• মঙ্গলবার, ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ১২ ফাল্গুন ১৪২৬  |   ২১ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

কনে ছাড়াই ধুমধাম বিয়ে!

  ভিন্ন খবর ডেস্ক

১৬ মে ২০১৯, ১০:৪৭
বিয়ে
ছবি : সংগৃহীত

বিয়ে বলতেই আমাদের মাথায় আসে দুজন মানুষের কথা, বর আর কনে। ধরুন কনে নেই কিন্তু বিয়ে হচ্ছে। এমন অদ্ভুত ঘটনা কী কখনো ঘটতে দেখেছেন? অবাক করা হলেও এমন ঘটনা সত্যিই ঘটেছে। বর একাই বিয়ে করেছেন। ঘটনাটি ঘটেছে ভারতের গুজরাটের হিম্মতনগরে। 

ভারতীয় গণমাধ্যমে প্রকাশিত খবরে জানা যায়, বিয়ে নিয়ে বাবার কাছে প্রায় জানতে চাইতো অজয়। গ্রামের কারো বিয়ে হতে দেখলেই বাবাকে সে প্রশ্ন করত, আমার কী বিয়ে হবে না? জবাবে প্রতিবারই বাবা তাকে সান্ত্বনা দিয়ে জানাতো, খুব শিগগিরই তার বিয়ে দেওয়া হবে। 

ধুমধাম করে বিয়ে হবে, ফুটফুটে বউ আনা হবে— এমন সব অলীক স্বপ্ন দেখাতেন ছেলেকে। অলীক স্বপ্ন কারণ অজয়ের বাবা বিষ্ণু বারোত জানতেন ছেলের কোনোদিনই বিয়ে হবে না। বিরল রোগে আক্রান্ত সে। আর তাই ছেলের বিয়ে দিয়ে অন্য একজন মানুষের জীবন নষ্ট করতে চান না তিনি। 

আর দশ পাঁচজন মানুষের চাইতে অজয়ের আচরণ ভিন্ন। সে লার্নিং ডিসএবিলিটির শিকার। এলাকাবাসী জানান, হিম্মতনগরের কারোর বিয়ে হলেই সেখানে পৌঁছে যান অজয়। ধার ধারেন না নিমন্ত্রণের। সেখানে গিয়ে কনে বা বর পক্ষের হয়েই উদ্দম নেচে আসেন। আর তারপর বাড়ি ফিরেন বিষণ্ণ মুখে। তারপর আবার সেই একই প্রশ্ন, ‘বাবা আমার কী বিয়ে হবে না!’

২৭ বছর বয়সী অজয়ের বিয়ের স্বপ্ন অবশেষে পূরণ হলো গত সোমবার (১৩ মে)। বিয়ের সাজে সেজেছে সে। গায়ে জড়িয়েছে সোনালি শেরওয়ানি, মাথায় পাগড়ি, গলায় গোলাপের মালা। পুরোদস্তুর বর সেজে ঘোড়ায় চড়ে চললেন বিয়ে করতে। আয়োজনের ঘাটতি নেই কোথাও। কিন্তু কনে কোথায়? সবার মনে একটাই প্রশ্ন। 

মূলত, কনে ছাড়াই সেদিন বিয়ে হয় অজয়ের। গুজরাটি আচার-অনুষ্ঠান মেনেই তার বিয়ে হয়। বিয়ের আগের দিন নিয়ম মেনে সংগীত ও মেহেন্দি অনুষ্ঠানও হয়। বিয়েতে কমপক্ষে ৮০০ অতিথি আমন্ত্রিত ছিলেন। 

অজয়ের বাবা বিষ্ণু বারোত বলেন, “বিয়ে করার ইচ্ছে ছিল ছেলের। তার স্বপ্ন পূরণ করতে পেরেছি এতেই আমরা খুশি। ওর জন্য মেয়ের জোগাড় করতে পারিনি ঠিকই, কিন্তু বিয়ের আচার-অনুষ্ঠানে কোনো ত্রুটি রাখিনি।” 

ওডি/এনএম 

আপনার চোখে পড়া অথবা জানা অন্যরকম অথবা ভিন্ন স্বাদের খবরগুলোও আমাদের কাছে গুরুত্বপূর্ণ। তাই সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: 02-9110584, +8801907484800

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড