• সোমবার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১২ আশ্বিন ১৪২৮  |   ২৯ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

কলকাতায় কোভ্যাক্সিনের টিকাদান বন্ধ

  আন্তর্জাতিক ডেস্ক

১৩ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৭:১৪
কলকাতায় কোভ্যাক্সিনের টিকাদান বন্ধ
কোভ্যাক্সিনের করোনা ভাইরাস প্রতিরোধী ভ্যাকসিন (ছবি : বিবিসি নিউজ)

দক্ষিণ এশিয়ার ঘনবসতিপূর্ণ দেশ ভারতের পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যের রাজধানী কলকাতায় ফের মহামারি করোনা ভাইরাস প্রতিরোধী ভ্যাকসিনের তীব্র সংকট দেখা দিয়েছে। দেশটির কেন্দ্রীয় সরকার কোভ্যাক্সিন না পাঠানোয় সোমবার (১৩ সেপ্টেম্বর) থেকে অনির্দিষ্টকালের জন্য শহরটিতে টিকাদান বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে। এমনকি মজুত তলানিতে ঠেকেছে কোভিশিল্ডেরও। কিন্তু তা সত্ত্বেও ১০৫টি স্বাস্থ্যকেন্দ্র ও ১৭টি মেগা সেন্টার থেকে কোভিশিল্ড দেওয়া হবে।

রবিবার দিবাগত রাতে কলকাতা পৌরসভার প্রধান স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. সুব্রত রায় চৌধুরী জানিয়েছিলেন, কেন্দ্রীয় সরকার কোভ্যাক্সিন না পাঠানোয় শহরের ৩৯টি ভ্যাকসিন সেন্টার থেকে অনির্দিষ্টকালের জন্য এই টিকা দেওয়া বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। ফের কোভ্যাক্সিনের সরবরাহ এলে টিকাদান শুরু হবে।

কলকাতা পৌরসভার বরাতে ভারতীয় মিডিয়াগুলো জানিয়েছে, কোভিশিল্ডের মজুতও তলানিতে এসে পৌঁছেছে। যে পরিমাণ কোভিশিল্ড টিকা মজুত আছে তা দিয়ে মাত্র একদিন টিকা দেওয়া যাবে। যদি সোমবার রাতের মধ্যে কেন্দ্রীয় সরকার কোভিশিল্ডও না পাঠায় তা হলে মঙ্গলবার থেকে অক্সফোর্ডের আবিষ্কৃত এই টিকাটিও দেওয়া বন্ধ হয়ে যাবে।

এ দিকে পূজার আগে কলকাতায় ফের ঊর্ধ্বমুখী হয়েছে করোনার সংক্রমণ। এমন একটা সময়ে কোভ্যাক্সিন ভ্যাকসিন দেওয়া বন্ধ হয়ে যাওয়ায় উদ্বেগ দেখা দিয়েছে। বিদ্যমান পরিস্থিতিতে নমুনা পরীক্ষার হার বৃদ্ধির পাশাপাশি মাস্ক ব্যবহারের ওপর বেশি গুরুত্ব আরোপ করা হচ্ছে। প্রাণঘাতী ভাইরাসটির তৃতীয় ঢেউ আছড়ে পড়ার আশঙ্কার মধ্যে মানুষকে নিরাপদ রাখতে টিকাদানই একমাত্র উপায়। যদিও সেই টিকার অভাব ভাবাচ্ছে বিশেষজ্ঞদের।

আরও পড়ুন : চীনে আঘাত হানছে শক্তিশালী টাইফুন ‘চ্যানথু’

ভারতীয় মিডিয়াগুলো বলছে, বহু মানুষ রয়েছেন যাদের টিকার একটি ডোজ দেওয়া হয়েছে। যারা কোভ্যাক্সিন নিয়েছিলেন তারা বিপাকে পড়বেন। কারণ প্রথম থেকেই বিশেষজ্ঞরা একটি নির্দিষ্ট টিকারই দু’টি ডোজ নিতে পরামর্শ দিয়ে এসেছেন।

আর তাই যারা দ্বিতীয় ডোজ এখন পাবেন না তারাই মূলত সমস্যায় পড়বেন। অনেকেরই আগামী কয়েকদিনের মধ্যে টিকার দ্বিতীয় ডোজ নেওয়ার কথা। যদিও কোভ্যাক্সিন টিকাদান বন্ধ হওয়ায় তারা সমস্যার সম্মুখীন হবেন। কারণ কোভ্যাক্সিনের জোগান না আসা পর্যন্ত টিকা নিতে পারবেন না বহু মানুষ।

আরও পড়ুন : দাবানলে পুড়ছে স্পেন

উল্লেখ্য, এরই মধ্যে কলকাতা পৌরসভা প্রায় ৫০ লাখ ডোজ টিকা প্রয়োগের কাজ সম্পন্ন করেছে। তবে তা সত্ত্বেও আগের চেয়ে সংক্রমণের দৈনিক হার বাড়ছে। আর এতেই বাড়ছে উদ্বেগ।

ওডি/কেএইচআর

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

সহযোগী সম্পাদক: গোলাম যাকারিয়া

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: 02-48118241, +8801907484702 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড