• বুধবার, ২৬ জানুয়ারি ২০২২, ১২ মাঘ ১৪২৮  |   ১৯ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

‘ওমিক্রন’ রুখতে জনসমাগম সীমিত করার পরামর্শ

  নিজস্ব প্রতিবেদক

২৮ নভেম্বর ২০২১, ২১:৩৮
সাধারণ মানুষ
করোনা সংক্রমণ থেকে রক্ষায় সাধারণ মানুষের স্বাস্থ্যবিধি (ছবি: সংগৃহীত)

করোনাভাইরাসের সদ্য চিহ্নিত হওয়া নতুন ধরন ‘ওমিক্রন’ রুখতে ভ্রমণ সতর্কতা জারির পাশাপাশি দেশের সবখানে সবধরনের জনসমাগম সীমিত করার পরামর্শ দিয়েছে কোভিড-১৯ সংক্রান্ত জাতীয় কারিগরি পরামর্শক কমিটি।

রবিবার (২৮ নভেম্বর) কমিটির ৪৮তম সভায় আলোচনা শেষে এই দুটিসহ আরও বেশ কয়েকটি সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়। কমিটি যেসব দেশে এরইমধ্যে ওমিক্রন শনাক্ত হয়েছে সেসব দেশ থেকে যাত্রী আগমন বন্ধের সুপারিশ করেছে।

সভায় বলা হয়, ‘ওমিক্রন’ দক্ষিণ আফ্রিকা থেকে বিভিন্ন দেশে ছড়িয়ে পড়ছে। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা ওমিক্রনকে ‘ভ্যারিয়েন্ট অব কনসার্ন’ হিসেবে ঘোষণা করেছে। এশিয়া, ইউরোপ, আমরিকা ও আফ্রিকার বিভিন্ন সীমান্ত সতর্কতার পাশাপাশি স্বাস্থ্য সুরক্ষার বিধিনিষেধ জারি করছে। জিম্বাবুয়ে, নামিবিয়া, বোতসোয়ানা, সোয়াজিল্যান্ড হতে যাত্রী আগমনের ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছে বেশ কয়েকটি দেশ।

পরামর্শক কমিটি বাংলাদেশেও এসব দেশ এবং যেসব দেশে ওমিক্রনের সংক্রমণ ছড়িয়েছে সেসব দেশ হতে যাত্রী আগমন বন্ধ করার সুপারিশ করছে। কোনো ব্যক্তি সম্প্রতি (গত ১৪ দিনে) এসব দেশ ভ্রমণ করে ফিরলে বাংলাদেশে ১৪ দিন প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টাইনে থাকতে হবে। কোভিড-১৯ পরীক্ষায় পজিটিভ হলে তাকে আইসোলেশনে রাখার সুপারিশ করা হচ্ছে।

আরও পড়ুন: ইসি গঠনে আইনের খসড়া তৈরি করা হচ্ছে: মন্ত্রী

এছাড়া কমিটি সুপারিশ করেছে, দেশের প্রতিটি পোর্ট অব এন্ট্রি (স্থল, নৌ, বিমান ও রেলপথ) স্ক্রিনিংয়ের ব্যবস্থা করে পরীক্ষা ও সামাজিক সুরক্ষা ব্যবস্থা আরও কঠোরভাবে পালন করা (স্কুল-কলেজসহ), চিকিৎসা ব্যবস্থা শক্তিশালী করা ও বিভিন্ন (রাজনৈতিক, সামাজিক, ধর্মীয়) সমাবেশে জনসমাগম সীমিত করা। এছাড়া জনগণ যেন বিনামূল্যে করোনা পরীক্ষা করতে সেই সুপারিশও করেছে পরামর্শক কমিটি।

ওডি/আজীম

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

সহযোগী সম্পাদক: গোলাম যাকারিয়া

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: 02-48118241, +8801907484702 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড