• মঙ্গলবার, ১৮ ডিসেম্বর ২০১৮, ৪ পৌষ ১৪২৬  |   ১৯ °সে
  • বেটা ভার্সন

সর্বশেষ :

শিরোনাম :

থেরেসা মে : ব্রেক্সিট ইস্যুতে ব্রিটিশ পার্লামেন্টে ভোট জানুয়ারিতে||'নির্বাচনে জনগণের অধিকার নিশ্চিত করতে ব্রিটিশ সরকারের পদক্ষেপ আহ্বান'||রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন প্রস্তাব আলোচনা বর্জন করেছে চীন ও রাশিয়া||৩০০ কোটি টাকায় দুটি রুশ হেলিকপ্টার কিনছে বিজিবি||বরখাস্ত ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড কোচ হোসে মরিনহো||সু চি’কে দেওয়া পুরস্কার প্রত্যাহার করল দক্ষিণ কোরিয়া||নির্বাচনি পরিবেশ স্বাভাবিক, লেভেল প্লেয়িং ফিল্ডও বিদ্যমান : সিইসি||জামায়াতের ২২ নেতার ‘ধানের শীষ’ বাতিলে আদালতে রুল||যুক্তরাষ্ট্রের রাষ্ট্রদূতের সঙ্গে বৈঠকে বসেছে বিএনপি   ||প্রতিশোধের রাজনীতি বন্ধের অঙ্গীকার করল বিএনপি 

সমুদ্রের গভীরে ‘দুঃস্বপ্নের বাগান’!

  অধিকার ডেস্ক    ৩০ অক্টোবর ২০১৮, ১১:০৮

গভীর সমুদ্র
ছবি : সংগৃহীত

প্রায় তিন বছর আগে এক দল গবেষক প্রশান্ত মহাসাগরের গভীরে এক আশ্চর্য অঞ্চলের সন্ধান পান। তারা লক্ষ করেন, সমুদ্রের তলায় দীর্ঘ এলাকা জুড়ে যেন দুঃস্বপ্নের বসবাস। অতি ভয়ঙ্কর সেই অবয়ব। গবেষক দল এই অদ্ভুত ও আশ্চর্য অঞ্চলের নাম দেন ‘দুঃস্বপ্নের বাগান’। 

এই বিস্ময়কর বাগানের পেছনের রহস্য নিয়েই শুরু হয় অনুসন্ধান। জানা যায়, প্রায় ৪ দশমিক ৫ মাইলব্যাপী ছড়িয়ে থাকা এই বাগানের সব অপার্থিব স্থাপত্য মূলত কাঁচের যা বস্তুত লাভা। সম্প্রতি ‘ফ্রন্টিয়ার ইন আর্থ সায়েন্স’ জার্নালে প্রকাশিত হয়েছে এক প্রবন্ধ। এতে এই বাগানের স্বরূপ জানা যায়। 

আন্তর্জাতিক গণমাধ্যম ‘লাইভসায়েন্স.কম’ এ প্রকাশিত সংবাদ সূত্রে জানা যায়, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ওরিগন স্টেট ইউনিভার্সিটির বিজ্ঞানীরা জানিয়েছেন, এই বিস্ময়কর বাগান আবিষ্কারের কয়েক মাস পূর্বেই বিস্ফোরিত হয় এক আগ্নেয়গিরি। আর এতে উঠে আসে লাভা। বিজ্ঞানীদের ধারণা এই অগ্ন্যুৎপাত ছিল বিপুল। ধারণা করা হচ্ছে এই সমুদ্রের গভীরতম অঞ্চলের বিস্ফোরণ। 

গরম লাভা যখন ঠান্ডা পানির স্পর্শে আসে তখন ক্রিস্টালে পরিণত হওয়ার আগেই শক্ত হয়ে যায়। আর তাতেই সৃষ্টি হয় উদ্ভট এসব অবয়বের। আপাতত এই ‘দুঃস্বপ্নের বাগান’ই বিশ্বের গভীরতম অগ্ন্যুৎপাতের উদাহরণ। 
 

আপনার চোখে পড়া অথবা জানা অন্যরকম অথবা ভিন্ন স্বাদের খবরগুলোও আমাদের কাছে গুরুত্বপূর্ণ। তাই সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ই-মেইল: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড