• বুধবার, ১৬ অক্টোবর ২০১৯, ১ কার্তিক ১৪২৬  |   ২৭ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

খাদ্যে ভেজাল ও শনাক্তকরণের কিছু কৌশল

  লাইফস্টাইল ডেস্ক

১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ১৪:২৮
খাদ্য
ছবি : প্রতীকী

চারপাশে শুধুই ভেজাল। প্রতিদিন ভেজালযুক্ত খাবার খেয়ে নানা অসুস্থতায় পড়ছেন মানুষ। এমনকি এই ভেজাল খাবারের কারণে হারাচ্ছেন প্রাণও। অনেকেই ভাবেন, যদি খাবারের ভেজাল শনাক্ত করা যেত তবে এসব বিপদ থেকে কিছুটা হলেও রক্ষা পাওয়া সম্ভব হতো। 

সব খাবারের ভেজাল খুঁজে না পাওয়া গেলেও কিছু কিছু খাবার রয়েছে যার ভেজাল শনাক্ত করা যায় সহজ কিছু উপায় কাজে লাগিয়ে। চলুন তবে এমন কিছু উপায় সম্পর্কেই জেনে নেওয়া যাক- 
 
কফির গুঁড়া- 

এক গ্লাস পানির ওপর সামান্য কফির গুঁড়া ছিটিয়ে দিন। কফি পানিতে ভাসে। যদি তা পানির নিচে চলে যায় এবং রঙের সারি দেখা যায়, তাহলে বুঝবেন এই কফির গুঁড়াতে ভেজাল রয়েছে। 

হলুদের গুঁড়া- 

হলুদের গুড়ার ভেজার নির্ণয়ের জন্য একটি টেস্ট টিউবে হলুদের গুঁড়া নিয়ে তাতে কয়েক ফোঁটা হাইড্রোক্লোরিক এসিড নিন। যদি হলুদের রং গোলাপি, রক্তবর্ণ বা বেগুনি হয় তবে বুঝবেন অবশ্যই তাতে ভেজাল রয়েছে।

মরিচের গুঁড়া- 

এক গ্লাস পানিতে এক চামচ মরিচের গুঁড়া মেশান। পানির রং যদি বদলে যায় তাহলে বুঝতে হবে মরিচের গুঁড়ায় ভেজাল আছে। 

আইসক্রিম- 

এই খাবারটিতেও কিন্তু ভেজাল থাকতে পারে। একটি বাটিতে আইসক্রিম নিয়ে তার ওপর কয়েক ফোঁটা লেবুর রস নিন। ফেঁপে উঠলে বুঝবেন এতে ওয়াশিং পাউডার রয়েছে। 

সবুজ সবজি- 

এক টুকরো তুলো প্যারাফিনে ভিজিয়ে রাখুন। এবার সবুজ সবজির একটি অংশ এই তুলা দিয়ে ঘষুন। যদি তুলা সবুজ হয়ে যায় তাহলে বুঝবেন, এই সবজিতে কৃত্রিম রং মেশানো হয়েছে।  

ঘি- 

একটি টেস্ট টিউবে ১ মিলিলিটার পানি নিয়ে এর সঙ্গে ০.৫ গ্রাম ঘি মেশান। এবার এই মিশ্রণটিতে তাপ দিন। ঠান্ডা হওয়ার পর তাতে এক ফোঁটা আয়োডিন যোগ করুন। যদি মিশ্রণের রং নীল হয়ে যায় তাহলে বুঝবেন এতে ভেজাল রয়েছে। 

চিনি- 

এক গ্লাস পানিতে চিনি মেশালে যদি তা সরাসরি নিচে চলে যায় তাহলে বুঝবে তা বিশুদ্ধ চিনি। কিন্তু চিনিতে ভেজাল থাকলে তা ওপরে ভাসতে থাকবে। 

চা- 

একটি নষ্ট ব্লটিং পেপার নিন। এর ওপর কিছু চায়ের গুঁড়া ছিটিয়ে দিন। যদি ব্লটিং পেপারের রঙ হলুদ, কমলা বা লাল হয়ে যায় তাহলে বুঝবেন এর মধ্যে কৃত্রিম রঙ মেশানো আছে।

গোলমরিচ- 

অ্যালকোহলের মধ্যে গোলমরিচ দিলে যদি তা বিশুদ্ধ হয় তবে ভাসতে থাকবে। ভেজালযুক্ত গোলমরিচ নিচে চলে যাবে।

ছোট এই কৌশলগুলো কাজে লাগিয়ে আমরা খাদ্যের ভেজাল শনাক্ত করতে পারি এবং ভালো খাদ্য গ্রহণের অভ্যাস গড়তে পারি। 

ওডি/এনএম 

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: মো: তাজবীর হুসাইন

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: ০২-৯১১০৫৮৪

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড