• বুধবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ৩ আশ্বিন ১৪২৬  |   ২৮ °সে
  • বেটা ভার্সন

মিষ্টি এক লাজুক পাখি ‘বউ কথা কও’

  ফিচার ডেস্ক

০২ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০৯:৫২
বউ কথা কও পাখি
বউ কথা কও পাখি; (ছবি- ইন্টারনেট)

নামের মাঝেই লুকিয়ে আছে কিছুটা সুর, কিছুটা লজ্জা। যেন কেউ ভীষণ আবদার করে ডাকছে তাকে। বলছিলাম গ্রীষ্মের প্রজনন পরিযায়ী পাখি ‘বউ কথা কও’ এর কথা। অবশ্যই ‘ভারতীয় কোকিল’ নামেও অনেকে চেনেন একে। প্রাণিজগতের মিষ্টি এ পাখি নিয়েই আমাদের আজকের আয়োজন- 

বাংলাদেশের বনে বাদাড়ে খোঁজ মেলে বউ কথা কও পাখির। এছাড়াও ভারতীয় উপমহাদেশ, দক্ষিণ পূর্ব এশিয়া, চীন, জাপান, কোরিয়া ও রাশিয়াতেও রয়েছে তার বিচরণ। 

একাকী, নিভৃতচারী আর লাজুক পাখি হিসেবে পরিচিত এই পাখি। বনাঞ্চলসহ উন্মুক্ত গাছ-গাছালিপূর্ণ এলাকা থেকে শুরু করে ৩,৬০০ মিটার উঁচুতেও এদের উড়তে দেখা যায়। 

প্রায় ৩০ থেকে ৩৫ সেন্টিমিটার লম্বা হয় বউ কথা কও পাখি। ওজন হয় ১২০-১৩০ গ্রাম। দেখতে একই রকম হলেও স্ত্রী-পুরুষ ভেদে পালকের রঙে রয়েছে অল্প কিছু ভিন্নতা। প্রাপ্তবয়স্ক পুরুষ পাখির দেহের ওপরের অংশ হয়ে থাকে ধূসর বাদামি। গলা আর বুকের ওপরের ওংশ হয় বাদামি ছাই রঙা। এদের লেজ হয় চওড়া আর কালচে ডোরা সমৃদ্ধ।

অন্যদিকে স্ত্রী পাখির গলা হয় ফিকে ধূসর। বুকের শেষ দিকটায় থাকে লালচে পীতাভ ছোঁয়া। চোখের মণি হালকা বাদামি থেকে লোহিত আকারের হয়ে থাকে। ঠোঁট হয় কালো। পা, আঙুল ও নখ হলুদ।

স্ত্রী বউ কথা কও চেনার সহজ উপায় হলো, পুরুষের তুলনায় এদের গলা, বুক ও লেজের দিক হালকা ধূসর বর্ণের হয়ে থাকে। পেটের অংশটুকু হয় সরু। এরা কখনো একা, কখনো জোড়ায় বিচর করে। ঘাসফড়িং, উইপোকা, শুঁয়োপোকা, পঙ্গপাল, ফল, গিরগিটি ইত্যাদি এ পাখির খাবার। 

এরা ‘বুকো-টাকো-বুকো-টাকো…’ স্বরে ডাকে। আনমনে শুনলে যাকে ‘বউ কথা কও’ মনে হয়। আর তাইতো এই পাখির নাম এটি। 

উচ্চস্বরে সুর করে ডাকতে পারে ‘বউ কথা কও’ পাখিটি। তাদের বিভিন্ন ডাকের মধ্যে চারটি বোল শনাক্ত করা হয়ে থাকে, এগুলো হলো- অরেঞ্জ-পিকো, বুকো-টাকো-বুকো-টাকো, ক্রসওয়ার্ড পাজল বা ওয়ান মোর বোটল। 

অঞ্চলভেদে সুরের ভিন্নতা তেমন একটা হয় না। ‘বুকো-টাকো-বুকো-টাকো...’ স্বরকেই বাংলাদেশে আঞ্চলিকভাবে ‘বউ কথা কও নামে অভিহিত করা হয়। চীনে এই সুরটির মাধ্যমে শেষ থেকে জেগে ওঠাকে নির্দেশ করে। ভারতের কাঙ্গরা উপত্যকায় পাখির ডাককে হোয়ার ইজ মাই শিপ নামে শোনা যায়, যার অর্থ হচ্ছে মৃত রাখালের আত্মা।

পরজীবী পাখি হিসেবে পরিচিত বউ কথা কও। স্ত্রী পাখিটি কেবল একটি ডিম পাড়ে। ফিঙে আর কাকের ন্যায় এ পাখিও কালো পাখির বাসায় ডিম পেড়ে উধাও হয়ে যায়। আর ডিম পাড়ার আগে ফিঙে বা কাকের একটি ডিম খেয়ে ফেলে কিংবা নিচে ফেলে দেয়। 

আপনি কি কখনো বউ কথা কও পাখি দেখেছেন? তার সুরে মুগ্ধ হয়েছেন? 

ওডি/এনএম 

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: মো: তাজবীর হুসাইন

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: ০২-৯১১০৫৮৪

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড