• বৃহস্পতিবার, ২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ১৪ ফাল্গুন ১৪২৬  |   ১৮ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

মান বাঁচাতে ইরাক ত্যাগের পথ খুঁজছে মার্কিন সেনারা

  আন্তর্জাতিক ডেস্ক

২৬ জানুয়ারি ২০২০, ১৫:৩১
মার্কিন সেনা
ইরাকে মোতায়েন মার্কিন সেনা (ছবি : রয়টার্স)

জেনারেল কাসেম সোলাইমানি হত্যার জেরে তৈরি হওয়া পরিস্থিতিতে মার্কিন সেনারা সম্মানজনক উপায়ে ইরাক ত্যাগের চেষ্টা করছেন বলে মন্তব্য করেছেন সাবেক ব্রিটিশ রাষ্ট্রদূত পিটার ফোর্ড।

শনিবার (২৫ জানুয়ারি)  প্রেস টিভিকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে পিটার ফোর্ড এ মন্তব্য করেন।

গত ৩ জানুয়ারি বাগদাদে মার্কিনিদের ড্রোন হামলায় নিহত হন ইরানের সর্বোচ্চ সামরিক কর্মকর্তা জেনারেল কাসেম সোলাইমানি ও ইরাকি কমান্ডার আবু মাহদি আল মুহান্দিস। এই হত্যাকাণ্ডের দুই দিনের মাথায় গত ৫ জানুয়ারি মার্কিন সেনা প্রত্যাহারের ব্যাপারে প্রস্তাব পাস করে ইরাকের পার্লামেন্ট।

এরপর থেকেই ইরানসহ আরও বেশ কয়েকটি দেশ মধ্যপ্রাচ্য থেকে মার্কিন সেনা প্রত্যাহারের ব্যাপারে দাবি জানানো শুরু করে। এমন পরিস্থিতিতে মার্কিন সেনা প্রত্যাহারের দাবিতে গত শুক্রবার (২৪ জানুয়ারি) রাজধানী বাগদাদে শিয়া আলেম মুক্তাদা আল সাদরের ডাকে অন্তত ২৫ লাখ মানুষের বিক্ষোভ-সমাবেশ হয়েছে।

এসব বিষয়ের দিকে ইঙ্গিত করে প্রেস টিভিকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে পিটার ফোর্ড বলেন, ইরাকের জাতীয় সংসদে সুস্পষ্ট সংখ্যাগরিষ্ঠতার ভিত্তিতে মার্কিন সেনা প্রত্যাহারের প্রস্তাব পাস হয়েছে। মার্কিন সরকার সবসময় গণতন্ত্রের কথা বলে। আর যেসব দেশে সত্যিকারের সংসদ নেই তাদের সমালোচনা করে। সে ক্ষেত্রে ইরাকের সংসদে পাস হওয়া এই প্রস্তাবকে তারা লঙ্ঘন করতে পারবে না। যদি মার্কিনিরা ইরাকের সংসদের প্রস্তাবকে উপেক্ষা করে তাহলে প্রকৃতপক্ষে তারা গণতন্ত্রকেই অপমান করবে।

আরও পড়ুন : সেনা নিহতের খবর অস্বীকার করেছেন ট্রাম্প : বাইডেন

সাক্ষাৎকারে সাবেক এই ব্রিটিশ রাষ্ট্রদূত আরও বলেন, ইরাকের বেশিরভাগ মানুষ তাদের দেশে মার্কিন সেনাদের উপস্থিতি দেখতে চায় না। এটা তাদের জন্য অসম্মানের ব্যাপার। আমার মনে হয়, মার্কিন সেনারা এখন মুখ রক্ষার চেষ্টা করছে। আর নিজেদের সম্মান বাঁচিয়ে ইরাক থেকে বেরিয়ে যাওয়ার কথা ভাবছে।

ওডি/এসসা

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: 02-9110584, +8801907484800

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড