।

ব্যারিস্টার রুমিন ফারহানার পুরো বক্তব্য

‘আজকে সংসদে আমার প্রথম দিন। যে কোনও রাজনীতিবিদের মতোই সংসদে আসা, সংসদে দেশের কথা, মানুষের কথা বলা আমার স্বপ্ন ছিল। কিন্তু আমার দুর্ভাগ্য, আমি এমন একটি সংসদে প্রতিনিধিত্ব করছি, যে সংসদটি জনগণের ভোটে নির্বাচিত নয়। নির্বাচনের পরপরই যদি আপনারা টিআইবির রিপোর্ট দেখেন, যদি আপনারা বিদেশি গণমাধ্যম দেখেন, যদি আপনারা বিদেশি পর্যবেক্ষকদের দেখেন, যদি আপনারা নির্বাচন কমিশনের রিপোর্ট দেখেন, আপনারা দেখবেন এই সংসদটি জনগণের ভোটে নির্বাচিত নয়। সুতরাং আমি খুশি হবো যদি এই সংসদের মেয়াদ আর একদিনও না বাড়ে।’

‘মাননীয় স্পিকার আমি এমন একটি সংসদে দাঁড়িয়ে আছি যেই সংসদে তিনবারের সাবেক প্রধানমন্ত্রী, আপসহীন নেত্রী, গণতন্ত্রের জন্য যিনি বারবার কারাবরণ করেছেন, বাংলাদেশের মানুষের, গণমানুষের নেত্রী, যিনি জীবনে কোনও দিন, কোনও আসন থেকে কোনও নির্বাচনে পরাজিত হননি- সেই বেগম খালেদা জিয়া এই সংসদে নেই। তাকে পরিকল্পিতভাবে, একটা উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবে মিথ্যা মামলায় আজকে কারাগারে ১৬ মাসের অধিক সময় আটকে রাখা হয়েছে। একজন আইনজীবী হিসেবে আমি দ্ব্যর্থহীন ভাষায় বলতে চাই যে, বেগম খালেদা জিয়ার মামলার যে ম্যারিট, তার শারীরিক অবস্থা, তার সামাজিক অবস্থান এবং তার যে বয়স, সবকিছু বিবেচনায় তিনি তাৎক্ষণিক জামিন লাভের যোগ্য।’

‘সরকারের হুমকিতে আমাদের অ্যাকটিং চেয়ারম্যান জনাব তারেক রহমান দেশে ফিরতে পারেন না। আমাদের শীর্ষ থেকে শুরু করে তৃণমূল পর্যন্ত একেকজনের নামে শত শত মামলা। মাননীয় স্পিকার তিনি দলমত নির্বিশেষে সবার কাছে একজন সজ্জন রাজনীতিবিদ হিসেবে পরিচিত।’

এরপরই রুমিনের জন্য নির্ধারিত সময় শেষ হয়ে যায়। পরে রুমিনের বক্তব্য এক্সপাঞ্জ করার দাবি জানান রেলমন্ত্রী নুরুল ইসলাম সুজন। স্পিকার জানান, তার বক্তব্যে আপত্তিকর কথা থাকলে পরীক্ষা-নিরীক্ষার মাধ্যমে এক্সপাঞ্জ করা হবে।

এ দিন বিকাল ৫টায় স্পিকার শিরীন শারমিন চৌধুরীর সভাপতিত্বে একাদশ জাতীয় সংসদের তৃতীয় অধিবেশন শুরু হয়। এ অধিবেশন ১১ জুলাই পর্যন্ত চলবে। এ অধিবেশনে বৃহস্পতিবার (১৩ জুন) ২০১৯-২০ অর্থবছরের বাজেট উপস্থাপন করা হবে।

ওডি/এমআর

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: মোঃ তাজবীর হুসাইন

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: ০২-৯১১০৫৮৪

ই-মেইল: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০১৮-২০১৯

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড