• মঙ্গলবার, ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১৪ আশ্বিন ১৪২৭  |   ২৯ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

বিক্ষোভে উত্তাল লেবাননে আরও এক মন্ত্রীর পদত্যাগ

  আন্তর্জাতিক ডেস্ক

১০ আগস্ট ২০২০, ১৩:০৪
বিক্ষোভে উত্তাল লেবাননে আরও এক মন্ত্রীর পদত্যাগ
লেবাননে পুলিশি আগ্রাসনের শিকার বিক্ষোভরত জনতা (ছবি : বিবিসি নিউজ)

সরকারবিরোধী বিক্ষোভে উত্তাল লেবাননে আরও একজন মন্ত্রী পদত্যাগ করেছেন। বৈরুতে ভয়াবহ বিস্ফোরণে সরকারের ব্যর্থতার দায় স্বীকার করে তথ্যমন্ত্রীর পদত্যাগের কয়েক ঘণ্টা পরই পদত্যাগের ঘোষণা দিয়েছেন দেশটির পরিবেশমন্ত্রীও।

সদ্য বিদায়ী পরিবেশমন্ত্রী দামিয়ানোস কাত্তার প্রধানমন্ত্রী হাসান দিয়াবের ঘনিষ্ঠ সহযোগী হিসেবে পরিচিত ছিলেন। তাকে মন্ত্রিসভায় ধরে রাখতে প্রধানমন্ত্রীর জোর প্রচেষ্টা সত্ত্বেও সিদ্ধান্ত বদলাতে রাজি হননি প্রভাবশালী এ রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব।

এর আগে বিক্ষোভের মধ্যেই পদত্যাগের ঘোষণা দেন তথ্যমন্ত্রী মানাল আবদেল সামাদ। রবিবার (৯ আগস্ট) রাষ্ট্রীয় টেলিভিশনে সম্প্রচারিত এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি নিজের পদত্যাগপত্র জমা দেওয়ার ঘোষণা দেন।

সংবাদ সম্মেলনে মানাল আবদেল সামাদ জানান, জনগণের পরিবর্তনের ডাকে সাড়া দিয়ে তিনি পদত্যাগপত্র জমা দিয়েছেন। তিনি বলেন, বৈরুতে বিশাল বিপর্যয়ের পর আমি সরকার থেকে পদত্যাগ করেছি। আমি লেবাননের জনগণের কাছে ক্ষমা চাই। আমরা তাদের প্রত্যাশা পূরণ করতে পারিনি।

আরও পড়ুন : সীমান্তে চীনের ১৫ হাজার সেনা, উদ্বিগ্ন ভারত

২০২০ সালের ৪ আগস্ট বিকালে লেবাননের রাজধানী বৈরুতের বন্দর এলাকায় জোড়া বিস্ফোরণ ঘটে। এতে পুরো বৈরুত শহর ভূমিকম্পের মতো কেঁপে উঠে। ইন্টারনেটে ছড়িয়ে পড়া বিভিন্ন ভিডিওতে দেখা যায়, বৈরুতের বন্দর এলাকা থেকে বড় গম্বুজ আকারে ধোঁয়া উড়ছে। এর কিছুক্ষণের মধ্যে বিকট বিস্ফোরণে গাড়ি ও স্থাপনা উড়ে যেতে দেখা যায়।

আরও পড়ুন : চাঞ্চল্যকর তথ্য ফাঁস, কানাডাতেও ঘাতক বাহিনী পাঠিয়েছেন সালমান

সরকারি হিসাবে, বিস্ফোরণে এখন পর্যন্ত অন্তত ১৫৮ জন নিহত হয়েছে। আহত হয়েছে ৫ হাজার মানুষ। ক্ষতি হয়েছে শত শত কোটি ডলারের। ঘটনার কারণ নির্ণয়ে তদন্ত কমিটিকে চার দিনের সময় বেঁধে দিয়েছে কর্তৃপক্ষ।

আরও পড়ুন : তালিবান বন্দিদের মুক্তি দিতে চায় আফগান পার্লামেন্ট

প্রাথমিকভাবে বিস্ফোরক সামগ্রীর বিশাল মজুত থেকে এ বিস্ফোরণ ঘটেছে বলে প্রতীয়মান হচ্ছে। কর্মকর্তারাও একই রকমের তথ্য দিয়েছেন। তবে শুক্রবার এক বিবৃতিতে লেবাননের প্রেসিডেন্ট মাইকেল আউন বলেছেন, ঘটনার প্রকৃত কারণ এখন পর্যন্ত জানা যায়নি। রকেট বা বোমা কিংবা অন্য কোনও ভাবে বাইরে থেকে হস্তক্ষেপের আশঙ্কাও উড়িয়ে দেওয়া যাচ্ছে না।

আরও পড়ুন : গাজায় ভয়াবহ বিমান হামলা চালিয়েছে ইসরায়েল

৪ আগস্টের ভয়াবহ ওই বিস্ফোরণের ঘটনায় ক্ষোভে ফুঁসছে লেবানন। রাজপথে নেমে সরকারের বিরুদ্ধে অনাস্থার জানান দিচ্ছে জনগণ। ভয়াবহ ওই বিস্ফোরণের জন্য সরকারের অব্যবস্থাপনাকেই দায়ী করছে তারা। এরই মধ্যে সংকট উত্তরণে আগামী ১০ বছরের জন্য লেবাননের কর্তৃত্ব ফ্রান্সের হাতে তুলে দেওয়ার দাবিতে একটি পিটিশন খোলা হয়েছে। ইতোমধ্যে এতে স্বাক্ষর করেছেন প্রায় ৬০ হাজার মানুষ।

আরও পড়ুন : ভুলে নিজেদের ড্রোন ভূপাতিত করল ইসরায়েল

এমন পরিস্থিতিতে শনিবার (৮ আগস্ট) আগাম নির্বাচনের ডাক দেন দেশটির প্রধানমন্ত্রী হাসান দিয়াব। এর একদিনের মাথায় রবিবার পদত্যাগের ঘোষণা দেন সরকারের প্রভাবশালী দুই মন্ত্রী।

সূত্র : আল-জাজিরা

jachai
niet
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
niet

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: +8801721978664

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড