• সোমবার, ২৬ অক্টোবর ২০২০, ১১ কার্তিক ১৪২৭  |   ২৮ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

কাশ্মীরিদের মর্যাদা ফেরাতে মেহবুবা-ফারুকের নতুন জোট

  আন্তর্জাতিক ডেস্ক

১৬ অক্টোবর ২০২০, ১২:৩৩
কাশ্মীরিদের মর্যাদা ফেরাতে মেহবুবা-ফারুকের নতুন জোট
কাশ্মীরি নেতারা সংবাদ সম্মেলন করছেন (ছবি : কাশ্মীর টাইমস)

দীর্ঘ এক বছরের বেশি সময় গৃহবন্দি থাকার পর সম্প্রতি মুক্তি পেয়েছেন ভারত নিয়ন্ত্রিত জম্মু-কাশ্মীরের সাবেক মুখ্যমন্ত্রী মেহবুবা মুফতি। মূলত এর পরপরই অঞ্চলটির রাজনীতির চাকা গড়াতে শুরু করেছে।

ভারতীয় সংবিধানে ৩৭০ ধারা ফেরাতে পিডিপি, এনসি ও অন্যান্য কয়েকটি বড় দলকে সঙ্গে নিয়ে ‘পিপলস অ্যালায়েন্স ফর গুপকার ডিক্লারেশন’ নামে একটি নতুন জোট গঠন করেছেন মেহবুবা মুফতি ও ন্যাশনাল কনফারেন্সের প্রেসিডেন্ট ফারুক আবদুল্লাহ।

সংবাদমাধ্যম এনডিটিভির প্রতিবেদনে বলা হয়, বৃহস্পতিবার (১৫ অক্টোবর) ফারুক আবদুল্লাহর বাড়িতে বিষয়টি নিয়ে একটি বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। সেখানে পিপলস ডেমোক্রেটিক পার্টির (পিডিপি) প্রেসিডেন্ট মেহবুবা মুফতি, পিপলস কনফারেন্সের চেয়ারম্যান সাজ্জাদ লোন, পিপলস মুভমেন্টের নেতা জাভেদ মির ও সিপিএমের মহম্মদ ইউসুফ তারিগামি উপস্থিত ছিলেন।

গুরুত্বপূর্ণ সেই বৈঠকের পর ফারুক বলেন, আজ একটি জোট গঠনের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। এই জোট কাশ্মীরের বিশেষ মর্যাদা ফেরানোর চেষ্টা করবে। বৈঠকে জম্মু-কাশ্মীর কংগ্রেস প্রধান গুলাম মির শারীরিক অসুস্থতার কারণে আসতে পারেননি।

আরও পড়ুন : কাশ্মীরে নিহত পাকিস্তানি সেনার কবরে ভারতের শ্রদ্ধা নিবেদন

উল্লেখ্য, গত বছরের আগস্টে ৩৭০ ধারা বিলুপ্তির সঙ্গে সঙ্গে বিশেষ মর্যাদা হারায় কাশ্মীর। এ ঘটনার ঠিক আগ মুহূর্তে রাজ্যের সাবেক মুখ্যমন্ত্রী মেহবুবা মুফতি, ওমর আবদুল্লাসহ একাধিক স্থানীয় নেতাকর্মীকে আটক করে সরকার। পরে তাদের গৃহবন্দি করে রাখাও হয়।

আরও পড়ুন : গোপনে চীনের সঙ্গে আলোচনা চালাচ্ছে দিশেহারা ভারত

৩৭০ ধারা বাতিলের পর মেহবুবাকে প্রথমে দুটি সরকারি বাসস্থানে আট মাস গৃহবন্দি করে রাখা হয়। তারপর চলতি বছরের ফেব্রুয়ারিতে তাকে ফের আটক করা হয়। পরে তার বাসভবন ‘ফেয়ার ভিউ’য়ে স্থানান্তরিত করা হয়। সেই বাসভবনকেই অস্থায়ী জেলে পরিণত করা হয় এবং সেখানেই গৃহবন্দি করে রাখা হয় এই নেত্রীকে।

jachai
niet
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
niet

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: +8801703790747, +8801721978664, 02-9110584 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড