• রবিবার, ২৫ আগস্ট ২০১৯, ১০ ভাদ্র ১৪২৬  |   ৩৩ °সে
  • বেটা ভার্সন

রেবেকা এখন যুক্তরাষ্ট্রে, ২৬ বছর আগের ভিডিও ভাইরাল

  ভিন্ন খবর ডেস্ক

২৭ জুলাই ২০১৯, ১৮:৪৭
রেবেকা শফি
রেবেকা শফি (ছবি : সংগৃহীত)

এক সময় রাজধানীর ধানমন্ডিতে থাকতেন রেবেকা শফি। রেবেকার বাবা ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের নামকরা অধ্যাপক আহমেদ শফি, মা অধ্যাপিকা সুলতানা শফি। রেবেকা বর্তমানে যুক্তরাষ্ট্রের প্রাচীনতম হার্ভার্ড বিশ্ববিদ্যালয়ে জেনেটিকস নিয়ে পোস্ট ডকটরাল রিসার্চ করছেন।

রেবেকার ছোট বেলার একটি ভিডিও সম্প্রতি ভাইরাল হয়েছে। ভিডিওটি রীতিমতো হৈচৈ ফেলে দিয়েছে। ২৬ বছর আগের সেই ভিডিও প্রশংসায় ভাসাচ্ছে তাকে।

ভিডিওর ঘটনা ১৯৯৩ সালের। তখন স্কুলের একটি বিতর্ক প্রতিযোগিতার ফাইনালে বক্তব্য দেন রেবেকা। তৎকালীন প্রধানমন্ত্রী খালেদা জিয়া ওই অনুষ্ঠানে উপস্থিত থেকে পুরস্কার দেন।

‘ছেড়ে দিয়েই জিতে যেতে চায়’ গত দুই দিন ধরে এই ভিডিও রীতিমতো ভাইরাল সোশ্যাল মিডিয়ায়। কেউ কেউ একাধিকবারও শুনছেন সেই ভিডিও।

সাধারণ মেয়ের স্কুলের অনুষ্ঠানের একটা বক্তব্য বলে মনে হলেও, তার গলায় যেন জাদু লুকিয়ে রয়েছে। তার কণ্ঠস্বর, তার উচ্চারণে মোহিত বাঙালি।

মাত্র আড়াই মিনিটের বক্তব্যে রেবেকা বলেছেন, কীভাবে জীবনে সে একটার পর একটা ইচ্ছে বিসর্জন দিয়েছে, সে কথাগুলোরই উল্লেখ আছে। খুব সাধারণ কথায় জীবনটা বুঝিয়ে দিয়েছে মেয়েটি। সব শেষে বলেছে, ‘একজন সৎ, পরিশ্রমী বিবেকবান মানুষ হতে পারলেই আমি খুশি। ছেড়ে দিয়ে আমি জিতে যেতে চাই।’

রেবেকার দাদা আবদুস সালাম ছিলেন একটি সংবাদপত্রের সম্পাদক। রেবেকার বড় বোন ফারিয়াল শফিও পদার্থ বিজ্ঞানের শিক্ষার্থী। এখন রেবেকা জেনেটিকসের একজন রিসার্চ ফেলো। এনডিমিয়া নামে এক পুত্র সন্তানের মা তিনি। নিউরোসায়েন্সের ইন্টারসেকশন নিয়ে তিনি কাজ করছেন হার্ভার্ড মেডিকেল স্কুলে।

দীর্ঘ দিন পর ভিডিওটি দেখে চমকে যান রেবেকাও। তিনি ফেসবুকে লিখেছেন, নিজের ১৫ বছর বয়সের ভিডিও দেখে আমি অবাক, পুরনো দিনে ফিরে যাচ্ছি।

 

ওডি/এমআর

আপনার চোখে পড়া অথবা জানা অন্যরকম অথবা ভিন্ন স্বাদের খবরগুলোও আমাদের কাছে গুরুত্বপূর্ণ। তাই সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: মোঃ তাজবীর হুসাইন

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: ০২-৯১১০৫৮৪

ই-মেইল: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০১৮-২০১৯

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড