• মঙ্গলবার, ০৪ আগস্ট ২০২০, ২০ শ্রাবণ ১৪২৭  |   ২৯ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

অক্সালিস : পাতাজুড়ে একরাশ মুগ্ধতা

০৪ জুলাই ২০১৯, ১৩:১৬
অক্সালিস
মুগ্ধতা ছড়ানো অক্সালিস; (ছবি- ইন্টারনেট)

‘অক্সালিস ট্রায়াঙ্গুলিস’— শব্দ দুটো শুনেই আপনার ভাবনার দরজায় ভিড় জমাবে জটিল জটিল সব রাসায়নিক যৌগের নাম। পড়াটাই স্বাভাবিক। রসায়নের বইতে আমরা অক্সালিক অ্যাসিডের নাম পড়েছিলাম। তার সঙ্গে কিছুটা মিল রয়েছে বৈ কি। কারও কারও আবার মনে পড়ে যেতে পারে রহস্যময় বারমুডা ট্রায়াঙ্গলের কথা। কিন্তু আপনার ভাবনায় খানিকটা জল ঢেলে যদি জানাই এটি একটি গাছের নাম, তবে কি অবাক হবেন?

রক্তবর্ণ বেগুনি রং মেশানো পাতা বিশিষ্ট এই গাছটি বেশিরভাগ সময়ই জায়গা করে নেয় বাড়ির অন্দরমহল কিংবা বারান্দায়। ফলস শ্যামরক, বেগুনি শ্যামরক কিংবা ভালোবাসা গাছ হিসেবে রয়েছে তার সুপরিচিতি।

গাছের ফুল আমাদের মুগ্ধ করে, ফুলকে ঘিরে নানা জল্পনা-কল্পনাও থাকে। কিন্তু অক্সালিসের বেলায় আপনার মুগ্ধতা এসে ঠেকবে এর পাতায়। গাঢ় বেগুনি আর লাল মেশানো এই পাতার রং অনেকটা আমাদের পরিচিত সবজি বিটরুটের মতো। একটি ডাঁট থেকে বের হয় তিনটি পাতা। অর্থাৎ তিনটি সুবিন্যস্ত পাতা মিলে একটি পাতা গঠিত হয়। এই পাতাগুলোর প্রত্যেকটির আঁকারই ভালোবাসা বা হার্টের মতো। এ কারণেই সম্ভবত একে ভালোবাসা গাছ বলা হয়।

এ যেন এক ঝাঁক প্রজাপতি; (ছবি- ইন্টারনেট)

আপনি যদি শৈল্পিক মনের অধিকারী হয়ে থাকেন তবে এই পাতাগুলোর প্রত্যেকটিকেই এক একটি প্রজাপতি মনে হবে। দেখে মনে হবে যেন তিনটি প্রজাপতি এক জায়গায় নাক মিলিয়ে বসে আছে। এজন্য একে প্রজাপতি গাছও বলেন অনেকে। আপনার ঘরে যদি অক্সালিস গাছ থাকে তবে হালকা হাওয়ার দোলায় মনে হবে এক ঝাঁক প্রজাপতি ডানা ঝাঁকাচ্ছে।

এই গাছটির অন্য প্রজাতি রয়েছে। তাদের পাতার রং হয় সবুজ। অনেক বাসার ব্যালকনি বা বাড়ির সদর দরজার পাশের মাটিতে এদের দেখা মেলে।

অক্সালিসকে আপনি জাদুর গাছ বললেও ভুল হবে না। কারণ, এটি মরে গিয়েও নিজেকে আবার বাঁচাতে পারে! অন্য গাছেরা যেখানে মরে মাটির সঙ্গে মিশে যায় যেখানে অক্সালিস মাটির সাথে মিশে ছোট ছোট বাল্ব উৎপন্ন করে যা থেকে পুনরায় তার জন্ম হয়।

অক্সালিসের একটি পাতা দেখতে যেমন; (ছবি- ইন্টারনেট)

পাতাবাহার ধাঁচের এই গাছটি বেশ আদুরে স্বভাবের। সেসঙ্গে অভিমানীও বটে। পানি দিতে ভুলে যাওয়া কিংবা অতিরিক্ত পানি দেওয়া, অতিরিক্ত তাপমাত্রা কিংবা নিম্ন তাপমাত্রা কোনোটাই পছন্দ না তার। আর অপছন্দের কিছু তার সঙ্গে ঘটলেই অভিমানে মৃতদের খাতায় নাম লেখায় ছোট গাছটি। আবার ঠিকমতো আদর যত্ন করলে অর্থাৎ তার পছন্দের পরিবেশ আঁচ করতে পারলে পুরনো অভিমান ভুলে জীবিত হয় বাল্বের সাহায্যে।

ভালোবাসার মূল্য দিতে জানে অক্সালিস। আপনি ঠিকমতো যত্ন নিতে জানলে ভালোবাসার প্রতিদান হিসেবে সে আপনাকে উপহার দিবে অসম্ভব সুন্দর কিছু ফুল। সাদা ফুলে হালকা বেগুনি আভা আর গুটিকয়েক রেখা। লালচে পাতার মাঝে উঁকি দেওয়া সেই ফুল দেখে কি আপনার মন আনন্দে ভরে উঠবে না?

ফুলসমেত অক্সালিস; (ছবি- ইন্টারনেট)

অক্সালিসকে সৌভাগ্যের প্রতীকও বলতে পারেন। কারণ, সাধারণ হলেও এ গাছ সবার ঘরে টেকে না। আপনার ঘরে যদি অক্সালিস ঠিকঠাকমতো থাকে তো নিজেকে সৌভাগ্যবান বলতে পারেন।

নিয়ম করে গাছে পানি দিন, বাড়তি পানি জমলে তা নিষ্কাশনের ব্যবস্থা করুন। সপ্তাহে একদিন বারান্দার হালকা রোদে রাখুন, তবে তার গায়ে লাগা তাপ যেন ২৫ ডিগ্রি না ছাড়ায় সে খেয়াল রাখুন। ব্যস, এক ঝাঁক প্রজাপতি মেলা বসাবে আপনার টবে। ভাগ্য সুপ্রসন্ন হলে দেখা পেয়ে যাবেন সফেদ ফুলেরও।

তথ্যসূত্র- আওয়ার হাউজ প্ল্যান্টস

ওডি/এনএম

jachai
nite
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
jachai

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: 02-9110584, +8801907484800

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড