• সোমবার, ১৪ অক্টোবর ২০১৯, ২৯ আশ্বিন ১৪২৬  |   ২৭ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

টি ব্যাগে ভরসা? খাচ্ছেন ১১০০ কোটি প্লাস্টিক কণা!

  স্বাস্থ্য ডেস্ক

২৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ১২:০৪
টি ব্যাগ
ছবি : প্রতীকী

চা বানানোর কষ্ট অনেকটাই লাঘব হয়ে গেছেন এখন। অনেকক্ষণ সময় নিয়ে চা বানানোর প্রয়োজন পড়ে না এখন আর। গরম পানিতে টি ব্যাগ দিলেই হলো। দ্রুত চা তৈরি। বিশেষ করে, সকাল বেলা তাড়াহুড়ায় কাজের ফাঁকে চা পান করার জন্য বেশিরভাগ মানুষই ভরসা করেন টি ব্যাগে। 

আপনারও কি এমন অভ্যাস রয়েছে? যদি উত্তর হ্যাঁ হয়ে থাকে, তবে সাবধান হওয়ার সময় এখনই। কারণ এই টি ব্যাগের আড়ালেই পেটে ঢুকছে বহু প্লাস্টিক কণা। সম্প্রতি, কানাডার মন্ট্রিলের ম্যাকগিল বিশ্ববিদ্যালয়ের একদল গবেষকের গবেষণার ফল এমনটাই জানাচ্ছে। 

গবেষণার প্রকাশিত রিপোর্ট বলছে, ফুটন্ত পানিতে যখন টি ব্যাগ ডোবানো হয় তখন লাখ লাখ প্লাস্টিকের কণা বের হয়। আর চা পানের মাধ্যমে তা শরীরে প্রবেশ করে। ফুটন্ত পানি তাপমাত্রায় ওই সব প্লাস্টিক কণার সক্রিয়তা বেড়ে যায়। 

ম্যাকগিল বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষকরা এই গবেষণা কাজে চার ধরনের টি ব্যাগ ব্যবহার করেছেন। এদের প্রতিটিতেই প্লাস্টিকের উপস্থিতি দেখা গেছে। আমেরিকান কেমিক্যাল সোসাইটি জার্নাল এনভায়রনমেন্টাল সায়েন্স অ্যান্ড টেকনোলজিতে গবেষণাপত্রটি প্রকাশিত হয়েছে। 

কিন্তু হঠাৎ করে কেন টি ব্যাগ নিয়ে গবেষণা করলেন বিজ্ঞানীরা। কাহিনীর সূত্রপাত হয় বছর কয়েক আগে। রাতে কাজে যাওয়ার আগে নাতালি তুফেনকেজি নামের কানাডার একজন নারী রাস্তার পাশে একটি ক্যাফেতে গিয়ে এক কাপ চায়ের অর্ডার দেন। সেখানে তাকে টি ব্যাগ সমেত চা পরিবেশন করা হয়। 

চায়ে চুমুক দিতে গিয়ে তিনি দেখেন সাদা সাদা গুঁড়ো ভাসছে। প্রথম বুঝতে না পারলেও কেমিক্যাল ইঞ্জিনিয়ার হওয়ার সুবাদে নাতালি পরে টের পান যে ভাসমান সাদা গুঁড়োগুলো আসলে প্লাস্টিকের সূক্ষ্ম কণা। তখনই তার মনে আশঙ্কা জাগে। চায়ের আড়ালে আমাদের শরীরে কতটা প্লাস্টিক প্রবেশ করছে তা জানা দরকার। 

সেখান থেকেই শুরু। ওই চায়ের নমুনা সংগ্রহ করে তিনি যোগাযোগ করেন ম্যাকগিল বিশ্ববিদ্যালয়ের সঙ্গে। শুরু করেন গবেষণা। আর তাতে যে তথ্য বেরিয়ে আসে তা আসলেই চিন্তার বিষয়। 

জানা গিয়েছে, ১১০০ কোটি মাইক্রোপ্লাস্টিক এবং ৩০০ কোটি ন্যানোপ্লাস্টিক কণা থাকে একটি টি ব্যাগেই। সবচেয়ে ভয়ের ব্যাপার হলো এর কিছুই খালি চোখে দেখা যায় না। এমনকি মাইক্রোস্কোপেও এর অস্তিত্ব পুরোপুরি ধরা পড়ে না। যার ফলে বিপদ টের পাওয়ার আগেই তা দেহের ভেতর চলে যাচ্ছে। 

চটজলদি চা পান করতে কি টি ব্যাগে ভরসা রাখছেন? এবার তবে একটু ভাবার সময় হয়েছে। সময় থাকতে সচেতন হোন। না হয়, প্লাস্টিক খাওয়ায় মারাত্মক স্বাস্থ্য ঝুঁকিতে পড়বেন আপনি। 

ওডি/এনএম 

স্বাস্থ্য-ভোগান্তি, নতুন পরিচিত অসুস্থতার কথা জানাতে অথবা চিকিৎসকের কাছ থেকে স্বাস্থ্য সংক্রান্ত পরামর্শ পেতেই-মেইলকরুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব এবং সংশ্লিষ্ট স্বাস্থ্য সমস্যার পরামর্শ দেবার প্রচেষ্টা থাকবে আমাদের।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: মো: তাজবীর হুসাইন

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: ০২-৯১১০৫৮৪

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড