• সোমবার, ২৭ জুন ২০২২, ১৩ আষাঢ় ১৪২৯  |   ৩০ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

কাবুলে নারীদের বিক্ষোভে তালিবানের হামলা

  আন্তর্জাতিক ডেস্ক

১৭ জানুয়ারি ২০২২, ১৪:১৯
কাবুলে নারীদের বিক্ষোভে তালিবানের হামলা
কাবুলের রাজপথে বিক্ষোভরত নারীরা (ছবি : আল-জাজিরা)

শিক্ষা ও চাকরির অধিকারের দাবিতে যুদ্ধবিধ্বস্ত রাষ্ট্র আফগানিস্তানের রাজধানী কাবুলের রাজপথে বিক্ষোভরত নারীদের দিকে পিপার স্প্রে ছুড়েছে দেশটির কট্টর ইসলামপন্থি ক্ষমতাসীন শাসকগোষ্ঠী তালেবানের নিরাপত্তা বাহিনী। কাবুলে আন্দোলনে অংশ নেওয়া অন্তত তিনজন বিক্ষোভকারী ফরাসি বার্তা সংস্থা এএফপিকে তথ্যটি জানিয়েছেন।

গত বছরের আগস্টে বল প্রয়োগের মাধ্যমে দেশটির নিয়ন্ত্রণ নেওয়ার পর তালেবান কর্তৃপক্ষ আফগানদের ওপর— বিশেষ করে নারীদের ওপর বিভিন্ন ধরনের নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছে।

এএফপির একজন প্রতিনিধি বলেছেন, রবিবার কাবুল বিশ্ববিদ্যালয়ের সামনে অন্তত ২০ জন নারী সমবেত হয়ে ‌‘সমতা এবং ন্যায়বিচার’ দাবিতে স্লোগান দিয়েছেন। এ সময় তাদের হাতে বিভিন্ন ধরনের ব্যানার দেখা যায়। এতে নারীর অধিকার, মানবাধিকারের দাবি সংক্রান্ত বিভিন্ন বার্তা লেখা ছিল।

বিক্ষোভে অংশ নেওয়া তিনজন নারী এএফপিকে জানান, তালেবানের যোদ্ধারা বেশ কয়েকটি গাড়িতে করে ঘটনাস্থলে পৌঁছে পিপার স্প্রে ছুড়ে নারীদের বিক্ষোভ ছত্রভঙ্গ করে দেয়।

আরও পড়ুন : রাশিয়া যাচ্ছেন ইরানি প্রেসিডেন্ট

নিরাপত্তার কারণে নাম প্রকাশে অস্বীকৃতি জানিয়ে একজন বিক্ষোভকারী বলেছেন, আমরা কাবুল বিশ্ববিদ্যালয়ের কাছে ছিলাম। এ সময় তালেবানের তিনটি গাড়ি আসে এবং একটি গাড়ির যোদ্ধারা আমাদের ওপর পিপার স্প্রে নিক্ষেপ করে।

তিনি আরও বলেন, আমার ডান চোখ জ্বালাপোড়া করতে শুরু করে। আমি তাদের একজনকে বলেছিলাম, আপনাকে ধিক্কার জানাই। পরে তিনি আমার দিকে বন্দুক তাক করেন।

অন্য দুজন বিক্ষোভকারী মনে করেন, স্প্রের কারণে একজন নারীর চোখ এবং মুখে অ্যালার্জির প্রতিক্রিয়া দেখা দেয়। তাকে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়।

বিক্ষোভের ভিডিয়ো ধারণ করায় ঘটনাস্থল থেকে তালেবানের একজন যোদ্ধাকে এক ব্যক্তির মোবাইল ফোন জব্দ করতে দেখেছেন এএফপির প্রতিনিধি।

আরও পড়ুন : মহামারিতে শীর্ষ ১০ ধনীর সম্পদ দ্বিগুণ বৃদ্ধি

বিশ্লেষকদের মতে, গত আগস্ট মাসের মাঝের দিকে ক্ষমতায় আসার পর কট্টরপন্থি ইসলামি এই গোষ্ঠী প্রশাসনের অনুমতি ছাড়া বিক্ষোভ আয়োজনের ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপ করে। তখন থেকে নারীদের অধিকারের দাবিতে আয়োজিত বিক্ষোভ-প্রতিবাদ বারবার বলপ্রয়োগ করে ছত্রভঙ্গ করে দিয়েছে তালেবানের যোদ্ধারা।

আফগান সরকারি খাতে কর্মরত নারীদের কাজে ফেরায় বারণ করে দিয়েছে তালেবান কর্তৃপক্ষ। এছাড়া দেশটির অনেক মাধ্যমিক স্কুল মেয়েদের জন্য পুনরায় খোলা হয়নি এবং বন্ধ রয়েছে সরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ও।

দুই দশক পর গত আগস্টে যুদ্ধবিধ্বস্ত রাষ্ট্রটির ক্ষমতায় এসে অতীতের শাসনামলের মতো ঘনিষ্ঠ পুরুষ সঙ্গী ছাড়া নারীদের দীর্ঘপথের যাত্রা নিষিদ্ধ করেছে তালেবান নেতারা। একই সঙ্গে দেশটিতে নারীদের অভিনীত বিভিন্ন ধরনের সিরিয়াল ও অনুষ্ঠান টেলিভিশনে সম্প্রচারে নিষেধাজ্ঞা দেওয়া হয়েছে।

উল্লেখ্য, যুক্তরাষ্ট্র নেতৃত্বাধীন পশ্চিমা সামরিক বাহিনীর অভিযানের আগে ১৯৯৬ থেকে ২০০১ সাল পর্যন্ত আফগানিস্তানের ক্ষমতায় ছিল তালেবান নেতারা। প্রথমবার দেশটির ক্ষমতায় এসে নারীদের শিক্ষা, চাকরি নিষিদ্ধসহ বিভিন্ন ধরনের কট্টর বিধিনিষেধ আরোপ করে সশস্ত্র এই গোষ্ঠী।

আরও পড়ুন : নিষেধাজ্ঞা ইস্যুতে যুক্তরাষ্ট্রকে হুমকি উত্তর কোরিয়ার

এবারও তালেবান একই ধরনের পুরনো সেসব বিধি-নিষেধ ফিরিয়ে আনায় দেশটির অনেক নারী আত্মগোপনে গেছেন, এমনকি অনেকে আতঙ্কের মধ্যে জীবন-যাপন করছেন।

সূত্র : এএফপি

ওডি/কেএইচআর

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

সহযোগী সম্পাদক: গোলাম যাকারিয়া

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: 02-48118241, +8801907484702 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড