• বুধবার, ১৬ অক্টোবর ২০১৯, ১ কার্তিক ১৪২৬  |   ২৮ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

যাত্রা শুরু করল বিশ্বের প্রথম ভাসমান পারমাণবিক বিদ্যুৎ কেন্দ্র

  আন্তর্জাতিক ডেস্ক

২৩ আগস্ট ২০১৯, ১৮:২৫
আকাদেমিক লোমোনোসভে
রাশিয়ার ভাসমান পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্র আকাদেমিক লোমোনোসভে। ছবি : সংগৃহীত

বিশ্বের প্রথম ভাসমান পারমাণবিক বিদ্যুৎ কেন্দ্র চালু করেছে রাশিয়া, যা আর্কটিকের মুরমানস্কের বন্দর থেকে সুদূর পূর্বের চুকোতকা পর্যন্ত দীর্ঘ ৫০০০ কিলোমিটার যাত্রা করবে।

পারমাণবিক সংস্থা রোসেনার্গেওতম বলেছে যে, আকাদেমিক লোমনোসভের প্রত্যন্ত অঞ্চলের বিদ্যুৎ সরবরাহে গতিশীলতা বাড়িয়ে তুলবে। এর অন্যতম লক্ষ্য হলো চুকোতকার শৌন-বিলিবিন খনন কমপ্লেক্সকে বিদ্যুৎ সরবারহ করা, যাতে স্বর্ণের খনি রয়েছে। কঠিন আবহাওয়ার পরিবেশে এই প্রকল্পটিকে উচ্চ-ঝুঁকি হিসেবে দেখছে পরিবেশবাদী সংগঠন গ্রিনপিস।

গ্রিনপিসসহ সমালোচকরা রাশিয়ান পূর্ববর্তী এবং সোভিয়েত আমলের পারমাণবিক দুর্ঘটনার দিকে ইঙ্গিত করে হুঁশিয়ারি দিয়ে বলেছিল, আকাদেমিক লোমোনোসভের মিশনটি আর্কটিকে দূষিত হওয়ার ঝুঁকি বাড়িয়ে তোলে- এমন একটি বিচ্ছিন্ন প্রত্যন্ত, জনশূন্য অঞ্চল যেখানে বড় সাফাইর ব্যবস্থা নেই।

আর্কটিকের রুশ নৌ পরীক্ষাগারে একটি পারমাণবিক শক্তিচালিত ইঞ্জিনে বিস্ফোরণের মাত্র দুসপ্তাহ পরে ভাসমান এই পারমাণবিক বিদ্যুৎ কেন্দ্র চালু করা হলো। যে দুর্ঘটনায় পাঁচজন পরমাণু ইঞ্জিনিয়ার নিহত হয়, এবং বিবিকিরণ ছড়ায়। যদিও ১৯৮৬ সালে সোভিয়েতের চেরনোবিল বিপর্যয় এর থেকে আরও ভয়াবহ ছিল।

ভাসমান এই পারমাণবিক বিদ্যুৎ কেন্দ্রে ব্যবহৃত অত্যন্ত তেজস্ক্রিয় জ্বালানি বোর্ডেই সংরক্ষণ করা হবে। অনুরূপ ডিজাইনের অন্যগুলো প্রত্যন্ত অঞ্চলে বিদ্যুৎ সরবারহ করবে।
 

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: মো: তাজবীর হুসাইন

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: ০২-৯১১০৫৮৪

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড