• বুধবার, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২০, ৮ আশ্বিন ১৪২৭  |   ৩১ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

সোলাইমানি চাইলেই মার্কিন জেনারেলদের হত্যা করতে পারতেন : রুহানি

  আন্তর্জাতিক ডেস্ক

১১ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ১৬:২০
সোলাইমানি চাইলেই মার্কিন জেনারেলদের হত্যা করতে পারতেন
ইরানের প্রেসিডেন্ট হাসান রুহানি (ছবি : তেহরান টাইমস)

জেনারেল কাসেম সোলাইমানি চাইলে সহজেই মার্কিন জেনারেলদের হত্যা করতে পারতেন বলে দাবি করেছেন ইরানের প্রেসিডেন্ট হাসান রুহানি। তিনি বলেছেন, ইসলামি প্রজাতন্ত্রের ওপর মার্কিনিরা কথিত ‘সর্বোচ্চ চাপ’ প্রয়োগ নীতিতে পুরোপুরি ব্যর্থ হয়েছে।

তুর্কি বার্তা সংস্থা আনাদোলু এজেন্সি জানিয়েছে, সোমবার (১০ ফেব্রুয়ারি) ইসলামি বিপ্লবের ৪১তম বিজয়বার্ষিকী উপলক্ষে রাজধানী তেহরানে আয়োজিত সমাবেশে বিদেশি কূটনীতিকদের সামনে তিনি কথাগুলো বলেন।

প্রেসিডেন্ট রুহানি বলেছিলেন, তেহরানের বিরুদ্ধে ওয়াশিংটনের আরোপিত নিষেধাজ্ঞা সম্পূর্ণ অমানবিক, অপরাধমূলক ও ইরানি জনগণের বিরুদ্ধে যা একটি সন্ত্রাসী পদক্ষেপ।

বিদেশি কূটনীতিকদের উদ্দেশে রুহানি বলেন, ইরানের ইতিহাস, সভ্যতা ও সংস্কৃতির সঙ্গে যাদের ন্যূনতম পরিচয় আছে তারা কিছুটা হলেও এ দেশ সম্পর্কে জানেন। আমাদের জনগণ বলপ্রয়োগ, অন্যায় আচরণ ও চাপ প্রয়োগের কাছে কখনোই মাথা নত করবে না।

প্রয়াত সোলাইমানি ইস্যুতে প্রেসিডেন্ট রুহানি বলেছিলেন, তিনি (সোলাইমানি) চাইলে খুব সহজেই যুক্তরাষ্ট্রের জেনারেলদের নির্মূল করতে পারতেন। তবে তিনি এ অঞ্চলে স্থিতিশীলতা ও শান্তির সন্ধানে থাকায় তা কখনোই করেননি।

এর আগে ৩ জানুয়ারি ভোরে ইরাকের বাগদাদ শহরের বিমানবন্দরে মার্কিন বিমান হামলায় ইরানি জেনারেল কাসেম সোলাইমানি নিহত হন। প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের নির্দেশে চালানো সেই অভিযানে তেহরান সমর্থিত পপুলার মবিলাইজেশন ফোর্সেসের (পিএমএফ) উপপ্রধান আবু মাহদি আল-মুহান্দিসসহ বাহিনীর বেশ কয়েকজন সদস্য প্রাণ হারান।

সোলাইমানি হত্যার প্রতিশোধ হিসেবে গত ৮ জানুয়ারি ভোররাতে ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালায় ইরান। হামলাটির পরপরই তেহরান দাবি করে, এবার ৮০ জন মার্কিন সেনা নিহত হয়েছেন। তবে যুক্তরাষ্ট্রের পক্ষ থেকে কোনো সেনা হতাহত হয়নি বলে তাৎক্ষণিকভাবে জানানো হয়।

এরপর ধারণা করা হচ্ছিল, ইরানের বিরুদ্ধে কঠিন কোনো পদক্ষেপই হয়তো নেবেন ট্রাম্প। যদিও বাস্তবে তা ঘটেনি। মার্কিন প্রেসিডেন্ট ইরানকে আলোচনার প্রস্তাব দিয়েছেন।

আরও পড়ুন : মধ্যপ্রাচ্যের বীরদের সন্ত্রাসী বলা যাবে না

উল্লেখ্য, আলোচনার প্রস্তাব দেওয়ার পরও যুক্তরাষ্ট্র ও ইরানের মধ্যে এখনো উত্তেজনা বিরাজ করছে।

ওডি/কেএইচআর

jachai
niet
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
niet

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: 02-9110584, +8801907484800

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড