• শুক্রবার, ০৩ জুলাই ২০২০, ১৯ আষাঢ় ১৪২৭  |   ২৮ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

দুঃসময়ে ব্যতিক্রমী উদ্যোগ নিয়ে অসহায়দের পাশে কবি রুদ্র মানিক

  নিজস্ব প্রতিবেদক

৩০ জুন ২০২০, ২৩:৪২
ছবি : সংগৃহীত

‘চুনকাম করি সকল অসম দেয়ালে
লিখে দেই ধরিত্রীর সকল ভজনালয়ে-
ক্ষুধার কোনো ধর্ম নেই, নেই কোনো মাতৃভাষা।
পেটের একমাত্র ভাষা ক্ষুধা।
'পেটের চেয়ে বড় কোনো ঈশ্বর নেই!’

একটি ভালো বই শুধু কয়েকটি পৃষ্ঠার সমন্বয়েই গঠিত নয়। এতে থাকে জগতের সুখ-দুঃখ, হাসি-কান্না, মিলন-বিচ্ছেদ, আবেগময় অনুভূতি। সর্বোপরি আত্মার পরিতুষ্টির অন্যতম মাধ্যম বই। কিন্তু এবার ঘটবে একটু ব্যতিক্রম। লেখক বইকে আত্মার সন্তুষ্টির পাশাপাশি এই কঠিন সময়ে অনাহারীর ক্ষুধা মিটানোর মাধ্যম হিসাবে তুলে ধরেছেন।

আর এই ব্যতিক্রমী উদ্যোগ নিয়েছেন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশবিদ্যালয়ের (বশেমুরবিপ্রবি) আইন বিভাগ ৩য় বর্ষের শিক্ষার্থী কবি রুদ্র মানিক।

এই তরুণ লেখক জীবনের অংশ হিসেবে প্রাতিষ্ঠানিক শিক্ষার পাশাপাশি সাহিত্যকে আঁকড়ে ধরেছেন। আজ যখন চারিদিকে হাহাকার, মৃত্যুর মিছিল, অভাবীদের আর্তনাদ, ঠিক এই সময়টিতে কবি প্রকাশ করছেন দ্বিতীয় বই ‘দ্বিতীয় মৃত্যুর আগে’।

বইটির ব্যতিক্রম দিক হলো-লেখক টাকার বিনিময়ে বই নয় বরং বইয়ের বিনিময়ে সুখ কিনতে চান, দাঁড়াতে চান অসহায় দুস্থদের পাশে।

বইটি সম্পর্ক লেখক জানান, এই থমকে যাওয়া সময়ে বই বের করার কারণ একটাই- মানুষের পাশে দাঁড়ানো। এই অবরুদ্ধ কালে সময়ের মত বিপন্ন, থমকে গেছে যাদের জীবন তাদের পাশে দাঁড়ায়ে আহত সময়ের প্রার্থনায় শামিল হতে চাই। আমি বিশ্বাস করি শিল্প সাহিত্য শুধু মনের ক্ষুধা নয়; পেটের ক্ষুধাও নিবৃত্তি করার ঢের সামর্থ্য রাখে।

আরও পড়ুন : মানবতার ফেরিওয়ালা ঝিনাইদহের হেব্বি গ্রুপ

লেখক আরও বলেন, ‘বইয়ের টাকা সম্পূর্ণটা অসহায়-দুঃস্থদের জন্য ত্রাণ নয়, নিত্য প্রয়োজনীয় সামগ্রী উপহার হিসেবে কিনে দিবেন অথবা কেউ চাইলে আশেপাশের কাউকে ছোট্টকিছু উপহার দিয়ে যথাযথ প্রমাণ দিয়ে ছবি পাঠালে বইটা পাবেন।’

উল্লেখ্য,অমর একুশে বইমেলা ২০১৯ এ রুদ্র মানিকের প্রথম কাব্যগ্রন্থ ‘অনুরন’ প্রকাশিত হয়।এর আগেও অমর একুশে বইমেলায় তার অনেক লেখা বিভিন্ন বইতে প্রকাশ হয়েছে।পাশাপাশি কলকাতা বইমেলায় কয়েকটি লেখা প্রকাশিত হয়েছে।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: 02-9110584, +8801907484800

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড