• সোমবার, ১০ ডিসেম্বর ২০১৮, ২৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৫  |   ১৯ °সে
  • বেটা ভার্সন

মালালার ঝুলিতে এবার হার্ভার্ডের সম্মাননা

  অধিকার ডেস্ক    ০৬ ডিসেম্বর ২০১৮, ২১:২৭

ছবি : সংগৃহীত

পাকিস্তানে নারী শিক্ষায় অবদানের জন্যে সর্বকনিষ্ঠ হয়ে জয়লাভ করেছেন নোবেল। এরপর একে একে নানা দেশ ও সংস্থা থেকে পুরস্কৃত হন তিনি, এবার তার পুরস্কারপ্রাপ্তির তালিকায় যুক্ত হতে যাচ্ছে হার্ভার্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের সম্মাননা।  'এপি'

পাকিস্তানের শিক্ষা আন্দোলনকর্মী মালালা ইউসুফজাইকে সম্মাননা প্রদানের বিষয়টি হার্ভার্ডের কেনেডি স্কুলের পক্ষ থেকে বুধবার (৫ ডিসেম্বর) এক অনুষ্ঠানের মাধ্যমে এই তথ্য নিশ্চিত করা হয়। তারা জানায়, নারী শিক্ষায় অবদানের স্বীকৃতি স্বরুপ মালালাকে 'গ্লিটসম্যান অ্যাওয়ার্ড-২০১৮' প্রদান করার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।

খুব অল্প বয়সে নিজ দেশের মেয়েদের শিক্ষার্জনের প্রতিবন্ধকতা নিয়েই তিনি লেখালেখি শুরু করেন। ২০০৯ সালে মালালা 'বিবিসি নিউজে' এক ছদ্মনামে একটি ব্লগ লেখেন, যেখানে তিনি জঙ্গিগোষ্ঠী তালিবানদের শাসনের অধীনে তার জীবন ও সোয়াত উপত্যকায় মেয়েদের শিক্ষার ব্যাপারে মতামত ব্যক্ত করেন।

২০১০ সালের গ্রীষ্মকালে সাংবাদিক অ্যাডান এলিক মালালার জীবন নিয়ে মার্কিন সংবাদমাধ্যম 'নিউ ইয়র্ক টাইমস'র জন্য একটি তথ্যচিত্র নির্মাণ করেন। এ ঘটনার পর মালালা নারী শিক্ষা নিয়ে সংবাদমাধ্যম ও টেলিভিশনে সাক্ষাৎকার দিতে থাকেন। তালিবান সদস্যরা মুখোশ পড়ে ২০১২ সালের ৯ অক্টোবর মালালার স্কুল বাসে উঠে তাকে গুলি করে চলে যায়। তৎক্ষণাৎ চিকিৎসার জন্য তাকে যুক্তরাজ্যে পাঠানো হয়। এরপর থেকেই বিশ্বে নারী অধিকার আদায় আন্দোলনের প্রতীক হয়ে উঠেন তিনি।

পাকিস্তানের প্রত্যন্ত অঞ্চলের এই মেয়ে ২০১৪ সালে সর্বকনিষ্ঠ ব্যক্তি হিসেবেই নোবেল পুরস্কার লাভ করেন। শিশুদের জন্য বিশেষ করে নারীশিক্ষা নিয়ে কাজ করায় বিশ্বব্যাপী তার পরিচিতি তৈরি হয়। ২১ বছর বয়সী মালালা বর্তমানে অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ে অধ্যয়নরত।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ই-মেইল: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড