• রোববার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১১ আশ্বিন ১৪২৮  |   ৩১ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

শ্রীলঙ্কায় জরুরি অবস্থা জারি

  আন্তর্জাতিক ডেস্ক

০৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৪:৪২
শ্রীলঙ্কায় জরুরি অবস্থা জারি
শ্রীলঙ্কার রাজপথে মোতায়েন সেনা সদস্যরা (ছবি : রয়টার্স)

খাদ্যদ্রব্যের মূল্য বৃদ্ধি এবং তীব্র ঘাটতির মধ্যে মজুত প্রতিরোধে দক্ষিণ এশিয়ার দ্বীপরাষ্ট্র শ্রীলঙ্কায় জরুরি অবস্থা জারির অনুমোদন দিয়েছে লঙ্কান পার্লামেন্ট। মঙ্গলবার (৭ সেপ্টেম্বর) প্রতিবেদন প্রকাশের মাধ্যমে তথ্যটি নিশ্চিত করেছে কাতারভিত্তিক সংবাদমাধ্যম আল-জাজিরা।

যদিও দেশটির পার্লামেন্টের বিরোধী আইনপ্রণেতারা বলছেন, দ্রব্যমূল্য নিয়ন্ত্রণ ও নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্যের সরবরাহ বজায় রাখতে জরুরি অবস্থা জারি না করে অন্যান্য আইনও ব্যবহারের সুযোগ ছিল। তাদের অভিযোগ— জরুরি অবস্থা চলাকালীন সময়ে সরকারের সমালোচকদের দমনের ক্ষেত্রে কঠোর জরুরি আইন ব্যবহৃত হতে পারে।

কাতারভিত্তিক মিডিয়াটি বলছে, জরুরি আইন জারির ফলে লঙ্কান সরকার কোনো ধরনের পরোয়ানা ছাড়াই লোকজনকে গ্রেফতার, সম্পত্তি বাজেয়াপ্তের পাশাপাশি অনুমতি ছাড়া যে কোনো স্থানে প্রবেশ ও তল্লাশি চালানোর ক্ষমতা পাবে। এছাড়া নিয়মিত আইন স্থগিতের মাধ্যমে যে কোনো আদেশ জারি করতে পারবে। একই সঙ্গে বিষয়টি নিয়ে আদালতের দ্বারস্থও হওয়া যাবে না।

নির্ধারিত এই সময়ের মধ্যে যারা এ ধরনের আদেশগুলো দেবেন, তাদের বিরুদ্ধেও কোনো ধরনের মামলা করা যাবে না। গত ৩০ আগস্ট শ্রীলঙ্কায় জরুরি অবস্থা জারি করেছিলেন প্রেসিডেন্ট গোতাবায়া রাজাপাকশে।

নিয়ম অনুযায়ী- জরুরি অবস্থা জারির ১৪ দিনের মাথায় পার্লামেন্ট থেকে তা অনুমোদন করিয়ে নেওয়ার সাংবিধানিক বাধ্যবাধকতা রয়েছে। ফলে ভোটাভুটিতে জরুরি অবস্থা জারির পক্ষে পার্লামেন্টে ১৩২টি ভোট এবং বিপক্ষে ৫১টি ভোট পড়ে। ২২৫ আসন বিশিষ্ট লঙ্কান পার্লামেন্টে বর্তমানে দেশটির সরকারি দলের ১৫০টিরও অধিক আসন রয়েছে।

আরও পড়ুন : মিয়ানমারে জান্তা সরকারের বিরুদ্ধে ‘প্রতিরোধ যুদ্ধ’ ঘোষণা

বিশ্লেষকদের মতে, ডলারের বিপরীতে নিজস্ব মুদ্রা শ্রীলঙ্কান রুপির দাম কমে যাওয়ায় বাড়তে থাকা খাদ্যদ্রব্যের মূল্যের লাগাম টানতে জরুরি অবস্থাটি জারি করেছিল শ্রীলঙ্কা। বিষয়টি নিয়ে গঠিত সরকারি কমিশন গত সপ্তাহ থেকে কাজও শুরু করে দেয়। চলতি বছর ডলারের বিপরীতে শ্রীলঙ্কান রুপির মূল্য ৭ দশমিক ৫ শতাংশ হ্রাস পায়। বছরের আগস্ট মাসের আগে পর্যন্ত এই হার ছিল ৬ শতাংশ।

ব্যাপক মুদ্রাস্ফীতির প্রভাবে চলতি বছর থেকেই চাল-আটা-চিনি-তেল-গুঁড়া দুধসহ নিত্যপ্রয়োজনীয় প্রায় সব খাদ্যদ্রব্যের দাম বাড়ছে। আগস্ট মাস থেকে এ পর্যন্ত তা প্রায় লাগামহীন পর্যায়ে পৌঁছে যায়। এছাড়া কেরোসিন ও রান্নার কাজে ব্যবহার্য গ্যাসের দামও পাল্লা দিয়ে বেড়ে যাচ্ছে।

সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা বলছেন, শ্রীলঙ্কার বৈদেশিক মুদ্রা আয়ের অন্যতম বড় ও গুরুত্বপূর্ণ খাত হলো পর্যটন। মহামারি করোনা ভাইরাসের কারণে এই খাত ব্যাপক ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। এর ফলে দেশটির অর্থনীতি গত বছর ৩ দশমিক ৬ শতাংশ পর্যন্ত সংকুচিত হয়েছে।

আরও পড়ুন : লিবিয়ায় গাদ্দাফিপুত্রের কারামুক্তি

উল্লেখ্য, দেশের বৈদেশিক মুদ্রা মজুত রক্ষার্থে গত বছর থেকে মোটরগাড়ি ও বিলাসজাত পণ্য আমদানিতে নিষেধাজ্ঞা আরোপ করে লঙ্কান সরকার।

ওডি/কেএইচআর

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

সহযোগী সম্পাদক: গোলাম যাকারিয়া

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: 02-48118241, +8801907484702 

ই-মেইল: [email protected]m

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড