• শুক্রবার, ২২ মার্চ ২০১৯, ৮ চৈত্র ১৪২৫  |   ২৭ °সে
  • বেটা ভার্সন

নিজেরাই গাড়ি তৈরি করব : শিল্পমন্ত্রী

  অধিকার ডেস্ক    ১৪ মার্চ ২০১৯, ১৪:৫৫

নূরুল মজিদ
শিল্পমন্ত্রী নূরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ূন (ছবি : সংগৃহীত)

বহিঃবিশ্বের উপর নির্ভরশীল না থেকে স্বপ্রচেষ্টায় দেশীয় গাড়ি বানানোর বিষয়ে আগ্রহ প্রকাশ করেছেন শিল্পমন্ত্রী নূরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ূন।  

বৃহস্পতিবার (১৪ মার্চ) দুপুর পৌনে ১২টার দিকে রাজধানীর ইন্টারন্যাশনাল কনভেনশন সিটি বসুন্ধরায় সেমস গ্লোবাল আয়োজিত ১৪তম ঢাকা মোটর, ৫ম ঢাকা বাইক, ৪র্থ ঢাকা অটো পার্টস ও ৩য় ঢাকা কমার্শিয়াল অটোমোটিভ শো’র উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ আগ্রহ প্রকাশ করেন তিনি। 

শিল্পমন্ত্রী বলেন, আমাদের বাজার আমাদেরই ধরে রাখতে হবে। আমদানি না করে নিজেরাই গাড়ি তৈরি করতে হবে। আমরা অন্যের ওপর নির্ভরশীল হয়ে থাকতে চাই না। নিজেরা নিজেদের গাড়ি তৈরি করবো। অনেক সেনাপতি তৈরি করেছি। এবার শিল্পপতি বানাবো। 

তিনি বলেন, দৃঢ় প্রচেষ্টায় বাংলাদেশ শিল্প উন্নয়নের যে মাইলফলকে পৌঁছেছে, সারাবিশ্বে অনুকরণের রোল মডেল হয়ে দাঁড়িয়েছে। শিল্পক্ষেত্রে আমরা অনেক এগিয়ে গেছি। মূলত তা বঙ্গবন্ধুর অবদান। তিনি যদি ক্ষুদ্র ও কুটির শিল্প করপোরেশন (বিসিক) প্রতিষ্ঠা না করতেন, তাহলে আজ দেশ শিল্পে এগিয়ে যেতে পারতো না।    

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বঙ্গবন্ধুকে খুব কাছে থেকে দেখেছেন। বঙ্গবন্ধুর স্বপ্ন মোতাবেক এ দেশ গড়ছেন তিনি বলেও যোগ করেন মন্ত্রী।  

তিনি আরও বলেন, ঢাকার ফিটনেসবিহীন গাড়ি নিয়ে অনেকে অনেক কথা বলেন, যানজটের জন্য এসব গাড়িকে দায়ী করেন। কিন্তু যদি আমরা ফিটনেসবিহীন গাড়ি ধরতে অভিযান চালাই, তাহলে এতো গাড়ি ডাম্পিং করার জায়গা নেই।  

সেমস গ্লোবালের প্রেসিডেন্ট মেহেরুন এন ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন আরইএল মোটরস লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক রিয়াদ হাসনাইন, র্যাংকন মোটর বাইকস লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক শাওন হাকিম, এনার্জি প্যাক পাওয়ার জেনারেশন লিমিটেডের পরিচালক এনামুল হক চৌধুরী ও কর্ণফুলী গ্রুপের নির্বাহী পরিচালক আনিসুদ্দৌলা প্রমুখ।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: ০২-৯১১০৫৮৪

ই-মেইল: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০১৮-২০১৯

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড