• বৃহস্পতিবার, ১৭ অক্টোবর ২০১৯, ২ কার্তিক ১৪২৬  |   ২৭ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

বুকের যন্ত্রণা থেকে রেহাই দেবে ৫ নিয়ম

  লাইফস্টাইল ডেস্ক

২০ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ১৯:৪৩
বুক
(ছবি : ইন্টারনেট)

বুকের মধ্যে জ্বালাপোড়ার সমস্যা খবুই কষ্টদায়ক। বেশ কিছু কারণে এই সমস্যাটি দেখা দিতে পারে। প্রতিদিনের কিছু অভ্যাস ধীরে ধীরে আমাদের খাদ্যনালীকে দুর্বল করে দেয়। ফলে এটা পরবর্তীতে বুক জ্বালাপোড়ার মতো সমস্যা তৈরি করে।

চলুন জেনে নেয়া যাক, কোন নিয়মগুলো আপনার বুক জ্বালাপোড়ার সমস্যা থেকে দূরে রাখবে-

রাতের খাবার খাওয়ার সময়সূচি : অনেকেই রাতের খাবার খাওয়ার পর কিছুক্ষণের মধ্যে ঘুমিয়ে পড়ে। এটা ঠিক নয়, যা খুবই অস্বাস্থ্যকর অভ্যাস। এই বাজে অভ্যাসের কারণে বুক জ্বালাপোড়ার সমস্যাটি দেখা দেয়। কেননা, এতে করে পাকস্থলীর খাবার ভালোভাবে পরিপাক হতে পারে না। তাতে করে অ্যাসিড নিঃসরণের দরুন বুক জ্বালাপোড়ার সমস্যাটি হয়ে থাকে। এ ক্ষেত্রে রাতে ঘুমানোর অন্তত এক ঘণ্টা আগে খাবার খেয়ে নেওয়া অভ্যাস গড়ে তুলুন।

ধূমপান ত্যাগ করা : ধূমপান স্বাস্থ্যের জন্যই শুধু ক্ষতিকর এমনটা ভাবা ভুল। ধূমপানের অভ্যাস শুধু ফুসফুসকেই নয়, খাদ্যনালীর নিম্নাংশকেও দুর্বল করে দেয়। এর কারণে ঘন ঘন বুক জ্বালাপোড়ার সমস্যা দেখা দেয়। বেশিরভাগ ক্ষেত্রে বুক জ্বালাপোড়ার সমস্যায় ধূমপায়ীদের সংখ্যা বেশি থাকে। তাই এই অভ্যাসটি একেবারে ছেড়ে দিতে হবে আপনার।

দই গ্রহণ : বুক জ্বালাপোড়া করলে দই খান। কারণ বুক জ্বালাপোড়া কমাতে টকদই খুব উপকারী খাদ্য উপাদান। বিশেষত টকদইয়ে তৈরি ঘোল পানে দ্রুত কমে যায় বুক জ্বালাপোড়ার সমস্যাটি।

ক্যাফেইন গ্রহণে সতর্কতা : প্রায় সবার ক্ষেত্রেই একেবারে কমন যে উপাদানটি বুক জ্বালাপোড়াভাব শুরু করে সেটা হলো ক্যাফেইন। ক্যাফিনেটেড যেকোনো পানীয় তথা চা, কফি, কোমল পানীয়তে থাকে পর্যাপ্ত পরিমাণ অ্যাসিডিক উপাদান। এতে করে এই সকল পানীয় গ্রহণে বুক জ্বালাপোড়ার সমস্যাটি তৈরি হয়ে থাকে। তাই আগে নিজের সমস্যাটি নির্ণয় করুন। আর এমন ধরনের পানীয় গ্রহণ থেকে নিজেকে বিরত রাখার চেষ্টা করতে হবে আপনাকে।

ডিপ ব্রিদিং এক্সারসাইজ : বুক জ্বালাপোড়া কমানোর জন্য খুব ভালো কাজ করে গভীরভাবে নিঃশ্বাস নেওয়ার ব্যায়াম। জেনে রাখা ভালো যে, গভীরভাবে নিঃশ্বাস নেওয়ার ফলে অ্যাসিড রিফ্ল্যাক্সের লক্ষণ অনেকটা কমে যায়। ব্যায়ামটি খুবই সহজ যেকোনো সমতল স্থানে স্থির হয়ে বসে গভীরভাবে শ্বাস গ্রহণ করে তা কিছুক্ষণ ধরে রেখে এরপর ধীরে ধীরে প্রশ্বাস ছাড়তে হবে। এমনভাবে কয়েকবার এই ব্যায়ামটি করতে হবে।

ওডি/টিএএফ

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: মো: তাজবীর হুসাইন

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: ০২-৯১১০৫৮৪

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড