• বুধবার, ১৯ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ৬ ফাল্গুন ১৪২৬  |   ২৩ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

মার্কিন সেনাদের বেকায়দায় ফেলতে একজোট ইরান-সিরিয়া

  আন্তর্জাতিক ডেস্ক

১৩ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ১৬:২৪
মার্কিন সেনা
মার্কিন সেনা (ছবি : রয়টার্স)

সিরিয়ায় নতুন করে উত্তেজনা তৈরি হয়েছে। যুক্তরাষ্ট্র তাদের স্বার্থ হাসিলের জন্য অভিযান চালাচ্ছে তেলসমৃদ্ধ দেশটিতে। তাদের সঙ্গে যুক্ত হয়েছে ইসরায়েলি বাহিনী। অন্যদিকে ইসরায়েল ও যুক্তরাষ্ট্রের বিরুদ্ধে লড়াই করতে ইরানের সহায়তা চেয়েছে সিরিয়া সরকার। ইরানও সিরিয়ার জনগণের স্বার্থ রক্ষায় সব ধরনের সহায়তা প্রদানের আশ্বাস দিয়েছে।

বুধবার (১২ ফেব্রুয়ারি) মার্কিন সেনারা সিরিয়ার উত্তর-পশ্চিমাঞ্চলের কুর্দি অধ্যুষিত কামিশলি শহরে হামলা চালিয়েছে। এতে একজন বেসামরিক নাগরিক নিহত হয়েছে। আর এর জবাবে সিরিয়ার বেসামরিক লোকজন মার্কিন সেনাদের গাড়িবহরে হামলা চালিয়েছে। মার্কিনিদের চারটি গাড়িতে ভাঙচুর করেছে তারা। শেষ পর্যন্ত মার্কিন সেনারা তাদের ঘাঁটিতে ফিরেছে নতুন গাড়ি এনে। এতে স্পষ্ট যে, সিরিয়ার বেসামরিক লোকজন মার্কিন সেনাদের ওপর বেশ ক্ষুব্ধ।

অন্যদিকে সিরিয়ায় বড় ধরনের হামলা চালানোর ইঙ্গিত দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্রের মিত্র ইসরায়েল। ইতোমধ্যে বেশ কয়েকবার হামলাও চালিয়েছে তারা। ইসরায়েলের সমর্থন পেলে স্বাভাবিকভাবেই যুক্তরাষ্ট্রের শক্তি বাড়বে।

এমন পরিস্থিতিতে ইরানের সাহায্য চেয়েছে সিরিয়া সরকার। এ বিষয়ে ইরানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র সাইয়্যেদ আব্বাস মুসাভি বলেছেন, সিরিয়ার সেনারা আমেরিকা ও ইসরায়েলি বাহিনীর বিরুদ্ধে লড়ছে। এ লড়াইয়ে দেশটির সরকার ইরানের সাহায্য চেয়েছে। আমরা তাদের সব ধরনের সহায়তা দেব।

আরও পড়ুন : ইরানি ক্ষেপণাস্ত্রের সামনে টিকতে পারবে না মার্কিন যুদ্ধবিমান

তিনি আরও বলেছেন, যুক্তরাষ্ট্রের নজর সিরিয়ার তেলের দিকে। নিজেদের উদ্দেশ্য হাসিলের জন্য তারা যে কোনো কিছুই করতে পারে। কিন্তু আমরা সেটা সহ্য করব না। সিরিয়ায় তাদের এমন অবস্থায় ফেলব, যাতে তারা পালাতে বাধ্য হয়।

সূত্র- মিডল ইস্ট মনিটর, আল-জাজিরা।

ওডি/এসসা

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: 02-9110584, +8801907484800

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড