• বুধবার, ২৮ অক্টোবর ২০২০, ১৩ কার্তিক ১৪২৭  |   ২৮ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

করোনা থেকে বাঁচতে ইরানে তাঁবু স্কুল চালু

  আন্তর্জাতিক ডেস্ক

১০ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৮:৫৪
করোনা থেকে বাঁচতে ইরানে তাঁবু স্কুল চালু
শিক্ষার্থীদের তাঁবুর মধ্যে রেখে ক্লাস করানো হচ্ছে (ছবি : ইরনা)

বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের ‘জুতা আবিষ্কার’ কবিতার কথা মনে আছে নিশ্চয়ই। কীভাবে গোটা সাম্রাজ্যের ধুলো ঢাকার বদলে রাজাকে নিজের পা ঢাকার পরামর্শ দিয়েছিলেন বৃদ্ধ। তাতে আবার মন্ত্রী মশাই বলে উঠেছিলেন, ‘আমারও ছিল মনে, কেমনে বেটা পেরেছে সেটা জানতে।’

ইসলামি প্রজাতন্ত্র ইরানের স্কুল কর্তৃপক্ষ কবিগুরুর এ কবিতা কতটা জানে তা জানা নেই। তবে করোনা সঙ্কটের আবহে প্রায় এমনই এক পদক্ষেপ নিয়েছে ওই দেশের প্রশাসন।

কী করা হয়েছে? করোনা পরিস্থিতির জেরে প্রায় সাত মাস বন্ধ রাখা হয়েছিল ইরানের স্কুলগুলো। সম্প্রতি নিউ নর্মালে তা খোলা হয়েছে। আর অভিনব পন্থায় শিশুদের করানো হচ্ছে ক্লাস। শ্রেণীকক্ষে প্রত্যেক শিশুকে আলাদা তাঁবু দেওয়া হয়েছে।

আরও পড়ুন : কাশ্মীরি যোদ্ধাদের বোমায় আহত দুই ভারতীয় সেনা

এমনকি ক্লাসরুমের মেঝেতেই তা পাতা হয়েছে। তাঁবুর চারদিক স্বচ্ছ প্লাস্টিক দিয়ে ঘেরা। যার মধ্যে মাস্ক ছাড়া বসে রয়েছে ছোট্ট ছাত্ররা। এই অবস্থাতেই তাদের পড়াচ্ছেন শিক্ষকরা। টুইটারে ছবিটি শেয়ার করেছেন ফারনাজ ফসিলি নামের এক সাংবাদিক। মুহূর্তের মধ্যে তা ভাইরাল হয়ে যায়।

আরও পড়ুন : লাঠি, বর্শা, রাইফেল দিয়ে সীমান্তে চীনা বাহিনীর আক্রমণ!

করোনা সঙ্কটের আবহে এখানেও বহু দিন ধরে স্কুল-কলেজ-বিশ্ব বিদ্যালয়ের ক্লাস বন্ধ। ভার্চুয়াল ক্লাসের ভরসায় মাসের পর মাস কাটিয়ে দিয়েছেন ছাত্ররা। নতুন প্রজন্মের অনেকে অভ্যস্ত হয়ে গিয়েছে এই নিউ নর্মালে। তবে আমাদের মতো জনবহুল দেশে ভারচুয়াল ক্লাসেরও অনেক সমস্যা দেখা যাচ্ছে। অনেক জায়গায় ভার্চুয়াল ক্লাসের পরিকাঠামো এখনো নেই।

আরও পড়ুন : মহানবীকে অবমাননা করায় ফরাসি ম্যাগাজিনকে অভিশাপ খামেনির

ইরানের এই ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়তেই মিশ্র প্রতিক্রিয়ার সৃষ্টি হয়েছে। একাংশ অভিনব পন্থার প্রশংসা করেছেন, আরেকাংশ আমার শিশুদের মুখে মাস্ক না থাকায় তাদের নিরাপত্তা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন।

সূত্র : সংবাদ প্রতিদিন

jachai
niet
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
niet

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: +8801703790747, +8801721978664, 02-9110584 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড