• বুধবার, ২২ মে ২০১৯, ৮ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬  |   ৩১ °সে
  • বেটা ভার্সন

'স্টিকার দিদি পশ্চিমবঙ্গকে নিজের এবং ভাইপোর জায়গিরদার মনে করছে'

  আন্তর্জাতিক ডেস্ক ১৬ মে ২০১৯, ১৯:২৫

ভারতের লোকসভা নির্বাচন
ছবি : সংগৃহীত

ভারতের লোকসভা নির্বাচনের মধ্যে ঈশ্বরচন্দ্র বিদ্যাসাগরের মূর্তি ভাঙা নিয়ে মোদী-মমতার বাকযুদ্ধ চরম অবস্থায় রূপ নিয়েছে। ভারতের উত্তরপ্রদেশের মউয়ের সভায় মোদী যেমন বলেছেন, বিদ্যাসাগরের মূর্তি তৈরি করে দেবেন তারা, তেমনই মথুরাপুরের সভা থেকে মমতা ফিরিয়ে দিয়েছেন সেই প্রস্তাব। মোদী বলেছেন, 'তৃণমূলের গুন্ডারা' মূর্তি ভেঙেছে। পাল্টা অমিত শাহকেই গুন্ডা বলেছেন মমতা।

মথুরাপুর লোকসভা কেন্দ্রের দলীয় প্রার্থী শ্যামাপ্রসাদ হালদারের সমর্থনে জনসভায় যোগ দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী। স্থানীয় বিবেকানন্দ শিশু উদ্যানে নির্বাচনী জনসভায় ভাষণ দিচ্ছেন নরেন্দ্র মোদী।

আগামী ১৯ মে শেষ দফায় পশ্চিমবঙ্গের মোট ৯টি কেন্দ্রে ভোটগ্রহণ। বৃহস্পতিবার রাত ১০টার পর শেষ হচ্ছে শেষ দফার প্রচার। বুধবারই নির্বাচন কমিশন এক দিন আগেই প্রচার শেষ করার নির্দেশিকা জারি করেছে। মথুরাপুরের পর দমদম সেন্ট্রাল জেল ময়দানে আরও একটি জনসভা করবেন মোদী। শেষ দফার প্রচারের শেষ দিনে মোদী কী রাজনৈতিক বার্তা দেন, সেদিকে নজর রয়েছে রাজনৈতিক পর্যবেক্ষকদের।

মোদী তার বক্তব্যে বলেন, এ বার কৃষকদের মতো মৎস্যজীবীদেরও ক্রেডিট কার্ড দেওয়া হবে। মৎস্যজীবীদের জন্য আলাদা মন্ত্রণালয় বানানো হবে, এতদিন পশুপালন বিভাগ এই কাজ করত। এতে মানুষের কর্মসংস্থান হবে, রোজগার বাড়বে। হলদিয়া থেকে বারাণসী পর্যন্ত নদীপথে যোগাযোগ তৈরি হচ্ছে

মোদী মমতাকে স্টিকার দিদি সম্বোধন করে বলেন, কেন্দ্রীয় সরকারের প্রকল্পে নিজের স্টিকার লাগিয়ে দেন দিদি। আপনাদের ভালবাসায় আমি অভিভূত। এখানে উন্নয়নে স্পিড ব্রেকার লাগিয়ে দিয়েছেন দিদি।

পশ্চিমবঙ্গে তোলাবাজ, গুন্ডাদের সিন্ডিকেট বানিয়ে রেখেছেন অভিযোগ করে মোদী বলেন, দিদিকে আমার প্রশ্ন, বাংলাকে কোন দিকে নিয়ে যেতে চাইছেন তিনি। বাংলার সাধারণ মানুষকে কথায় কথায় জেলে ভরে দেন দিদি, কিন্তু চোর-ডাকাত গুন্ডাদের ছেড়ে রেখেছেন। দিদি ভারতের প্রধানমন্ত্রীকে মানেন না, কিন্তু পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রীকে মানেন।

পশ্চিমবঙ্গের উন্নয়নের জন্য দিদির বিন্দুমাত্র চিন্তা নেই বলে মোদী বলেন, ভয় পাবেন না দিদি, বাংলার এই সত্য স্বীকার করে নিন। ভোটে জয় পরাজয় হয়েই থাকে, যে মানুষ আপনাকে এত সম্মান দিয়েছিল, সেই মানুষই আজ আপনাকে সরাতে চাইছে। আপনার বিছানাপত্র গোটানোর সময় হয়ে এসেছে। এখানে দুর্গাপুজো নিয়ে সমস্যা আছে।

এখানে বিজেপিই প্রথম এই সব নির্যাতনের বিরুদ্ধে আওয়াজ তুলেছে বলে তিনি জানান, আজ ঈশ্বরচন্দ্র বিদ্যাসাগর যেখানেই থাকুন, বাংলায় কোন দল দুষ্কৃতিকারীদের জন্য, অনুপ্রবেশকারীদের জন্য কাজ করছে। মূর্তি ভাঙায় জড়িতদের কঠিন থেকে কঠিনতর শাস্তি হওয়া দরকার। এই মূর্তি ভাঙার কাজ যারা করেছে, তারা পাপ করেছে।

তৃণমূল সরকার যে ভাবে নারদা-সারদার প্রমাণ গায়েব করেছে, সেভাবেই এই কাণ্ডেও করছে। ওখানে সিসিটিভির ফুটেজ আছে। মহান শিক্ষাবিদ, সমাজ সংস্কারক বিদ্যাসাগরের মূর্তি ভেঙে দিয়েছে। টিএমসির গুন্ডারা তুফান তুলে দিয়েছে। এর জন্য গণতন্ত্রের বদনাম হচ্ছে। ভোটপ্রচারের সময় এবং গত তিন-চার দিন যা হচ্ছে আপনারাও দেখছেন।

মোদী বলেন, যেভাবে দিদি পশ্চিমবঙ্গকে নিজের এবং ভাইপোর জায়গিরদার মনে করছে, যে ব্যবহার করছে, তা রাজ্যবাসী জেনে গিয়েছে। আপনাদের এই ভালবাসা আমি ভুলব না। রাস্তা দিয়ে এসেছি, এখানে যে সংখ্যায় মানুষ দেখছি, হেলিপ্যাডের কাছে তার তিন গুণ বেশি মানুষ ছিলেন। আমি একটু আগেই হেলিকপ্টারে নেমেছি। বাংলাই বিজেপিকে ৩০০ আসন পার করিয়ে দেবে। পশ্চিমবঙ্গের মানুষ এক বিশেষ পরীক্ষার সামনে।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
SELECT id,hl2,parent_cat_id,entry_time,tmp_photo FROM news WHERE ((spc_tags REGEXP '.*"location";s:[0-9]+:"ভারত".*')) AND id<>63790 ORDER BY id DESC LIMIT 0,5

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: মোঃ তাজবীর হুসাইন

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: ০২-৯১১০৫৮৪

ই-মেইল: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০১৮-২০১৯

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড