• বুধবার, ১২ আগস্ট ২০২০, ২৮ শ্রাবণ ১৪২৭  |   ৩১ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

এক ফুড ডেলিভারি বয়ের জন্যই ফের করোনার থাবা চীনে!

  আন্তর্জাতিক ডেস্ক

২৪ জুন ২০২০, ১৩:৪৬
এক ফুড ডেলিভারি বয়ের জন্যই ফের করোনার থাবা চীনে!
ফুড ডেলিভারি বয় (ছবি : প্রতীকী)

টানা মাস খানেকের মতো চীনে কোনো করোনার সংক্রমণ ছিল না। এতে কিছুটা হলেও স্বস্তি ফিরেছিল জনজীবনে। কিন্তু আচমকা করোনা সংক্রমণের দ্বিতীয় ঢেউয়ের প্রমাদ গুনতে শুরু করেছে চীন। আর এর পেছনে এক ফুড ডেলিভারি বয়কে দায়ী বলে ধারণা করা হচ্ছে।

দেশটির ন্যাশনাল হেলথ কমিশনের রিপোর্ট বলছে, মঙ্গলবারই (২৩ জুন) আরও ২৯ জনের শরীরে নতুন করে করোনা সংক্রমণ ধরা পড়েছে। এর মধ্যে রাজধানী বেইজিংয়ে আছেন ১৩ জন। এই দ্বিতীয় ঢেউয়ের পেছনে সম্ভবত খাবার সরবরাহকারী এক যুবক দায়ী। বেইজিংয়ের জনপ্রিয় ফুড প্ল্যাটফর্মের ওই ডেলিভারি বয় থেকেই সংক্রমণ ছড়িয়ে পড়েছে বলে মনে করছে প্রশাসন।

এর আগে সোমবার (২২ জুন) পর্যন্ত ৯৯ জন করোনা আক্রান্তের খোঁজ মেলে। তাদের অবশ্য কোনো উপসর্গ নেই। তবে তাদের পর্যবেক্ষণে রাখা হয়েছে। কয়েক দিন আগেই চীনের ন্যাশনাল হেলথ কমিশন জানিয়েছিল, করোনা ভাইরাস সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণে। ঠিক তার পরেই দেশটির জনপ্রিয় ফুড ডেলিভারি প্ল্যাটফর্ম এলি ডট মি এর ডেলিভারি বয়ের করোনা ধরা পড়ে। তারপরেই বেইজিংয়ে একের পর এক আক্রান্তের খোঁজ মিলতে শুরু করেছে।

চীনা সংবাদপত্র গ্লোবাল টাইমসের খবর অনুযায়ী, বেইজিং প্রশাসনের অনুমান, ৪৭ বছর বয়সী ওই ডেলিভারি বয় ১ জুন থেকে ১৭ জুনের মধ্যে বেইজিংয়ের বিস্তীর্ণ এলাকায় খাবার ডেলিভারি করেন। ফুড ডেলিভারি বয় থেকে করোনা সংক্রমণ বেইজিংয়ে এই প্রথম। ওই করোনা আক্রান্ত ব্যক্তি গড়ে প্রতিদিন ৫০টি অর্ডার ডেলিভারি করেছেন গত কয়েক সপ্তাহে। যেসব বাড়িতে ওই ডেলিভারি বয় খাবার ডেলিভারি করেছেন, সেই সব পরিবারগুলিকে চিহ্নিত করে কোয়ারেন্টিনে রাখা হচ্ছে।

আরও পড়ুন : করোনার মধ্যেই চীনে ফের শুরু কুকুর খাওয়ার উৎসব!

এই ঘটনার পরই ওই প্রতিষ্ঠান তাদের সব কর্মীর করোনা পরীক্ষা শুরু করেছে। যদিও করোনা ভাইরাস সংক্রমণ এখনো নিয়ন্ত্রণে আছে বলেই দাবি মিউনিসিপ্যাল গভর্নমেন্টের মুখপাত্র শু হেজিয়াংয়ের।

jachai
nite
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
jachai

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: 02-9110584, +8801907484800

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড