• বুধবার, ১৯ জুন ২০১৯, ৫ আষাঢ় ১৪২৬  |   ৩৪ °সে
  • বেটা ভার্সন

প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে রাষ্ট্রদূতের সাক্ষাৎ

জাপান-বাংলাদেশ আড়াই বিলিয়ন ডলারের চুক্তি সই হবে  

  অধিকার ডেস্ক ২০ মে ২০১৯, ১৬:০১

জাপানের রাষ্ট্রদূত-প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে জাপানের রাষ্ট্রদূত হিরোইয়াসু ইজুমির সাক্ষাৎ (ছবি : পিআইডি)

বাংলাদেশের অর্থনৈতিক উন্নয়নে জাপান তার চলমান সহযোগিতা অব্যাহত রাখবে বলে জানিয়েছেন বাংলাদেশে নিযুক্ত দেশটির রাষ্ট্রদূত হিরোইয়াসু ইজুমি। চলতি মাসে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার জাপান সফরে দুই দেশের মধ্যে আড়াই বিলিয়ন ডলারের চুক্তি সই হবে বলেও অবহিত করেছেন রাষ্ট্রদূত। 

সোমবার (২০ মে) সকালে গণভবনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাতে এসব কথা জানান জাপানের রাষ্ট্রদূত। সাক্ষাতের পরে প্রধানমন্ত্রীর প্রেস সচিব ইহসানুল করিম সাংবাদিকদের এসব তথ্য নিশ্চিত করেন।

সাক্ষাতে জাপানের রাষ্ট্রদূত বলেন, জাপান বাংলাদেশের অর্থনৈতিক উন্নয়নে তার চলমান সহযোগিতা অব্যাহত রাখবে। জাপানের দূত প্রধানমন্ত্রীকে অবহিত করে বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার আসন্ন জাপান সফরে দুই দেশের মধ্যে আড়াই বিলিয়ন ডলার সমমূল্যের ৪০তম অফিসিয়াল ডেভেলপমেন্ট অ্যাসিসটেন্স (ওডিএ) চুক্তি স্বাক্ষরিত হবে। যা গত বছরের চাইতে ৩৫ শতাংশ বেশি।

রাষ্ট্রদূত আরো বলেন, জাপানের প্রধানমন্ত্রী শিনজো অ্যাবে জাপানে তার আসন্ন সফরে প্রধানমন্ত্রীকে স্বাগত জানাতে অধীর আগ্রহে অপেক্ষা করছেন।

বিগত নির্বাচনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বিপুল ভোটে বিজয়ী হওয়ায় তাকে অভিনন্দন জানান জাপানের রাষ্ট্রদূত। তিনি বলেন, আগামী ৫ বছর বাংলাদেশ ও দেশের অর্থনীতির জন্য খুবই গুরুত্বপূর্ণ। কারণ এই সময়ে উন্নয়নের ক্ষেত্রে দেশের অর্থনীতি আরো এগিয়ে যাবে।

জাপানের রাষ্ট্রদূত এ সময় প্রধানমন্ত্রীকে জানান, জাপানের সহায়তার নির্মাণাধীন কক্সবাজার জেলার মহেশখালীর মাতারবাড়িতে ১২শ’ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ কেন্দ্র প্রকল্পের অগ্রগতিতে এবং বাংলাদেশের অর্থনৈতিক উন্নয়নে তাদের সহযোগিতা অব্যাহত থাকবে।

প্রধানমন্ত্রী এ সময় জাপানের প্রধানমন্ত্রী শিনজো অ্যাবেকে তার শুভেচ্ছা জানিয়েছেন। তিনি বলেন, জাপানের প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষাৎ করার জন্য তিনিও অধীর আগ্রহে অপেক্ষা করছেন।

বাংলাদেশের অর্থনৈতিক উন্নয়নে জাপানের বিভিন্ন অবদনের কথা স্মরণ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, জাপান বাংলাদেশের এক মহান বন্ধু। তিনি এ প্রসঙ্গে বঙ্গবন্ধুর শাসনামলে দেশে রূপসা সেতু নির্মাণে জাপানের সহযোগিতার কথাও স্মরণ করেন।

প্রধানমন্ত্রীর মুখ্য সচিব মো. নজিবুর রহমান, প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের এসডিজি বিষয়ক মুখ্য সমন্বয়ক মো. আবুল কালাম আজাদ এবং প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের সচিব সাজ্জাদুল হাসান এ সময় উপস্থিত ছিলেন।

এদিকে আগামী ২৮ মে ত্রিদেশীয় সফরের উদ্দেশে ঢাকা ছাড়ার কথা রয়েছে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার। জাপানের টোকিওতে আগামী ৩০ ও ৩১ মে অনুষ্ঠিতব্য ‘ফিউচার অব এশিয়া’ অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রীকে দাওয়াত দিয়েছে কর্তৃপক্ষ। জাপানের সবচেয়ে বড় মিডিয়া প্রতিষ্ঠান নিকেই প্রতি বছরের মতো এবারও এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করছে। এতেই যোগ দিতে পারেন প্রধানমন্ত্রী।

নিকেইয়ের ওয়েবসাইটে দেওয়া তথ্য অনুযায়ী, ৩০ মে সকালে শেখ হাসিনার ভাষণ দেওয়ার কথা। এরপর একটি প্রশ্নোত্তর পর্বে অংশ নিয়ে তিনি বিভিন্ন প্রশ্নের উত্তর দেবেন।

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের একজন কর্মকর্তা বলেন, ‘বাংলাদেশ ও জাপান ৪০তম ওডিএ (অফিশিয়াল ডেভেলপমেন্ট অ্যাসিসটেন্স) প্যাকেজের জন্য আলোচনা করছে। এই প্যাকেজের আওতায় জাপান আমাদের ২২০ কোটি ডলার সহায়তা দেবে, যা মাতারবাড়ি বন্দর ও বিদ্যুৎকেন্দ্র স্থাপনে ব্যবহার হবে। এছাড়া ম্যাস র‍্যাপিড ট্রান্সপোর্টের একটি অংশ বাস্তবায়নেও এখান থেকে অর্থ ব্যয় করা হবে।’

তিনি বলেন, ‘আমরা আশা করছি আগামী ২৯ মে জাপানের প্রধানমন্ত্রী শিনজো আবের সঙ্গে বৈঠকের পরে আমরা এই বিষয়ে একটি চুক্তি সই করতে সমর্থ হবো।’ পৃথিবীর বিভিন্ন দেশের নেতারা ওই অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণ করবেন এবং আশা করা হচ্ছে সেখানে সাইডলাইনে তাদের কারো কারো সঙ্গে প্রধানমন্ত্রীর বৈঠক হতে পারে। আরেকজন কর্মকর্তা বলেন, ‘রোহিঙ্গা ইস্যু সমাধানে আমরা জাপানের সহায়তা চাইবো।’

ওডি/এআর 

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: মোঃ তাজবীর হুসাইন

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: ০২-৯১১০৫৮৪

ই-মেইল: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০১৮-২০১৯

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড