• রোববার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১২ আশ্বিন ১৪২৭  |   ২৮ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

আসামের এনআরসি তালিকা গায়েব

  আন্তর্জাতিক ডেস্ক

১২ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ১৫:৪০
আসামের এনআরসি তালিকা গায়েব
আসামের এনআরসি (ছবি : প্রতীকী)

আসামের বিতর্কিত নাগরিকত্ব সংশোধনী বিলের (এনআরসি) তালিকা আচমকা ওয়েবসাইট থেকে গায়েব হয়ে গেছে। গত বছর রাজ্যটির নাগরিক পঞ্জি প্রকাশিত হওয়ার পর ভারতীয় সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশে তালিকাটি জনসাধারণের জন্য উন্মুক্ত করা হয়।

যদিও দেশটির স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় বলছে, কারিগরি ত্রুটির কারণেই এনআরসি তালিকাটি ওয়েবসাইট থেকে গায়েব হয়ে গেছে।

সংবাদমাধ্যম এনডিটিভি জানিয়েছে, আসামের নাগরিক পঞ্জির তথ্যকে তালিকা আকারে প্রকাশ করার দায়িত্ব সম্প্রতি আইটি ফার্ম উইপ্রোকে দেওয়া হয়েছিল। তাই ঘটনাটির পর উইপ্রোর সঙ্গে চুক্তি ছিন্ন কর‍তে চাইছে এনআরসির কাজে সম্পৃক্ত কর্মকর্তারা। যদিও বিষয়টির জন্য এরই মধ্যে ক্ষমতাসীন মোদী সরকারের দিকেই আঙুল তুলছে বিরোধী দল কংগ্রেস। তাদের ধারণা, বিশেষ কোনো অভিসন্ধি থেকেও কাজটি হতে পারে।

এ দিকে বুধবার (১২ ফেব্রুয়ারি) রাজ্যের এনআরসি সমন্বয়ক হিতেশ দেব শর্মা বিবৃতির মাধ্যমে জানিয়েছেন, এনআরসির এসব তথ্য ওয়েবসাইটে প্রকাশের দায়িত্বে ছিল উইপ্রোর। মূলত তাদের সঙ্গে গত বছরের ১৯ অক্টোবর পর্যন্ত চুক্তি হয়েছিল। যদিও চলতি বছর তাদের সঙ্গে আর কোনো চুক্তি নবায়ন করা হয়নি। এসব কারণেই হয়তো তথ্যগুলো গত ১৫ ডিসেম্বর থেকে অফলাইনে চলে যায়।

অপর দিকে ঘটনাটির পর বিবৃতির মাধ্যমে দুঃখ প্রকাশ করেছে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়। তারা জানায়, সমস্যাটি সমাধানের লক্ষ্যে কাজ চলছে। অল্প সময়ের মধ্যেই তা ঠিক হয়ে যাবে।

এর আগে চলতি বছরের ৩১ আগস্ট আসামের চূড়ান্ত নাগরিক তালিকা (এনআরসি) প্রকাশের মাধ্যমে রাষ্ট্রহীন করা হয়েছে অন্তত ১৯ লাখ ৬ হাজার ৬৫৭ বাঙালিকে। যেখানে আগের তালিকায় বাদ দেওয়া হয়েছিল প্রায় ৪০ লাখ বাসিন্দাকে। যাদের মধ্যে অধিকাংশই হিন্দু। তাছাড়া এতে স্বীকৃতি মিলেছে প্রায় ৯ কোটি ১১ লাখ লোকের।

আরও পড়ুন : অমিত শাহ নিখোঁজ!

যদিও এই তালিকা থেকে বাদ পড়াদের নিয়ে এবার আসাম তো বটেই, গোটা ভারত এমন কি প্রতিবেশী বাংলাদেশ পর্যন্ত মোদী সরকারের দিকে তাকিয়ে আছে।

ওডি/কেএইচআর

jachai
niet
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
niet

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: 02-9110584, +8801907484800

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড